সর্বশেষ আপডেট : ৪২ মিনিট ৫৪ সেকেন্ড আগে
রবিবার, ১৭ অক্টোবর ২০২১ খ্রীষ্টাব্দ | ২ কার্তিক ১৪২৮ বঙ্গাব্দ |

DAILYSYLHET
Fapperman.com DoEscorts

ট্রেনে ডাকাতি ও জোড়া খুন: গ্রেপ্তার ৫

ঢাকা থেকে ছেড়ে আসা জামালপুরের দেওয়ানগঞ্জগামী কমিউটার ট্রেনে ময়মনসিংহের গফরগাঁওয়ে ডা’কাতি ও জোড়া খু’নের ঘটনায় পাঁচজনকে গ্রে’প্তার করেছে রেব।

রোববার রেব-১৪ সদর দপ্তরে আয়োজিত এক সংবাদ সম্মেলনের মাধ্যমে বিষয়টি নিশ্চিত করা হয়।

রেব জানায়, চক্রটির মূল পেশা ট্রেনে ডা’কাতি ও ছিনতাই। রাজধানীর কমলাপুর রেলস্টেশন থেকে ট্রেনে উঠে ময়মনসিংহ জংশনের মধ্যে তারা ডা’কাতি করত। এই চক্রই গত শনিবার রাতে কমিউটার ট্রেনে ডা’কাতি ও জোড়া খু’ন করে।

গ্রে’প্তারকৃতরা হলো- আশরাফুল ইস’লাম স্বাধীনকে (২৬), মাকসুদুল হক রিশাদ (২৮), মো. হাসান (২২), রুবেল মিয়া (৩১) ও মোহাম্ম’দ (২৫)।

সংবাদ সম্মেলনে উইং কমান্ডার মো. রোকনুজ্জামান জানান, গফরগাঁওয়ে ট্রেনে ডা’কাতি ও হ’ত্যার ঘটনায় চাঞ্চল্যের সৃষ্টি হলে ঘটনাটি ত’দন্ত শুরু করে রেব। গত শনিবার রাতে রেবের একটি দল স’ন্দেহভাজন হিসেবে নগরীর শিকারিকান্দা এলাকা থেকে আশরাফুল ইস’লাম স্বাধীনকে হেফাজতে নেয়। ওই সময় তার কাছ থেকে লুট হওয়া মোবাইল ফোন উ’দ্ধার করা হয়। পরে স্বাধীনের দেওয়া তথ্যের ভিত্তিতে ডা’কাতি ও হ’ত্যায় জ’ড়িত আরও চারজনকে গ্রে’প্তার করা হয়। তারা হলো মাকসুদুল হক রিশাদ, মো. হাসান, রুবেল মিয়া ও মোহাম্ম’দ। তাদের মধ্যে তিনজন নগরীর বাঘমা’রা ও একজন ধামাই এলাকার বাসিন্দা। তাদের কাছ থেকেও মোবাইল ফোন উ’দ্ধার করা হয়। পরে তাদের দেখানো স্থান থেকে ডা’কাতির কাজে ব্যবহৃত দেশি অ’স্ত্র উ’দ্ধার করে রেব।

গ্রে’প্তার হওয়া পাঁচ ব্যক্তিকে প্রাথমিক প্রাথমিক জিজ্ঞাসাবাদে রেব জানতে পারে ট্রেনে ডা’কাতির উদ্দেশে কমলাপুর রেলস্টেশন থেকে চারজন পেশাদার ডা’কাত দেওয়ানগঞ্জগামী কমিউটার ট্রেনে উঠে। রিশাদ, হাসান এবং স্বাধীন গাজীপুরের টঙ্গী স্টেশন থেকে তাদের সঙ্গে যু’ক্ত হয়। ট্রেনটি ত্রিশালের ফাতেমা নগর স্টেশনে থামলে তাদের সঙ্গে যোগ দেয় মোহাম্ম’দ ও তার একজন সহযোগী। ট্রেন স্টেশন ছেড়ে চলতে শুরু করলে ডা’কাত দলটি ইঞ্জিনের পরের বগির ছাদে বসে থাকা যাত্রীদের মানিব্যাগ ও মোবাইল ফোন লুট করা শুরু করে। ডা’কাতির এক পর্যায়ে যাত্রী সাগর মিয়া ও নাহিদ বাধা দিলে তাদের অ’স্ত্র দিয়ে এলোপাতারীভাবে মা’থায় আ’ঘাত করে র’ক্তাক্ত করে। পরে সাগর ও নাহিদ মা’রা যান। দলটি তাদের কাজ শেষে করে ট্রেনটি ময়মনসিংহ রেলস্টেশনে প্রবেশের আগে সিগন্যালে ট্রেনের গতি কমলে নেমে যায়।

আ’সামিদেরকে প্রাথমিক জিজ্ঞাসাবাদ ও গোয়েন্দা তথ্যের ভিত্তিতে রেব আরও জানতে পারে- একটি সংঘবদ্ধ চক্র নিয়মিতভাবে ডা’কাতি ও ছিনতাই করে আসছে। চক্রটি ঢাকার কমলাপুর, এয়ারপোর্ট ও টঙ্গী রেলস্টেশন থেকে ডা’কাতি ও ছিনতাইয়ের উদ্দেশ্যে ট্রেনে উঠত। চক্রটির কিছু সহযোগী গফরগাঁও ও ত্রিশালের ফাতেমা নগর স্টেশন থেকে ট্রেনে উঠে সম্মিলিতভাবে ডা’কাতি ও ছিনতাই করে ময়মনসিংহ স্টেশনে নেমে যেত। গত বৃহস্পতিবার চক্রটি ছিনতাইয়ের পরিবর্তে ডা’কাতির পরিকল্পনা করে। দলটি ছোট ছোট উপ-গ্রুপে বিভক্ত হয়ে ডা’কাতি ও ছিনতাই করত।

রেব আরও জানায়, গ্রে’প্তার রিশাদ, স্বাধীন, মোহাম্ম’দসহ কয়েকজন সরাসরি ডা’কাতির কাজে সম্পৃক্ত ছিল। হাসান টার্গেট শনাক্তের কাজে যু’ক্ত ছিল। আর রুবল লুণ্ঠিত মোবাইল ও অন্যান্য লুন্ঠিত মালপত্র স্বল্পমূল্যে এই চক্রের কাছ থেকে সংগ্রহ করত এবং অন্যদের কাছে বেশি দামে বিক্রি করত। সে এই চক্রের পৃষ্ঠপোষক বলে জানা যায়। এর মধ্যে রিশাদ সংঘবদ্ধ চক্রের মূল হোতা। তার নামে ময়মনসিংহ রেলওয়ে থা’না ও কোতোয়ালি থা’নায় মা’মলাও রয়েছে।

সংবাদটি ভালো লাগলে শেয়ার করুন
  • 2
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  
    2
    Shares
নোটিশ : ডেইলি সিলেটে প্রকাশিত/প্রচারিত সংবাদ, আলোকচিত্র, ভিডিওচিত্র, অডিও বিনা অনুমতিতে ব্যবহার করা বেআইনি -সম্পাদক

© সর্বস্বত্ব স্বত্বাধিকার সংরক্ষিত

২০১১-২০১৭

সম্পাদকমন্ডলীর সভাপতি: মকিস মনসুর আহমদ
সম্পাদক ও প্রকাশক: খন্দকার আব্দুর রহিম, নির্বাহী সম্পাদক: মারুফ হাসান
অফিস: ৯/আই, ব্লু ওয়াটার শপিং সিটি, ৯ম তলা, জিন্দাবাজার, সিলেট।
ফোন: ০৮২১-৭২৬৫২৭, মোবাইল: ০১৭১৭৬৮১২১৪
ই-মেইল: [email protected]

Developed by: