সর্বশেষ আপডেট : ২ ঘন্টা আগে
শুক্রবার, ১৪ জুন ২০২৪ খ্রীষ্টাব্দ | ৩১ জ্যৈষ্ঠ ১৪৩১ বঙ্গাব্দ |

DAILYSYLHET
Fapperman.com DoEscorts

বাঙালি এক অভিনেত্রীর কারণেই কী কপিল সফল কমেডিয়ান!

ডেইলি সিলেট ডেস্ক ::
টেলিভিশনের পর্দায় হাস্যরস পরিপূর্ণ ধারাবাহিক হিসেবে জনপ্রিয়তার শীর্ষে পৌঁছে গিয়েছে কপিল শর্মা সঞ্চালিত শো। শোয়ে অতিথি হিসাবে কখনও উপস্থিত থাকেন বলি তারকারা, কখনও আবার নিজেদের ছবির প্রচারের কাজেও আসেন কপিল শর্মার ধারাবাহিকে। কিন্তু এই ধারাবাহিকে কাজ করার সময় এক বাঙালি অভিনেত্রী প্রতিনিয়ত কটাক্ষের শিকার হতেন বলে দাবি করেছেন অভিনেত্রী নিজেই।

চিত্রনাট্যের প্রয়োজনে এই অনুষ্ঠানে কপিলের স্ত্রীর ভূমিকায় অভিনয় করতে দেখা গিয়েছে টেলি অভিনেত্রী সুমনা চক্রবর্তীকে। শোয়ে মাঝেমধ্যেই সুমনার আচার-আচরণ নিয়ে মজা করতেন কপিল। সেই রসিকতা মনেও ধরেছে দর্শকের। কিন্তু শো চলাকালীন কপিলের ব্যবহার দেখে নিরাপত্তাহীনতায় ভুগতে শুরু করেছিলেন সুমনা। সম্প্রতি এক সাক্ষাৎকারে এমনটাই দাবি করেন তিনি।

সুমনার দাবি, শো চলাকালীন নিজের সংলাপ ভুলে যেতেন কপিল। নিজের ভুল ঢাকা দেয়ার জন্য সুমনার সঙ্গে কপিল এমন ব্যবহার করে বসেন যা অভিনেত্রীর মনে আঘাত দেয়। সাত বছরেরও বেশি সময় ধরে কপিলের সঙ্গে কাজ করছেন সুমনা। দীর্ঘ দিন ধরেই কপিলের কটাক্ষের শিকার তিনি।

কপিল এবং সুমনার অভিনয় দেখে বলি অভিনেতা রীতেশ দেশমুখ সরাসরি সুমনাকে বলেছিলেন, ‘তুমি এই শোয়ে রয়েছ, তাই তোমার জন্য কপিল এত বড় মাপের কমেডিয়ান হতে পেরেছে।’ এ কথা সাক্ষাৎকারে জানান সুমনা।

কপিলের সঙ্গে সবেমাত্র কাজ করা শুরু করেছিলেন সুমনা। শুটিংয়ের মাঝে নিজের সংলাপ ভুলে গিয়েছিলেন কপিল। তৎক্ষণাৎ সুমনার মুখের গড়ন নিয়ে মজা করতে শুরু করেন।

সুমনা বলেন, ‘শোয়ের প্রথম পর্বেই আমার মুখ নিয়ে মজা করেছিল কপিল। কিন্তু কপিলের মন্তব্য শুনে কারও কোনও প্রতিক্রিয়া ছিল না। আমার মুখ নিয়ে কোনও রকম মজা করলে তা দর্শকের পছন্দ হবে না বলে বুঝতে পারে কপিল। আর কোনও দিন তার পুনরাবৃত্তি হয়নি। কিন্তু এই ঘটনা আমার মনে ছাপ ফেলে।’

শুধুমাত্র প্রথম পর্বেই নয়, তার পরেও সুমনাকে নিয়ে কটাক্ষ করতেন কপিল। সুমনা সাক্ষাৎকারে জানান, তার পর থেকে অনবরত অভিনেত্রীর ঠোঁট নিয়ে নানা রকম মন্তব্য করে গিয়েছেন কপিল।

বার বার কপিলের মন্তব্যের চাপে নিরাপত্তাহীনতায় ভুগতে শুরু করেছিলেন সুমনা। এমনকি লিপস্টিক পরাও বন্ধ করে দিয়েছিলেন বলে দাবি করেন অভিনেত্রী।

শো চলাকালীন কপিল যখন সুমনার ঠোঁট নিয়ে মজা করতেন, তখন সকলে হাসাহাসি করতেন। সেটের মধ্যে এক দিন বিষণ্ণ হয়ে বসেছিলেন সুমনা। সুমনার মনখারাপ বুঝে তার কাছে যান শোয়ের বিচারক অর্চনা পূরণ সিংহ।

কপিল যে অনবরত সুমনার মুখ এবং ঠোঁট নিয়ে মন্তব্য করে যান তা নিয়ে মুষড়ে পড়েছিলেন অভিনেত্রী। সুমনা বলেন, ‘কপিল মাঝে লাইন ভুলে গেলেও আমাকে নিয়ে মজা করে। বাকিরাও তা নিয়ে হাসে। আমার আর ভাল লাগে না। আমি স্ট্যান্ড আপ কমেডিয়ান নই। যখন তখন যে কোনও বিষয় নিয়ে মজা করতে পারি না। আমি মজা করলেও লোকে তা বুঝতে পারবেন না।’

সুমনার মনের অবস্থা বুঝে অর্চনা বলেছিলেন, ‘তুমি যে দিন নিজেকে নিয়ে হাসিঠাট্টা করতে শিখে যাবে সে দিন থেকে তোমাকে নিয়ে কে কী মন্তব্য করল তা নিয়ে মনখারাপ হবে না।’

অর্চনার কথামতো নিজের ভাবনাচিন্তা বদলাতে শুরু করেন সুমনা। তার পর নিজের মনে বল ফিরে পান অভিনেত্রী। লিপস্টিক পরাও শুরু করেন।

সংবাদটি শেয়ার করুন

Comments are closed.

নোটিশ : ডেইলি সিলেটে প্রকাশিত/প্রচারিত সংবাদ, আলোকচিত্র, ভিডিওচিত্র, অডিও বিনা অনুমতিতে ব্যবহার করা বেআইনি -সম্পাদক

© সর্বস্বত্ব স্বত্বাধিকার সংরক্ষিত

২০১১-২০১৭

সম্পাদকমন্ডলীর সভাপতি: মকিস মনসুর আহমদ
সম্পাদক ও প্রকাশক: খন্দকার আব্দুর রহিম, নির্বাহী সম্পাদক: মারুফ হাসান
অফিস: ৯/আই, ব্লু ওয়াটার শপিং সিটি, ৯ম তলা, জিন্দাবাজার, সিলেট।
ফোন: ০৮২১-৭২৬৫২৭, মোবাইল: ০১৭১৭৬৮১২১৪
ই-মেইল: dailysylhet@gmail.com

Developed by: