সর্বশেষ আপডেট : ২ ঘন্টা আগে
শনিবার, ২২ জুন ২০২৪ খ্রীষ্টাব্দ | ৮ আষাঢ় ১৪৩১ বঙ্গাব্দ |

DAILYSYLHET
Fapperman.com DoEscorts

মৌলভীবাজারে ঘোড়দৌড় প্রতিযোগিতা অনুষ্ঠিত

মৌলভীবাজার সংবাদদাতা ::

কালের পরিক্রমায় অনেকটা হারিয়ে যেতে বসেছে গ্রাম-বাংলার ঐতিহ্যবাহী ঘোড়দৌড় প্রতিযোগিতা। শনিবার (৩১ ডিসেম্বর) দুপুরে হারিয়ে যাওয়া ঐতিহ্যকে ফিরিয়ে আনতে মৌলভীবাজার জেলা পরিষদের আয়োজনে স্থানীয় স্টেডিয়াম মাঠে ঘোড়দৌড় প্রতিযোগিতার আয়োজন করা হয়।

শীতের পড়ন্ত বিকেলের গোধূলি লগন পর্যন্ত প্রতিযোগিতায় প্রতিদ্বন্দ্বী ঘোড়াগুলো মাঠের উত্তর প্রান্ত থেকে দক্ষিণ প্রান্তে ছুটতে শুরু করে। ঊর্ধ্বশ্বাসে ছুটে চলা ঘোড়ার প্রতিযোগিতা উপভোগ করেন হাজার হাজার মানুষ। সবার দৃষ্টি মাঠের মাঝ দিয়ে ছুটে চলা ওই ঘোড়াগুলোর দিকে।

জানা যায়, দোয়েল পাখি, মামাভাগ্নে, মায়ের আদেশ, বাংলা ভাই, লালু পাগলা সহ বিভিন্ন নামের ছোট বড় ৪৬টি ঘোড়ার মালিকরা তাদের ঘোড়া নিয়ে ভোর হতেই স্থানীয় স্টেডিয়াম মাঠে হাজির হন।

‘ঘোড়দৌড় কোনো দিন দেখিনি, তাই দেখতে এসেছি।’ ঘোড়দৌড় দেখতে এসে এমন উচ্ছ্বাস প্রকাশ করেন চতুর্থ শ্রেণির শিক্ষার্থী তসলিমা ও রায়েল।

ঘোড়দৌড় দেখতে আসা শাম্মী আক্তার বলেন, অনেক দিন আগে ঘোড়দৌড় দেখেছি। এখন আর কোথাও ঘোড়দৌড় হয় না। এ আয়োজনে অনেক মানুষ দূর-দূরান্ত থেকে এসেছেন। এ প্রতিযোগিতা দেখতে। খুবই ভালো লাগছে।

ঘোড়সওয়ার সাব্বির হোসেন জানান, তারা সিলেটের কোম্পানীগঞ্জ থেকে ‘দুইভাইয়ের মায়া’ নামক ঘোড়া নিয়ে এখানে এসেছেন। পুরস্কার জয়ের জন্য নয়, শখের বসেই ঘোড়া দৌড়ে অংশ নেন তিনি।

রনজিৎ বাচ্চা নামের ঘোড়ার সওয়ার নাবিল হোসেন বলেন, ‘পুরস্কারের জন্য নয়। শখের বসে আমার ঘোড়া রনজিৎ বাচ্চাকে নিয়ে দেশের বিভিন্ন স্থানে যাই। ঘোড়া দৌড়ে অংশ নেই। আনন্দ পাই, ভালোও লাগে।’

মৌলভীবাজার জেলা পরিষদের চেয়ারম্যান মিছবাহুর রহমানের সভাপতিত্ব এই আয়োজনে প্রধান অতিথি হিসেবে উপস্থিত ছিলেন মৌলভীবাজার-৩ আসনের সংসদ সদস্য নেছার আহমদ।

বিশেষ অতিথি হিসেবে উপস্থিত ছিলেন-জেলা প্রশাসক মীর নাহিদ আহসান, পুলিশ সুপার মোহাম্মদ জাকারিয়া, জেলা পরিষদের প্রধান নির্বাহী খোদেজা খাতুন ও পৌর মেয়র মো. ফজলুর রহমান।

আয়োজক সূত্রে জানা যায়, দেশের বিভিন্ন স্থান থেকে প্রতিযোগিতায় অংশ নিতে ঘোড়া নিয়ে আসেন ঘোড়ার মালিকরা। প্রতিযোগিতা শেষে পুরস্কার গ্রহণ করেন তারা। ঘোড়দৌড় প্রতিযোগিতায় ছোট ও বড় ৪৬টি ঘোড়া অংশগ্রহণ করে।

এই প্রতিযোগিতায় ছোট ঘোড়ার ক্যাটেগরিতে ১ম হয়েছে শুভরাজ, ২য় আমার স্বপ্ন ও ৩য় হয়েছে আর্মি টাইগার। এছাড়াও বড় ঘোড়ার ক্যাটাগরিতে ১ম হয়েছে জয় বাংলা, ২য় সোনার ময়না এবং ৩য় হয়েছে নিউ সোনারতরী। বিশেষ পুরস্কার পায় রনজিৎ বাচ্চা।

সংবাদটি শেয়ার করুন

Comments are closed.

এ বিভাগের অন্যান্য খবর

নোটিশ : ডেইলি সিলেটে প্রকাশিত/প্রচারিত সংবাদ, আলোকচিত্র, ভিডিওচিত্র, অডিও বিনা অনুমতিতে ব্যবহার করা বেআইনি -সম্পাদক

© সর্বস্বত্ব স্বত্বাধিকার সংরক্ষিত

২০১১-২০১৭

সম্পাদকমন্ডলীর সভাপতি: মকিস মনসুর আহমদ
সম্পাদক ও প্রকাশক: খন্দকার আব্দুর রহিম, নির্বাহী সম্পাদক: মারুফ হাসান
অফিস: ৯/আই, ব্লু ওয়াটার শপিং সিটি, ৯ম তলা, জিন্দাবাজার, সিলেট।
ফোন: ০৮২১-৭২৬৫২৭, মোবাইল: ০১৭১৭৬৮১২১৪
ই-মেইল: dailysylhet@gmail.com

Developed by: