সর্বশেষ আপডেট : ৩১ মিনিট ৫৪ সেকেন্ড আগে
সোমবার, ২০ সেপ্টেম্বর ২০২১ খ্রীষ্টাব্দ | ৫ আশ্বিন ১৪২৮ বঙ্গাব্দ |

DAILYSYLHET
Fapperman.com DoEscorts

সিলেটে একদিনে রেকর্ড ২০ জনের মৃত্যু

সিলেটে মহামারি করোনাভাইরাসে আরও ২০ জনের মৃত্যু হয়েছে। একদিনে মৃত্যুর সংখ্যায় এটাই সর্বোচ্চ। এছাড়া নতুন করে সংক্রমণ ধরা পড়েছে ৭১৫ জনের শরীরে। আজ বুধবার দুপুরে স্বাস্থ্য অধিদফতর সিলেট বিভাগীয় কার্যালয় এই তথ্য জানিয়েছে।

স্বাস্থ্য অধিদফতর জানায়, মঙ্গলবার সকাল ৮টা থেকে বুধবার সকাল ৮টা পর্যন্ত সময়ে সিলেট বিভাগে করোনাক্রান্ত ২০ ব্যক্তি মারা গেছেন। তাদের মধ্যে ওসমানী মেডিকেল কলেজ হাসপাতালে ৭ জনসহ সিলেট জেলাতেই মারা গেছেন ১৬ জন। এছাড়া সুনামগঞ্জে ৩ জন ও হবিগঞ্জে ১ জন মারা গেছেন।

করোনায় চব্বিশ ঘন্টায় সিলেটে এতো মানুষের মৃত্যু এর আগে হয়নি। সর্বশেষ গত ২৮ ও ৩০ জুলাই মারা যান ১৭ জন করে।

সবমিলিয়ে সিলেট বিভাগে করোনায় মৃতের সংখ্যা এখন ৭৪৮ জন। তন্মধ্যে সিলেট জেলায় ৫৯৯ জন, সুনামগঞ্জে ৫৫ জন, মৌলভীবাজারে ৬১ জন ও হবিগঞ্জে ৩৫ জনের প্রাণ গেছে।

সর্বশেষ চব্বিশ ঘন্টায় বিভাগে ৭১৫ জনের শরীরে করোনার অস্তিত্ব ধরা পড়েছে। ১ হাজার ৯১০ জনের নমুনা পরীক্ষা করে তাদেরকে শনাক্ত করা হয়েছে। শনাক্তের হার ৩৭.৪৩ ভাগ।

এ নিয়ে সিলেটে করোনাক্রান্তের সংখ্যা দাঁড়িয়েছে ৪২ হাজার ৭৩০ জনে। সর্বোচ্চ ২৬ হাজার ৬৭৫ জন আক্রান্ত হয়েছেন সিলেট জেলায়। সুনামগঞ্জে ৫ হাজার ২ জন, মৌলভীবাজারে ৫ হাজার ৯৩৯ জন ও হবিগঞ্জে ৫ হাজার ১১৪ জন আক্রান্ত হয়েছেন।

সিলেট বিভাগীয় পরিচালক (স্বাস্থ্য) ডা. হিমাংশু লাল রায় জানান, সর্বশেষ চব্বিশ ঘন্টায় সিলেট বিভাগে করোনা থেকে মুক্তি পেয়েছেন ৩০৩ জন। তাদের নিয়ে বিভাগে ৩১ হাজার ৯৭৩ জন সুস্থ হয়ে ওঠেছেন।

তিনি জানান, বর্তমানে সিলেটজুড়ে ৪৬৭ জন করোনা রোগী হাসপাতালে চিকিৎসাধীন।

সংবাদটি ভালো লাগলে শেয়ার করুন
  • 100
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  
    100
    Shares
নোটিশ : ডেইলি সিলেটে প্রকাশিত/প্রচারিত সংবাদ, আলোকচিত্র, ভিডিওচিত্র, অডিও বিনা অনুমতিতে ব্যবহার করা বেআইনি -সম্পাদক

© সর্বস্বত্ব স্বত্বাধিকার সংরক্ষিত

২০১১-২০১৭

সম্পাদকমন্ডলীর সভাপতি: মকিস মনসুর আহমদ
সম্পাদক ও প্রকাশক: খন্দকার আব্দুর রহিম, নির্বাহী সম্পাদক: মারুফ হাসান
অফিস: ৯/আই, ব্লু ওয়াটার শপিং সিটি, ৯ম তলা, জিন্দাবাজার, সিলেট।
ফোন: ০৮২১-৭২৬৫২৭, মোবাইল: ০১৭১৭৬৮১২১৪
ই-মেইল: [email protected]

Developed by: