সর্বশেষ আপডেট : ২ ঘন্টা আগে
বৃহস্পতিবার, ১ ডিসেম্বর ২০২২ খ্রীষ্টাব্দ | ১৭ অগ্রহায়ণ ১৪২৯ বঙ্গাব্দ |

DAILYSYLHET
Fapperman.com DoEscorts

ব্রিটেনে এসাইলাম সীকাদের রুয়ান্ডায় পাঠানো হচ্ছে, প্রথম ফ্লাইট মঙ্গলবার

এসাইলাম সীকারদের নিয়ে আগামী মঙ্গলবার যে ফ্লাইটটি ব্রিটেন থেকে রুয়ান্ডায় যাওয়ার কথা আছে, সেটিকে যাওয়ার অনুমতি দিয়েছে লন্ডনের হাইকোর্ট। তবে হাই কোর্টের এই রায়ের বিষয়ে সোমবার আপিল আ’দালতে শুনানি হবে।

একক আবেদনকারীর পক্ষে রায় না দিতে হাইকোর্টের বিচারকদের প্রতি আর্জি জানিয়ে হোম অফিসের আইনজীবীরা হাই কোর্ট’কে বলেন, জনস্বার্থে সরকার এসাইলাম সীকারদের রুয়ান্ডায় পাঠানোর সিদ্ধান্ত নিয়েছে। এ কারণে সরকারের এই পরিকল্পনায় আ’দালতের বাধা দেয়া উচিত হবেনা।

যারা অ’বৈধভাবে ব্রিটেনে প্রবেশ করবে, ব্রিটিশ সরকারের সম্প্রতি গৃহীত নীতির আওতায় তাদেরকে উড়োজাহাজে পাঠিয়ে দেয়া হবে রুয়ান্ডায় এবং সে দেশেই তাঁরা এসাইলাম আবেদন করবেন। আগামী মঙ্গলবার এ ধরনের প্রথম ফ্লাইট ব্রিটেন থেকে উড়ে যাবে রুয়ান্ডায়। এই ফ্লাইটে ৩১জন যাত্রী থাকবেন।

ব্রিটিশ সরকার আশা করছে, রুয়ান্ডায় যেতে হবে জেনে ইংলিশ চ্যানেল পাড়ি দিয়ে অ’বৈধভাবে ব্রিটেনে প্রবেশে নিরুৎসাহিত হবে অ’ভিবাসনপ্রত্যাশীরা। রুয়ান্ডায় এসাইলাম প্রার্থীদের আবেদন বিবেচনায় থাকাকালে সেদেশে তাদের থাকার ব্যবস্থা এবং অন্যান্য সহযোগিতা করবে রুয়ান্ডান সরকার।

আর রুয়ান্ডায় এসাইলাম আবেদন সফল হলে সেদেশে পাঁচ বছর অবস্থানের অনুমতি পাবেন এসাইলাম আবেদনকারীরা। এসময় শিক্ষা সহ অন্যান্য বিষয়ে সরকারি সহায়তা পাবেন এসকল আশ্রয় প্রার্থী। যাদেরকে রুয়ান্ডান সরকার এসাইলাম দেবেনা, তাদেরকে অন্যান্য ইমিগ্রেশন রুটে ভিসার আবেদনের সুযোগ দেবে সে দেশের সরকার।

বে বৈধ? শুক্রবার একজন এসাইলাম আবেদনকারীর পক্ষের আইনজীবী, শরণার্থী অধিকার বিষয়ক সংস্থার প্রতিনিধি এবং ট্রেড ইউনিয়নের প্রতিনিধি হাইকোর্ট’কে বলেন, সরকারের এই নীতি অ’বৈধ এবং অন্যান্য দেশের যু’দ্ধ পরিস্থিতি এবং অ’ত্যাচার থেকে পালিয়ে আসা মানুষের জন্য রুয়ান্ডাকে একটি নিরাপদ দেশ মনে করা অযৌক্তিক।

এসাইলাম সীকারের পক্ষের আইনজীবী রাজা হোসেন শুক্রবার হাইকোর্টের বিচারককে বারবার বলেন, জাতিসংঘ শরণার্থী বিষয়ক সংস্থা ইউএনএইচসিআর ব্রিটিশ সরকারের রুয়ান্ডা বিষয়ক নীতিকে সম’র্থন করে বলে হোম অফিস যে বক্তব্য দিয়ে আসছে, তা বি’ভ্রান্তিকর এবং ভুল।

হোম সেক্রেটারি প্রীতি প্যাটেল বার বার বলে আসছেন, রেফুজি কনভেনশন অনুযায়ী রুয়ান্ডা সরকারের সাথে ব্রিটিশ সরকারের চুক্তি বৈধ। কিন্তু জাতিসংঘের পক্ষের একজন ব্যারিস্টার শুক্রবার হাই কোর্টের বিচারককে বলেন, ইউএনএইচসিআর কিছুতেই ব্রিটিশ সরকারের রুয়ান্ডা উদ্যোগকে সম’র্থন করেনা। তিনি আরও বলেন, বিবাদী পক্ষকে আম’রা জানিয়েছি, এই উদ্যোগ বেআইনি।

একবার নয়, অনেকবার বিষয়টি জাতিসংঘের পক্ষ থেকে স্পষ্ট করা হয়েছে। এপ্রিল মাসে রুয়ান্ডার কিগালিতে দুই সরকারের মধ্যে চুক্তি স্বাক্ষরের পর জাতিসংঘের প্রতিনিধি প্রীতি প্যাটেলের সাথে দুইবার সাক্ষাত করে জানান, এই চুক্তি আন্তর্জাতিক আইনের লঙ্ঘন।

এরপর গত মাসে জেনেভায় রুয়ান্ডার পররাষ্ট্র মন্ত্রিকে সাথে নিয়ে প্রীতি প্যাটেল দেখা করেন জাতিসংঘের শরণার্থী বিষয়ক হাইকমিশনারের সাথে। প্রীতি প্যাটেল আশা করেছিলেন, তিনি এই চুক্তিকে সম’র্থন দেবেন। কিন্তু তিনি সম’র্থন দেননি। বরং জাতিসংঘের শরণার্থী বিষয়ক হাইকমিশনার ফিলিপ্পো গ্র্যান্ডি হোম সেক্রেটারিকে বলেন, ব্রিটেনের প্রস্তাব রেফুজি কনভেনশনের ঘোষণা এবং চেতনার পরিপন্থী। এছাড়া এটি আন্তর্জাতিক শরণার্থী সুরক্ষা আইনেরও পরিপন্থী।

হোম অফিশয়ে আইনজীবীরা অবশ্য হাইকোর্ট’কে বলেন, চলতি বছর এরই মধ্যে দশ হাজারের বেশী এসাইলাম সীকার জীবনের ঝুঁ’কি নিয়ে ইংলিশ চ্যানেল পাড়ি দিয়ে ব্রিটেনে প্রবেশ করেছে। ইমিগ্রেশন ডিটেনশন সেন্টারগুলোতে এই মুহূর্তে ১শ’র মতো এসাইলাম সীকার রুয়ান্ডায় ডিপোর্ট হওয়ার অ’পেক্ষায় আছেন। গ্যাটউইকের কাছে ব্রুকহাউসে কয়েকজন এসাইলাম সীকার রুয়ান্ডায় পাঠানোর প্রতিবাদে অনশন করেছে। সিরিয়ান এক এসাইলাম সীকার বিবিসির সাথে কথা বলেছেন। তাঁর বক্তব্য অনুবাদ করেছেন একজন অনুবাদক।

জুলাই মাসের শেষের দিকে এসাইলাম সীকারদের রুয়ান্ডায় পাঠানোর সরকারী নীতির বিচার বিভাগীয় পূর্ণাঙ্গ পর্যালোচনা হবে। হাই কোর্টের শুক্রবারের রায়ের বিষয়ে সোমবার আপিল আ’দালতে শুনানি হবে। পাশাপাশি অন্য এসাইলাম আবেদনকারীও সোমবার আ’দালতের শরণাপন্ন হতে পারেন।

সংবাদটি শেয়ার করুন

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *

নোটিশ : ডেইলি সিলেটে প্রকাশিত/প্রচারিত সংবাদ, আলোকচিত্র, ভিডিওচিত্র, অডিও বিনা অনুমতিতে ব্যবহার করা বেআইনি -সম্পাদক

© সর্বস্বত্ব স্বত্বাধিকার সংরক্ষিত

২০১১-২০১৭

সম্পাদকমন্ডলীর সভাপতি: মকিস মনসুর আহমদ
সম্পাদক ও প্রকাশক: খন্দকার আব্দুর রহিম, নির্বাহী সম্পাদক: মারুফ হাসান
অফিস: ৯/আই, ব্লু ওয়াটার শপিং সিটি, ৯ম তলা, জিন্দাবাজার, সিলেট।
ফোন: ০৮২১-৭২৬৫২৭, মোবাইল: ০১৭১৭৬৮১২১৪
ই-মেইল: [email protected]

Developed by: