সর্বশেষ আপডেট : ৭ ঘন্টা আগে
সোমবার, ২৬ সেপ্টেম্বর ২০২২ খ্রীষ্টাব্দ | ১১ আশ্বিন ১৪২৯ বঙ্গাব্দ |

DAILYSYLHET
Fapperman.com DoEscorts

ঘরের মধ্যে মা-বাবা ও ছেলের গলা কাটা লাশ!

চট্টগ্রামের মিরসরাই উপজে’লার জো’রারগঞ্জের সোনাপাহাড় এলাকা থেকে মুদি ব্যবসায়ী মোস্তফা সওদাগর, তার স্ত্রী’ ও এক ছে’লের লা’শ উ’দ্ধার করেছে পু’লিশ। ধারালো অ’স্ত্র দিয়ে তাদের শরীরে কো’পানোর চিহ্ন রয়েছে বলে জানিয়েছে পু’লিশ।

হ’ত্যাকা’ণ্ডের শিকার তিনজন হলেন- মোস্তফা সওদাগর (৫৬), তাঁর স্ত্রী’ জোছনা আক্তার (৪৫) ও তাঁদের ছে’লে আহমেদ হোসেন (২৫)।

এদিকে মোস্তফার বড় ছে’লে সাদ্দাম ও তার স্ত্রী’ অক্ষত রয়েছেন। তারাও ওই বাড়িতেই ছিলেন। তাদেরকে জিজ্ঞাসাবাদ করছে পু’লিশ।

আজ বৃহস্পতিবার ( ১৪ অক্টোবর) ভোরে স্থানীয়দের কাছ থেকে সংবাদ পেয়ে পু’লিশ ঘটনাস্থলে গিয়ে তিনজনের ম’রদেহ উ’দ্ধার করে। বিষয়টি নিশ্চিত করেছেন জো’রারগঞ্জ থা’নার ডিউটি অফিসার এএসআই মোহাম্ম’দ আবু সাঈদ।

এ বিষয়ে চট্টগ্রামের সহকারী পু’লিশ সুপার ( মিরসরাই সার্কেল) মো. লাবীব আব্দুল্লাহ বলেন, স্থানীয়দের কাছ থেকে সংবাদ পেয়ে ভোর ৫টার দিকে আম’রা ঘটনাস্থলে এসেছি। এসে ঘরের ভিতর মোস্তফা সওদাগর, তার স্ত্রী’ ও ছে’লের কো’পানো লা’শ দেখতে পেয়েছি। তাদের গলায় দাগ ও শরীরে কো’পানোর চিহ্ন আছে। কো’পানোর কারণে লা’শ বীভৎস হয়ে আছে। ঘটনার বিস্তারিত পরে জানানো হবে।

তিনি আরও বলেন,লা’শ উ’দ্ধার করে ময়নাত’দন্তের জন্য চট্টগ্রাম মেডিকেল কলেজ হাসপাতা’লের ম’র্গে পাঠানো হবে।

জো’রারগঞ্জ থা’নার ভা’রপ্রাপ্ত কর্মক’র্তা (ওসি) নুর হোসেন মামুন বলেন, বাবা-মায়ের সাথে একই ঘরে থাকা তাদের অন্য ছে’লে সাদ্দাম ও সাদ্দামের স্ত্রী’ অক্ষত। ছে’লের সারা শরীরে র’ক্তের দাগ ছিল। সাদ্দাম ও তার স্ত্রী’কে জিজ্ঞাসাবাদ করা হচ্ছে।

হ’ত্যাকা’ণ্ডের সাথে কারা জ’ড়িত ও কেন এ হ’ত্যাকা’ণ্ড হলো তা জানার চেষ্টা করা হচ্ছে বলেও জানান ওসি নুর হোসেন।

সংবাদটি শেয়ার করুন

Comments are closed.

এ বিভাগের অন্যান্য খবর

নোটিশ : ডেইলি সিলেটে প্রকাশিত/প্রচারিত সংবাদ, আলোকচিত্র, ভিডিওচিত্র, অডিও বিনা অনুমতিতে ব্যবহার করা বেআইনি -সম্পাদক

© সর্বস্বত্ব স্বত্বাধিকার সংরক্ষিত

২০১১-২০১৭

সম্পাদকমন্ডলীর সভাপতি: মকিস মনসুর আহমদ
সম্পাদক ও প্রকাশক: খন্দকার আব্দুর রহিম, নির্বাহী সম্পাদক: মারুফ হাসান
অফিস: ৯/আই, ব্লু ওয়াটার শপিং সিটি, ৯ম তলা, জিন্দাবাজার, সিলেট।
ফোন: ০৮২১-৭২৬৫২৭, মোবাইল: ০১৭১৭৬৮১২১৪
ই-মেইল: [email protected]

Developed by: