সর্বশেষ আপডেট : ২ ঘন্টা আগে
সোমবার, ২৭ সেপ্টেম্বর ২০২১ খ্রীষ্টাব্দ | ১২ আশ্বিন ১৪২৮ বঙ্গাব্দ |

DAILYSYLHET
Fapperman.com DoEscorts

মৌলভীবাজারে চো’র-পু’লিশ খেলছেন দোকানিরা, ম্যাজিস্ট্রেট-পু’লিশ ভয়ে পাহারা

দোকানের সামনে পাহারা। তবে এ পাহারা চো’রের জন্য নয়। এ পাহারা পু’লিশের চোখ ফাঁকি দিতে আর ম্যাজিস্ট্রেটের অ’ভিযান থেকে রেহাই পেতে। করো’না পরিস্থিতিতে কঠোর লকডাউন নিশ্চিত করতে দোকানপাট বন্ধ থাকার কথা থাকলেও পু’লিশের সাথে লুকোচু’রি খেলে অনেকেই দোকানপাট খোলা রাখছেন।

অর্ধেক শার্টার নামিয়ে পাহারায় লোক রেখে চলে বেচাকেনা। দোকানের ভেতরে থাকা লোকজন কান পেতে রাখেন পাহারাদারের সিগন্যাল বা পু’লিশের গাড়ির সাইরেনের। পু’লিশ-ম্যাজিস্ট্রেট আসতে দেখলেই পাহারাদার সিগন্যাল দেন। সেই শব্দ শুনলেই ঝটপট নামিয়ে ফেলেন দোকানের শার্টার।

পু’লিশ-ম্যাজিস্ট্রেটের সাথে চো’র-পু’লিশ খেলেই দোকান খুলছেন মৌলভীবাজার শহরের ব্যস্ততম সেন্ট্রাল রোডের ছোট ছোট কাপড়ের দোকান, জুতার দোকানের ব্যবসায়ীরা। সরেজমিনে এই চিত্র দেখা যায় শহরের দোকানগুলোতে ।

সেন্ট্রাল রোডের কাপড়ের দোকানের এক ব্যবসায়ী বলেন, এই নিয়ে আমি দুইবার ৫০০ টাকা করে ১ হাজার টাকা জ’রিমানা দিয়েছি। কি করবো দোকান না খুলে পরিবার নিয়ে চলাফেরা করবো কি করে। বেচাকেনা নাই তারপরও যদি পাঁচশ-হাজার যা হয়। তালা চাবি হাতে বাইরে দাড়িয়ে দেখছি হঠাৎ করে আসলে শার্টার ফেলে তালা দিয়ে দিবো।

মানবতা দেখিয়ে কর্মচারীকে চাকরি থেকে বের করে দেইনি। এখন তার মাসিক বেতন দিবো কি করে আর আমি দোকান ভাড়া দিয়ে কিভাবে চলব।

সংবাদটি ভালো লাগলে শেয়ার করুন
  • 125
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  
    125
    Shares
নোটিশ : ডেইলি সিলেটে প্রকাশিত/প্রচারিত সংবাদ, আলোকচিত্র, ভিডিওচিত্র, অডিও বিনা অনুমতিতে ব্যবহার করা বেআইনি -সম্পাদক

© সর্বস্বত্ব স্বত্বাধিকার সংরক্ষিত

২০১১-২০১৭

সম্পাদকমন্ডলীর সভাপতি: মকিস মনসুর আহমদ
সম্পাদক ও প্রকাশক: খন্দকার আব্দুর রহিম, নির্বাহী সম্পাদক: মারুফ হাসান
অফিস: ৯/আই, ব্লু ওয়াটার শপিং সিটি, ৯ম তলা, জিন্দাবাজার, সিলেট।
ফোন: ০৮২১-৭২৬৫২৭, মোবাইল: ০১৭১৭৬৮১২১৪
ই-মেইল: [email protected]

Developed by: