সর্বশেষ আপডেট : ৫ ঘন্টা আগে
শুক্রবার, ১২ অগাস্ট ২০২২ খ্রীষ্টাব্দ | ২৮ শ্রাবণ ১৪২৯ বঙ্গাব্দ |

DAILYSYLHET
Fapperman.com DoEscorts

ছাত্রলীগ সভাপতির নির্দেশে ছে’লের মুখে জুতার বাড়ি দেখে বাবার মৃ’ত্যু

হাসপাতা’লে অ’সুস্থ বাবার সামনে ছে’লেকে নিজের মুখে জুতার বাড়ি দিতে বাধ্য করার অ’ভিযোগ উঠেছে এক ছাত্রলীগ নেতার বি’রুদ্ধে। ছে’লের এমন অ’পমান সইতে না পেরে মৃ’ত্যু হয়েছে বাবার।

শুক্রবার (১০ ডিসেম্বর) যশোর মেডিকেল কলেজ হাসপাতা’লে চিকিৎসাধীন অবস্থায় তার মৃ’ত্যু হয়। হৃদরোগে আ’ক্রান্ত হয়ে গত ৮ ডিসেম্বর ঝিনাইদনের মহেশপুর উপজে’লা স্বাস্থ্য কমপ্লেক্সে ভর্তি হয়েছিলেন গিয়াস উদ্দিন (৬২) নামের ওই ব্যক্তি।

অ’ভিযু’ক্ত ছাত্রলীগ নেতার নাম আরিফুজ্জামান বিপাশ। তিনি মহেশপুর উপজে’লা ছাত্ররীগের সভাপতি।ভুক্তভোগী ওই তরুণের নাম এস এম সরকার ওরফে হোসেন সরকার।

প্রত্যক্ষদর্শী সূত্রে জানা গেছে, পিতা গিয়াস সরকারের বেডের পাশে দাঁড়িয়ে ছিলেন হোসাইন। পরে সেখানে আসেন মহেশপুর উপজে’লা ছাত্রলীগ সভাপতি আরিফুজ্জামান বিপাশসহ কয়েকজন। হোসাইনকে সহ’জেই বাগে পেয়ে যান তারা। শা’স্তি হিসেবে জুতাপে’টা।

এদিকে এই ঘটনার ভিডিও ধারন করে সামাজিক যোগাযোগমাধ্যমে ছড়িয়ে দেওয়া হয়েছে। ভিডিওতে দেখা গেছে, প্রথমে উপজে’লা ছাত্রলীগ সভাপতি মো. আরিফুজ্জামান বিপাসের পা ধরে মাফ চাচ্ছেন এস এম সরকার।

কথোপকথনের একপর্যায়ে পা থেকে জুতা খুলে দেন উপজে’লা ছাত্রলীগ সভাপতি মো. আরিফুজ্জামান বিপাস। হোসেনকে নিজের গালে সেই জুতা দিয়ে আ’ঘাত করার নির্দেশ দেন তিনি। নির্দেশ পালনে কয়েকবার নিজের মুখে জুতার বাড়ি দিতে বাধ্য হন এস এম সরকার।

নিজের বি’রুদ্ধে আনা এসব অ’ভিযোগ অস্বীকার করেছেন আরিফুজ্জামান বিপাশ। তিনি বলেন, ওই কর্মী নিজেই তাকে জুতা দিয়ে মা’রতে বলেন। তখন তিনি নিজে না মে’রে পা থেকে জুতা খুলে এগিয়ে দেন। তখন তিনি নিজেই জুতা মা’রেন।

সংবাদটি ভালো লাগলে শেয়ার করুন

Comments are closed.

নোটিশ : ডেইলি সিলেটে প্রকাশিত/প্রচারিত সংবাদ, আলোকচিত্র, ভিডিওচিত্র, অডিও বিনা অনুমতিতে ব্যবহার করা বেআইনি -সম্পাদক

© সর্বস্বত্ব স্বত্বাধিকার সংরক্ষিত

২০১১-২০১৭

সম্পাদকমন্ডলীর সভাপতি: মকিস মনসুর আহমদ
সম্পাদক ও প্রকাশক: খন্দকার আব্দুর রহিম, নির্বাহী সম্পাদক: মারুফ হাসান
অফিস: ৯/আই, ব্লু ওয়াটার শপিং সিটি, ৯ম তলা, জিন্দাবাজার, সিলেট।
ফোন: ০৮২১-৭২৬৫২৭, মোবাইল: ০১৭১৭৬৮১২১৪
ই-মেইল: [email protected]

Developed by: