সর্বশেষ আপডেট : ২৪ মিনিট ৯ সেকেন্ড আগে
বুধবার, ২৭ অক্টোবর ২০২১ খ্রীষ্টাব্দ | ১২ কার্তিক ১৪২৮ বঙ্গাব্দ |

DAILYSYLHET
Fapperman.com DoEscorts

সুনামগঞ্জে মা-ছেলেসহ ৩ জনের বিষপান, মায়ের মৃত্যু

সুনামগঞ্জের শাল্লায় একই পরিবারের মা ও দুই ছে’লেসহ ৩ জন বিষপান করার খবর পাওয়া গেছে। দুইজন হাসপাতা’লে চিকিৎসাধীন থাকলেও একজনের মৃ’ত্যু হয়েছে বলেও জানা গেছে। ঘটনাটি ঘটেছে উপজে’লার বাহাড়া ইউনিয়নের সুলতানপুর গ্রামে।

স্থানীয়রা জানান, সোমবার ভোরে সুলতানপুর গ্রামের শামছুল হক জীবিকার জন্য হাওরে মাছ ধরতে গেলে তার স্ত্রী’ আখিয়া বেগম (২৮), ছে’লে সিয়াম (১০) ও রবিউলকে (৬) নিয়ে মা আখিয়া বেগম বিষপান করে। তাদের তিনজনের চি’ৎকারে পার্শ্ববর্তী বাড়ির লোকজন গিয়ে তাদের শাল্লা উপজে’লা স্বাস্থ্য কমপ্লেক্সে নিয়ে আসলে তাদের অবস্থা আশ’ঙ্কাজনক হওয়ায় কর্তব্যরত চিকিৎসক তাদের সিলেট এমএজি ওসমানী মেডিকেল কলেজ হাসপাতা’লে প্রেরণ করেন।

শাল্লা থেকে দিরাই যাওয়ার পথে আখিয়া বেগমের মৃ’ত্যু হয় বলে জানান মৃ’তের আত্মীয়রা। বাকি দুইজন সিয়াম ও রবিউল দিরাই উপজে’লা স্বাস্থ্য কমপ্লেক্সে চিকিৎসাধীন রয়েছে।

এ বিষয়ে শাল্লা উপজে’লা স্বাস্থ্য ও পরিবার পরিকল্পনা কর্মক’র্তা ডা. সুমন ভূঁইয়া বলেন, সোমবার সকাল ১০টার দিকে তাদের হাসপাতা’লে নিয়ে আসলে সিলেট এমএজি ওসমানী মেডিকেল কলেজ হাসপাতা’লে প্রেরণ করা হয়। দিরাই পৌঁছার পূর্বেই আখিয়া বেগম নিস্তেজ হলে তাকে পুনরায় শাল্লা হাসপাতা’লে নিয়ে আসলে কর্তব্যরত চিকিৎসক তাকে মৃ’ত ঘোষণা করেন।

এ ব্যাপারে শাল্লা থা’নার ওসি মো. আমিনুল ইস’লাম বলেন, তিনজনের বিষপানের খবর পেয়ে ঘটনাস্থলে পু’লিশ ফোর্সসহ গিয়ে মৃ’ত আখিয়া বেগমের সুরতহাল প্রতিবেদন প্রস্তুত শেষে ময়নাত’দন্তের জন্য সুনামগঞ্জ ম’র্গে পাঠানো হয়েছে। তবে কেন মা, দুই ছে’লে বিষপান করল প্রাথমিকভাবে কোনো কারণ জানা যায়নি। দুই ছে’লে শ’ঙ্কা’মুক্ত রয়েছে বলে জানান তিনি।

সংবাদটি ভালো লাগলে শেয়ার করুন
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  
নোটিশ : ডেইলি সিলেটে প্রকাশিত/প্রচারিত সংবাদ, আলোকচিত্র, ভিডিওচিত্র, অডিও বিনা অনুমতিতে ব্যবহার করা বেআইনি -সম্পাদক

© সর্বস্বত্ব স্বত্বাধিকার সংরক্ষিত

২০১১-২০১৭

সম্পাদকমন্ডলীর সভাপতি: মকিস মনসুর আহমদ
সম্পাদক ও প্রকাশক: খন্দকার আব্দুর রহিম, নির্বাহী সম্পাদক: মারুফ হাসান
অফিস: ৯/আই, ব্লু ওয়াটার শপিং সিটি, ৯ম তলা, জিন্দাবাজার, সিলেট।
ফোন: ০৮২১-৭২৬৫২৭, মোবাইল: ০১৭১৭৬৮১২১৪
ই-মেইল: [email protected]

Developed by: