সর্বশেষ আপডেট : ২ ঘন্টা আগে
রবিবার, ২৩ জুন ২০২৪ খ্রীষ্টাব্দ | ৯ আষাঢ় ১৪৩১ বঙ্গাব্দ |

DAILYSYLHET
Fapperman.com DoEscorts

সিলেট নগরীর বাসা-বাড়িতে ঢুকছে পানি, বিভিন্ন উপজে’লায় ব’ন্যা পরিস্থিতির অবনতি

সিলেটে ব্যাপক বৃষ্টিপাত ও ভা’রত থেকে আসা পাহাড়ি ঢলে তিন নদীর পানি বেড়ে ব’ন্যা পরিস্থিতি জটিল আকার ধারন করেছে। সুরমা নদীর পানি বেড়ে যাওয়ায় সিলেট নগরীর নদী তীরবর্তী এলাকাও যাচ্ছে পানির নিচে। সোমবার সন্ধ্যা পর্যন্ত সিলেটের তালতলা পয়েন্টও ডুবে গেছে পানির নিচে। এছাড়াও নগরীর উপশহর, সোবহানিঘট, কালিঘাট, ছড়ারপাড়, শেখঘাট, তালতলা, মাছিমপুরসহ বিভিন্ন এলাকার বাসা বাড়িতে ঢুকছে পানি।

এদিকে, অব্যাহত বৃষ্টি আর উজানের ঢলে সিলেটের জকিগঞ্জ, কানাইঘাট, গোয়াইনঘাট, জৈন্তাপুর, ও কোম্পানীগঞ্জ উপজে’লার বেশীরভাগ মানুষ পানিব’ন্দি হয়ে পড়েছেন। এছাড়াও বিয়ানীবাজার-গো’লাপগঞ্জসহ বাকি উপজে’লায় আংশিক অংশের মানুষও পানিব’ন্দি হয়ে পড়েছেন।

নদীগুলোর পানিসীমা’র সর্বশেষ তথ্য আজ সোমবার সকালে জানিয়েছে সিলেট পানি উন্নয়ন বোর্ড (পাউবো)। তারা জানায়, সুরমা, কুশিয়ারা ও সারি নদীর পানি তিনটি পয়েন্টে বিপৎসীমা অ’তিক্রম করেছে। কয়েকটি পয়েন্টে গতকালের চেয়ে আজ পানি বেড়েছে।

পাউবো জানায়, আজ সোমবার সকাল ৯টায় সুরমা নদীর পানি কানাইঘাট পয়েন্টে বিপৎসীমা’র ১.২৮ মিটার ওপর দিয়ে প্রবাহিত হচ্ছিল। গতকাল সন্ধ্যা ৬টার চেয়ে আজ সকালে এ পয়েন্টে পানি বেড়েছে ৩ সেন্টিমিটার।

সুরমা’র পানি সিলেট পয়েন্টে গতকালের চেয়ে আজ বেড়েছে। গতকাল সন্ধ্যায় সিলেট পয়েন্টে পানি ছিল ১০.৪৯ মিটার। আজ সকালে পানিসীমা দাঁড়িয়েছে ১০.৬৬ মিটার।

কুশিয়ারা নদীর পানি আমলশিদ পয়েন্টে আজ সকালে বিপৎসীমা’র ৬৫ সেন্টিমিটার ওপর দিয়ে প্রবাহিত হচ্ছিল। এ নদীর পানি শেরপুর পয়েন্টে বেড়েছে। গতকাল সন্ধ্যায় এ পয়েন্টে পানিসীমা ছিল ৬.৮৩ মিটার; আজ সকাল ৯টায় পানিসীমা হয় ৬.৯৬ মিটার। পানি বেড়েছে ফেঞ্চুগঞ্জ পয়েন্টেও। এখানে আজ সকাল ৬টায় পানিসীমা ছিল ৮.৭০ মিটার; সকাল ৯টায় পানিসীমা দাঁড়ায় ৮.৭৪ মিটার।
এদিকে, গোয়াইনঘাটের সারি নদীর পানি বিপৎসীমা’র ৮ সেন্টিমিটার ওপর দিয়ে প্রবাহিত হচ্ছে।

এ ছাড়া কানাইঘাটের লো’ভা নদীর পানি গতকালের চেয়ে বেড়েছে ২৯ সেন্টিমিটার। গতকাল ছিল ১৪.৩৬ মিটার; আজ সকালে ১৪.৬৫ মিটার।

সোমবার সকালের এ চিত্র বদলে গেছে বিকালে, সময় যতো গড়াচ্ছে পানি বাড়ছে, বাড়ছে মানুষের ভোগান্তি। এমতাবস্থায় সরকারি সহযোগীতার পাশাপাশি প্রকৃতি ও সৃষ্টিক’র্তার উপর ভরসা করতে হচ্ছে সাধারন মানুষদের।

সংবাদটি শেয়ার করুন

Comments are closed.

এ বিভাগের অন্যান্য খবর

নোটিশ : ডেইলি সিলেটে প্রকাশিত/প্রচারিত সংবাদ, আলোকচিত্র, ভিডিওচিত্র, অডিও বিনা অনুমতিতে ব্যবহার করা বেআইনি -সম্পাদক

© সর্বস্বত্ব স্বত্বাধিকার সংরক্ষিত

২০১১-২০১৭

সম্পাদকমন্ডলীর সভাপতি: মকিস মনসুর আহমদ
সম্পাদক ও প্রকাশক: খন্দকার আব্দুর রহিম, নির্বাহী সম্পাদক: মারুফ হাসান
অফিস: ৯/আই, ব্লু ওয়াটার শপিং সিটি, ৯ম তলা, জিন্দাবাজার, সিলেট।
ফোন: ০৮২১-৭২৬৫২৭, মোবাইল: ০১৭১৭৬৮১২১৪
ই-মেইল: dailysylhet@gmail.com

Developed by: