সর্বশেষ আপডেট : ৪ ঘন্টা আগে
শুক্রবার, ২৬ নভেম্বর ২০২১ খ্রীষ্টাব্দ | ১২ অগ্রহায়ণ ১৪২৮ বঙ্গাব্দ |

DAILYSYLHET
Fapperman.com DoEscorts

টিকট’ক-বিগো লাইভ-পাবজি-ফ্রি ফায়ার-লাইকি বন্ধে হাই’কোর্টে রিট

দেশের অনলাইন প্ল্যাটফর্ম থেকে টিকট’ক, বিগো লাইভ, পাবজি, ফ্রি ফায়ার ও লাইকির মতো সব ধরনের অনলাইন গেম ও অ্যাপ বন্ধের নির্দেশনা চেয়ে হাই’কোর্টে রিট করা হয়েছে।

বৃহস্পতিবার (২৪ জুন) হাই’কোর্টের সংশ্লিষ্ট শাখায় মানবাধিকার সংগঠন ‘ল অ্যান্ড লাইফ’ ফাউন্ডেশনের পক্ষে গেম এবং অ্যাপগুলোর ক্ষতিকারক দিক তুলে জনস্বার্থে রিটটি করেন সুপ্রিম কোর্টের দুই আইনজীবী ব্যারিস্টার মোহাম্ম’দ হু’মায়ন কবির পল্লব ও মোহাম্ম’দ কাউছার।

রিটে ডাক ও টেলিযোগাযোগ সচিব, বিটিআরসি চেয়ারম্যান, শিক্ষা সচিব, স্বরাষ্ট্র সচিব, আইন মন্ত্রণালয়ের সচিব, স্বাস্থ্য সচিব, পু’লিশের মহাপরিদর্শক (ডিজি), বাংলাদেশ ব্যাংক, মোবাইল অ’পারেটর, বিকাশ ও নগদকে বিবাদী করা হয়েছে। বিষয়টি জাগো নিউজকে নিশ্চিত করেছেন ব্যারিস্টার মোহাম্ম’দ হু’মায়ন কবির পল্লব।

এর আগে গত ১৯ জুন এ বিষয়ে প্রতিকার চেয়ে লিগ্যাল নোটিশে পাঠানো হয়। নোটিশ পাওয়ার পরে কোনো ধরনের ব্যবস্থা গ্রহণ না করায় রিট করেন এই আইনজীবী।

রিটে বলা হয়েছে, পাবজি ও ফ্রি ফায়ারের মতো গেমে বাংলাদেশের যুব সমাজ এবং শি’শু-কি’শোররা ব্যাপকভাবে আসক্ত হয়ে পড়েছে। ফলে সামাজিক মূল্যবোধ, শিক্ষা, সংস্কৃতি বিনষ্ট হচ্ছে এবং ভবিষ্যৎ প্রজন্ম হয়ে পড়ছে মেধাহীন। এসব গেম যুব সমাজকে সহিং’সতার দিকে ঠেলে দিচ্ছে।

দেশের অনলাইন প্ল্যাটফর্ম থেকে টিকট’ক, বিগো লাইভ, পাবজি, ফ্রি ফায়ার গেম ও লাইকির মতো সকল প্রকার অনলাইন গেম ও অ্যাপ বন্ধে সরকারকে নির্দেশনা দিতে আর্জি জানানো হয়েছে।

রিটে বলা হয়, টিকট’ক, লাইকি অ্যাপ ব্যবহার করে দেশের শি’শু-কি’শোর এবং যুব সমাজ বিভিন্ন অ’নৈতিক কর্মকা’ণ্ডে লিপ্ত হচ্ছে। এছাড়া সম্প্রতি নারী পাচারের ঘটনা এবং বাংলাদেশ থেকে দেশের বাইরে অর্থপাচারের ঘটনায়ও টিকট’ক, লাইকি ও বিগো লাইভের সম্পৃক্ততা পাওয়া গেছে, যা অ’ত্যন্ত আশ’ঙ্কাজনক এবং দেশের ও জনস্বার্থের পরিপন্থী। এটা শৃঙ্খলা ও মূল্যবোধেরও পরিপন্থী।

আরও বলা হয়েছে, দেশের শি’শুরা বিভিন্ন অনলাইন গেমমেসে আসক্ত হয়ে পড়ছে। এগুলো মনিটর করার জন্য, সময়ে সময়ে শি’শুদের জন্য উপযোগী এবং যথাযথ অনলাইন গেম সুপারিশ করার জন্য একটি মনিটরিং টিম গঠন করা অ’ত্যন্ত জরুরি।

রিটে বলা হয়, বাংলাদেশ টেলিযোগাযোগ নিয়ন্ত্রণ আইন এবং তথ্যপ্রযু’ক্তি আইনের বিধান অনুযায়ী এসব অবাঞ্চিত ক্ষতিকর গেম এবং অ্যাপসকে অনলাইন প্ল্যাটফর্ম থেকে সরিয়ে বাংলাদেশের নাগরিকদের জন্য একটি স্বাস্থ্যকর এবং উপযোগী সাইবার পদ্ধতি সুনিশ্চিত করার বাধ্যবাধকতা রয়েছে বিবাদীদের, যেটা করতে তারা ব্যর্থই হয়েছেন।

ব্যারিস্টার মোহাম্ম’দ হু’মায়ন কবির পল্লব বলেন, এর আগে নোটিশ পাঠিয়েছিলাম। নোটিশে ৪৮ ঘণ্টার মধ্যে এগুলো বন্ধের ব্যবস্থা গ্রহণ না করায় হাই’কোর্টে রিট করা হয়েছে।

সংবাদটি ভালো লাগলে শেয়ার করুন
  • 1.3K
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  
    1.3K
    Shares
নোটিশ : ডেইলি সিলেটে প্রকাশিত/প্রচারিত সংবাদ, আলোকচিত্র, ভিডিওচিত্র, অডিও বিনা অনুমতিতে ব্যবহার করা বেআইনি -সম্পাদক

© সর্বস্বত্ব স্বত্বাধিকার সংরক্ষিত

২০১১-২০১৭

সম্পাদকমন্ডলীর সভাপতি: মকিস মনসুর আহমদ
সম্পাদক ও প্রকাশক: খন্দকার আব্দুর রহিম, নির্বাহী সম্পাদক: মারুফ হাসান
অফিস: ৯/আই, ব্লু ওয়াটার শপিং সিটি, ৯ম তলা, জিন্দাবাজার, সিলেট।
ফোন: ০৮২১-৭২৬৫২৭, মোবাইল: ০১৭১৭৬৮১২১৪
ই-মেইল: [email protected]

Developed by: