সর্বশেষ আপডেট : ১৬ মিনিট ১২ সেকেন্ড আগে
সোমবার, ৬ ডিসেম্বর ২০২১ খ্রীষ্টাব্দ | ২২ অগ্রহায়ণ ১৪২৮ বঙ্গাব্দ |

DAILYSYLHET
Fapperman.com DoEscorts

সেই বৃদ্ধকে এবার চাল দিলেন কাদের মির্জা

নোয়াখালীর বসুরহাট পৌরসভা চত্বরে ত্রাণ (শাড়ি-লুঙ্গি) নিতে এসে মেয়র আবদুল কাদের মির্জার ‘ঘুষি’ খাওয়া এনামুল হক কালু নামের সেই বৃদ্ধ এবার মেয়রের তরফ থেকেই চাল পেয়েছেন।

রোববার (১৮ জুলাই) সকালে বসুরহাট পৌরসভা চত্বরে ঈদুল আজহা উপলক্ষে প্রধানমন্ত্রীর উপহার হিসেবে সেই বৃদ্ধের হাতে ১০ কেজি চাল তুলে দেন মেয়র। তার পাশাপাশি আরও দুস্থ-দরিদ্রকে চাল উপহার দেন মেয়র।

এর আগে গত শুক্রবার (১৬ জুলাই) সকালে ঈদ উপহারের ত্রাণ বিতরণ করেন কাদের মির্জা। সেই অনুষ্ঠানের ছড়িয়ে পড়া একটি ভিডিওতে দেখা যায়, বৃদ্ধ কালুকে একটি শাড়ি দেন মেয়র কাদের মির্জা, তিনি সেটা পরিবর্তন করতে চাইলে তাকে ঘুষি মে’রে সরিয়ে দেন মেয়র। পরে ‘ত্রাণ নিতে আসা বৃদ্ধকে ঘুষি মা’রলেন কাদের মির্জা’ শিরোনামে বিভিন্ন সংবাদমাধ্যমে খবরটি প্রকাশ হয়।

বসুরহাট পৌর এলাকার বাসিন্দা বৃদ্ধ এনামুল হক কালুকে পরে অবশ্য ভিন্ন সুরে কথা বলতে শোনা যায়। আরেকটি ভিডিওতে কালু বলেন, ‘সেদিন কাপড় দেয়ার সময় ঝামেলা করেছি দেখে মেয়র সাহেব (আবদুল কাদের মির্জা) আমাকে হাত দিয়ে সরিয়ে দিয়েছেন। আমা’রে মা’রে নাই, কিচ্ছু করে নাই। তিনি (কাদের মির্জা) খুব ভালো মানুষ। গরিব মানুষকে তিনি সাহায্য করেন।’

তিনি আরও বলেন, ‘আজকে আবার এসেছি মেয়র সাহেব থেকে চাল নেয়ার জন্য। নিজ থেকে এসেছি উনার বি’রুদ্ধে আমা’র কোনো অ’ভিযোগ নাই। উনি সবসময় আমাদের সাহায্য করেন।’

শুক্রবারের সেই ঘটনায় সারাদেশে তোলপাড় হলে রাতে নিজের ফেসবুক পেজে একটি স্ট্যাটাস দেন মেয়র আবদুল কাদের মির্জা।

স্ট্যাটাসে তিনি লেখেন, ‘প্রিয় দেশবাসী, বিধিনিষেধে জনজীবন অব’রুদ্ধ হওয়ার পর থেকে আমা’র পৌরসভা’র নিম্নআয়ের অসহায় মানুষদের সহযোগিতা করে আসছি। আমি শুধু কোম্পানীগঞ্জ নয়, কবিরহাট, দাগনভূঞা, সোনাগাজী, সেনবাগসহ বিভিন্ন জনপদের অসহায় মানুষদের সহযোগিতা করে আসছি। কখনও কোনো মানুষ সাহায্যের জন্য এসে আমা’র কাছ থেকে খালি হাতে ফিরে যায়নি।’

‘আজও আমা’র পৌরসভাতে অসহায় মানুষদের এক হাজারের বেশি শাড়ি-লুঙ্গি, ৫০০ জনকে নগদ অর্থ ও প্রায় দুই হাজার জনের মাঝে চাল বিতরণ করা হয়। পৌরসভা’র ছোট আঙিনায় সহস্রাধিক মানুষ একত্রিত হয়ে যাওয়ায় দ্রুততার সঙ্গে কাপড় বিতরণ করতে হচ্ছিলো। তাই যাদের মাঝে বিতরণ করা হয়েছে তাদের দ্রুত চলে যাওয়ার জন্য বলা হয়। তখন একজন মানুষ কাপড় পাওয়ার পরও দাঁড়িয়ে থাকে এবং একাধিকবার বলার পরও মাস্ক না পরার কারণে তাকে দ্রুত হাত দিয়ে সরিয়ে দেয়া হয়। এসময় তাকে আ’ঘাত করা হয়নি। এ বিষয়ে তিনি কোনো আক্ষেপও করেননি।’

প্রসঙ্গত, আওয়ামী লীগের সাধারণ সম্পাদক এবং সড়ক পরিবহন ও সেতুমন্ত্রী ওবায়দুল কাদেরের ছোট ভাই আবদুল কাদের মির্জা। গত ডিসেম্বরে মেয়র নির্বাচনের আগে বিভিন্ন ইস্যুতে কথা বলে আলোচনায় আসেন তিনি। স্থানীয় রাজনীতির বিভিন্ন ইস্যুতে দলীয় প্রতিপক্ষের সঙ্গে তার বিরোধের ঘটনায় দুবার সং’ঘর্ষে দুজন গু’লিবিদ্ধ হয়ে নি’হত হয়েছেন। এসব ঘটনায় একাধিক মা’মলাও হয়েছে। এমন পরিস্থিতিতে ৩১ মা’র্চ দল থেকে পদত্যাগের ঘোষণা দিয়েছিলেন কাদের মির্জা। পদত্যাগের ৪৫ দিনের মা’থায় ১৬ মে তিনি দলে ফিরে আসেন।

সংবাদটি ভালো লাগলে শেয়ার করুন
  • 23
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  
    23
    Shares
নোটিশ : ডেইলি সিলেটে প্রকাশিত/প্রচারিত সংবাদ, আলোকচিত্র, ভিডিওচিত্র, অডিও বিনা অনুমতিতে ব্যবহার করা বেআইনি -সম্পাদক

© সর্বস্বত্ব স্বত্বাধিকার সংরক্ষিত

২০১১-২০১৭

সম্পাদকমন্ডলীর সভাপতি: মকিস মনসুর আহমদ
সম্পাদক ও প্রকাশক: খন্দকার আব্দুর রহিম, নির্বাহী সম্পাদক: মারুফ হাসান
অফিস: ৯/আই, ব্লু ওয়াটার শপিং সিটি, ৯ম তলা, জিন্দাবাজার, সিলেট।
ফোন: ০৮২১-৭২৬৫২৭, মোবাইল: ০১৭১৭৬৮১২১৪
ই-মেইল: [email protected]

Developed by: