সর্বশেষ আপডেট : ৬ ঘন্টা আগে
মঙ্গলবার, ২৮ মে ২০২৪ খ্রীষ্টাব্দ | ১৪ জ্যৈষ্ঠ ১৪৩১ বঙ্গাব্দ |

DAILYSYLHET
Fapperman.com DoEscorts

নেতার পেনড্রাইভ ভর্তি পর্ণ ভিডিও, মোদীর কপালে চিন্তার ভাজ

ডেইলি সিলেট ডেস্ক ::

পেনড্রাইভ ভর্তি ৩ হাজার অশ্লীল ভিডিও ঘিরে তোলপাড়, অস্বস্তিতে বিজেপি দাক্ষিণ ভারতের রাজনীতিতে সাবেক প্রধানমন্ত্রী ও জনতা দলের নেতা এইচ ডি দেবেগৌড়ার নাতি প্রজ্বল রেভান্নার যৌন কেলেঙ্কারি সংক্রান্ত ভিডিও ঘিরে তোলপাড় শুরু হয়েছে। বিষয়টি নিয়ে অস্বস্তিতে পড়েছে বিজেপি। যদিও বিজেপির সঙ্গে এই ঘটনার সরাসরি সংযুক্তি নেই। তবে দাক্ষিণাত্যে বিজেপি নেতৃত্বাধীন জোটে রয়েছে জনতা দল

ফলে, জনতা দলের নেতা প্রজ্বল রেভান্নারর এই কেলেঙ্কারিতে ‘মুখ পুড়ছে’ বিজেপিরও। তাই বিষয়টি জনতা দলের নিজস্ব বলে সাফাই গাইলেও এমন কেলেঙ্কারি জড়িত পরিবারের সঙ্গে জোটের ফলে প্রশ্নের মুখে পড়তে হচ্ছে বিজেপিকে। এরইমধ্যে রাজ্যের সভাপতিকে লেখা কর্নাটকের এক বিজেপি নেতার চিঠিতে উঠে এল আরও ভয়ঙ্কর দাবি।

বিষয়টি নিয়ে পরে জলঘোলা হবে- তা আগেই আঁচ করেছিলেন তিনি। তারপর দলকে সতর্ক করেছিলেন চিঠির মাধ্যমে। তখন ওই নেতা দাবি করেছিলেন, কংগ্রেস নেতাদের হাতে জনতা দলের নেতা প্রজ্বল রেভান্নারর যৌন কেলেঙ্কারির ভিডিও আছে। ভবিষ্যতে এটি নিয়ে বড় ইস্যু তৈরির সম্ভাবনাও রয়েছে।

যদিও এনিয়ে মুখ খুলেছেন জনতা দলের সুপ্রিমো এইচ ডি কুমারস্বামী। নারীদের উদ্দেশ্যে তিনি বলেন, ভয় পাওয়ার কোনও কারণ নেই। কেউ দোষ করে থাকলে তার বিরুদ্ধে ব্যবস্থা নেয়া হবে, তিনি যেই হোন না কেন। নারীদের পাশে রয়েছে দল। সব সময় তাদের হয়ে আওয়াজ তুলবে বলে প্রতিশ্রুতি দিয়েছেন তিনি।

চিঠিতে কী দাবি করেছেন নেতা?

বিজেপি রাজ্য সভাপতি বিওয়াই বিজয়েন্দ্রকে ২০২৩ সালের ৮ ডিসেম্বর এই চিঠি লিখেছিলেন দেবরাজে গৌড়া। ২০২৩ সালে বিধানসভা নির্বাচনে দলের হোলেনরসিপুরা প্রার্থী হয়েছিলেন তিনি। চিঠিতে লিখেছিলেন, একটি পেনড্রাইভ ইতোমধ্যে হাতে পেয়ে গেছে কংগ্রেস, যাতে ২ হাজার ৯৭৬টি যৌন কেলেঙ্কারি সংক্রান্ত রেভান্নার ভিডিও রয়েছে। প্রতিটি ভিডিওতে নারীদের যৌন নিগ্রহ আছে। ফুটেজগুলো নারীদের ব্ল্যাক মেইল করতে ব্যবহার করেছিলেন রেভান্না। সেগুলো প্রকাশ হয়ে গেলে বিজেপি ও জনতা দলের জোটের জন্য বড় ধাক্কা হতে পারে।

চিঠিতে দাবি করা হয়েছে, ভিডিওগুলোতে একাধিক নারী সরকারি কর্মকর্তাকেও দেখা গেছে।

সেই সময় জনতা দলের সঙ্গে বিজেপি জোট বাঁধার বিষয়টি ভবিষ্যতে ‘ব্যাক ফায়ার’ হতে পারে বলে সতর্কবাণী দিয়েছিলেন ওই বিজেপি নেতা। লিখেছিলেন, ‘যদি আমরা জনতা দল জেডি (এস) এর সঙ্গে জোট বেঁধে লোকসভা নির্বাচনে হাসানে জেডি (এস) প্রার্থীকে মনোনীত করি তবে ভবিষ্যতে বিজেপিকে বিপাকে ফেলতে এই ভিডিওগুলোকে ব্রহ্মাস্ত্র হিসেবে ব্যবহার করতে পারে বিরোধীরা। আর তাতে কলঙ্কিত হবে বিজেপি। সকলেই তখন বলবে ধর্ষকের পরিবারের সঙ্গে জোট বেঁধেছি আমরা। এটি জাতীয়ভাবে আমাদের দলের ভাবমূর্তির জন্য একটি বড় ধাক্কা হবে।’

এদিকে প্রজ্বল রেভান্নার যৌন কেলেঙ্কারির ঘটনা প্রকাশ্যে আসতেই সাবেক মুখ্যমন্ত্রী এইচডি কুমারস্বামীর ঘনিষ্ঠ বলে পরিচিত জনতা দল (সেকুলার) বা জেডি (এস) বিধায়ক সোমবার দলের সাংসদ প্রজ্জ্বল রেভান্নাকে বহিষ্কারের দাবি জানিয়েছেন। জেডি (এস) বিধায়ক শরণ গৌড়া কান্দকুর দলের জাতীয় সভাপতি এবং প্রজ্বলের রেভান্না দাদা এইচডি দেবগৌড়াকে চিঠি লিখে ব্যবস্থা নেয়ার দাবি জানিয়েছেন।

সংবাদটি শেয়ার করুন

Comments are closed.

নোটিশ : ডেইলি সিলেটে প্রকাশিত/প্রচারিত সংবাদ, আলোকচিত্র, ভিডিওচিত্র, অডিও বিনা অনুমতিতে ব্যবহার করা বেআইনি -সম্পাদক

© সর্বস্বত্ব স্বত্বাধিকার সংরক্ষিত

২০১১-২০১৭

সম্পাদকমন্ডলীর সভাপতি: মকিস মনসুর আহমদ
সম্পাদক ও প্রকাশক: খন্দকার আব্দুর রহিম, নির্বাহী সম্পাদক: মারুফ হাসান
অফিস: ৯/আই, ব্লু ওয়াটার শপিং সিটি, ৯ম তলা, জিন্দাবাজার, সিলেট।
ফোন: ০৮২১-৭২৬৫২৭, মোবাইল: ০১৭১৭৬৮১২১৪
ই-মেইল: dailysylhet@gmail.com

Developed by: