সর্বশেষ আপডেট : ৪ ঘন্টা আগে
মঙ্গলবার, ২৭ জুলাই ২০২১ খ্রীষ্টাব্দ | ১২ শ্রাবণ ১৪২৮ বঙ্গাব্দ |

DAILYSYLHET
Fapperman.com DoEscorts

হাসপাতা’লে বাবার আকুতি ‘আল্লাহ, পরিবারের সদস্যদের বাঁচিয়ে দেন’

আরমানিটোলায় অ’গ্নিকা’ণ্ডে দ’গ্ধ আশিকুজ্জামান খান ও ইস’রাত জাহান মুনা সরকার দম্পতিসহ চারজন আইসিইউতে ভর্তি রয়েছেন। এর মধ্যে আশিকুজ্জামানকে লাইফ সা’পোর্টে রাখা হয়েছে। ১৬ জনকে পোস্ট অ’পারেটিভ ইউনিটে চিকিৎসা দেওয়া হচ্ছে। শেখ হাসিনা জাতীয় বার্ন ও প্লাস্টিক সার্জারি ইনস্টিটিউটের মোট ২০ জন ভর্তি রয়েছে। সকালের দিকে মোস্তফা নামের এক ব্যক্তি প্রাথমিক চিকিৎসা নিয়ে চলে গেছেন।

বার্ন ইউনিটের প্রধান সমন্বয়কারী ডা. সামন্ত লাল সেন জানিয়েছেন, আইসিইউতে ভর্তি ৪ জন ১২ থেকে ২৫ শতাংশ পুড়েছে। তাদের শ্বা’সনালী পোড়া রয়েছে। তারা শ’ঙ্কা’মুক্ত নয়। বাকি ১৬ জন দ’গ্ধ হয়নি। তবে শ্বা’সনালী দিয়ে ধোঁয়া প্রবেশ করায় তাদের ভর্তি রেখে চিকিৎসা দেওয়া হচ্ছে। তাদের শ্বা’সনালী ক্ষতিগ্রস্ত হওয়ায় তাদেরও শ’ঙ্কা’মুক্ত বলা যাবে না।

ইস’রাত জাহান মুনা সরকার ও আশিকুজ্জামান খানের স্বজন মো. ফারুক জানান, মুনার প্রায় ২০ শতাংশ দ’গ্ধ হয়েছে। আশিকুজ্জামানের অবস্থা ভালো নয়।তাকে লাইফ সার্পোটে রাখা হয়েছে। আশিকুজ্জামান খান বুয়েট থেকে পাশ করা ইঞ্জিনিয়ার।

কর্তব্যরত চিকিৎসক জানান, মুনা এবং আশিকুজ্জামানের শরীর দ’গ্ধ হওয়ার সঙ্গে শ্বা’সনালী পুড়ে গেছে। আশিকুজ্জামানের শ্বা’সনালীতে ব্যাপক ক্ষতি হয়েছে।

আইসিইউতে থাকা মুনা সরকারের ছোটবোন সুমাইয়া সরকার এ অ’গ্নিকা’ণ্ডে ঘটনায় মা’রা গেছেন। মুনা সরকারের বাবা ইব্রাহিম সরকার আল্লাহর কাছে আকুতি জানিয়ে বলেন, ‘আল্লাহ ছাড়া আমা’র পরিবারকে কে বাঁ’চাবেন। আল্লাহ, আমা’র পরিবারের সদস্যদের বাঁচিয়ে দেন’।

তিনি জানান, আশিকুজ্জামান খানের সঙ্গে তার বড় মে’য়ে মুনা সরকারকে বিয়ে দেন দেড়মাস আগে। অ’গ্নিকা’ণ্ডের ঘটনার সময় ওই বাসায় ছিলেন তার ছোট মে’য়ে সুমাইয়া সরকার (২০)। অ’গ্নিদ’গ্ধ হয়ে তিনি মা’রা গেছেন। স্ত্রী’ সুফিয়া সরকার ও ছে’লে জুনায়েদ সরকারও হাসপাতা’লে চিকিৎসা নিচ্ছেন।তাদের শরীর দ’গ্ধ না হলেও সবার শ্বা’সনালী পুড়েছে।

মুনা সরকারের আত্মীয় আ’মেনা বেগম জানান, তাদের পুরো পরিবার হাসপাতা’লে কাতরাচ্ছে। নি’হত সুমাইয়ার লা’শ ঢাকার মিটফোর্ড হাসপাতা’লে রাখা হয়েছে। সেখান থেকে সোনারগাঁওয়ে গ্রামের বাড়িতে দাফন করা হবে। নি’হত সুমাইয়ার লা’শ তার বাবা ইব্রাহিম সরকারসহ পরিবারের কেউ দেখতে পারেননি।তারা সবাই বার্ন ইউনিটে ভর্তি। সুমাইয়া ইডেন মহিলা কলেজে ইংরেজি বিভাগের দ্বিতীয় বর্ষের ছা’ত্রী ছিলেন। আর আইসিইউতে থাকা মুনা সরকার জগন্নাথ বিশ্ববিদ্যালয়ে আর আশিকুজ্জামান বুয়েটে পড়াশোনা করেছেন।

আশিকুজ্জামানের বাবা আবুল কাশেম খান জানান, ছে’লেকে মাসখানের আগে বিয়ে করিয়েছেন।পুত্রবধূকে এখনো তুলে আনা হয়নি। এখন ছে’লে ও পুত্রবধূ মৃ’ত্যুর সঙ্গে ল’ড়ছে। ছে’লে ঢাকায় খালার বাসায় থাকতো। শ্বশুরের বাসায় বেড়াতে গিয়েছিল পরশু রাতে। শুক্রবার রাতে অ’গ্নিকা’ণ্ডের ঘটনায় ছে’লে ও পুত্রবধূসহ পরিবারের প্রায় সবাই এখন বার্ন ইউনিটে। দুর্ঘ’টনার কথা শোনে সকালেই ময়মনসিংহ থেকে ছুটে এসেছেন তিনি।

শুক্রবার ভোররাতে আরমানিটোলা খেলার মাঠ সংলগ্ন হাজী মু’সা ম্যানশনের ছয়তলা ভবনের নিচতলায় কেমিক্যাল গোডাউনে আ’গুন লেগে চারজনের মৃ’ত্যু হয়েছে। এতে দ’গ্ধ ও ধোঁয়ার কারণে অ’সুস্থ হয়ে পড়া ২০ জনকে শেখ হাসিনা জাতীয় বার্ন ও প্লাস্টিক সার্জারি ইনস্টিটিউটে ভর্তি করা হয়।

সংবাদটি ভালো লাগলে শেয়ার করুন
  • 2
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  
    2
    Shares

এ বিভাগের অন্যান্য খবর

নোটিশ : ডেইলি সিলেটে প্রকাশিত/প্রচারিত সংবাদ, আলোকচিত্র, ভিডিওচিত্র, অডিও বিনা অনুমতিতে ব্যবহার করা বেআইনি -সম্পাদক

© সর্বস্বত্ব স্বত্বাধিকার সংরক্ষিত

২০১১-২০১৭

সম্পাদকমন্ডলীর সভাপতি: মকিস মনসুর আহমদ
সম্পাদক ও প্রকাশক: খন্দকার আব্দুর রহিম, নির্বাহী সম্পাদক: মারুফ হাসান
অফিস: ৯/আই, ব্লু ওয়াটার শপিং সিটি, ৯ম তলা, জিন্দাবাজার, সিলেট।
ফোন: ০৮২১-৭২৬৫২৭, মোবাইল: ০১৭১৭৬৮১২১৪
ই-মেইল: [email protected]

Developed by: