সর্বশেষ আপডেট : ৩ মিনিট ১১ সেকেন্ড আগে
রবিবার, ১৮ এপ্রিল ২০২১ খ্রীষ্টাব্দ | ৫ বৈশাখ ১৪২৮ বঙ্গাব্দ |

DAILYSYLHET
Fapperman.com DoEscorts

সিলেটে ১৪ মাসে পানিতে ডুবে ৪২ জনের মৃত্যু

সিলেট বিভাগে গত বছরের জানুয়ারি থেকে চলতি বছরের ২৮ ফেব্রুয়ারি পর্যন্ত শি’শুসহ মোট ৪২ জন ব্যক্তি পানিতে ডুবে মা’রা গেছে। আর একই সময়ে সারাদেশে শি’শুসহ মোট ৮৮৫ জন ব্যক্তি পানিতে ডুবে মা’রা গেছেন। মা’রা যাওয়া এসব ব্যক্তির মধ্যে ৭৩৫ জনই শি’শু, যা মোট মৃ’ত্যুর ৮৩ শতাংশ।

গ্লোবাল হেলথ অ্যাডভোকেসি ইনকিউবেটরের (জিএইচএআই) সহযোগিতায় গণমাধ্যম উন্নয়ন ও যোগাযোগ বিষয়ক প্রতিষ্ঠান ‘সমষ্টি’ গণমাধ্যমে প্রকাশিত ঘটনা থেকে পানিতে ডুবে মৃ’ত্যুর এ তথ্য সংগ্রহ করেছে। বৃহস্পতিবার (৪ মা’র্চ) সংবাদ বি’জ্ঞপ্তিতে এসব তথ্য জানিয়েছে ‘সমষ্টি’।

বি’জ্ঞপ্তিতে বলা হয়, জাতীয় পর্যায়ের গণমাধ্যম ও স্থানীয় পর্যায়ের অনলাইন নিউজ পোর্টালে ২০২০ সালের ১ জানুয়ারি থেকে ২০২১ সালের ২৮ ফেব্রুয়ারি পর্যন্ত ৫০৯টি ঘটনার (পানিতে ডুবে মৃ’ত্যু) তথ্য প্রকাশিত হয়েছে। সাধারণত পানিতে ডুবে মৃ’ত্যুর সবগুলো ঘটনা গণমাধ্যমে উঠে আসে না। এখানে বিশ্লেষণের ভিত্তিতে প্রাপ্ত প্রবণতাগুলো উপস্থাপন করা হয়েছে বলে জানিয়েছে সমষ্টি।

এতে আরও বলা হয়, বিশ্ব স্বাস্থ্য সংস্থার (ডব্লিউএইচও) ২০১৪ সালের বৈশ্বিক প্রতিবেদন অনুযায়ী, বাংলাদেশে ৫ বছরের কম বয়সী শি’শুমৃ’ত্যুর ৪৩ শতাংশের কারণ পানিতে ডুবে মৃ’ত্যু। যু’ক্তরাষ্ট্রের ইনস্টিটিউট অব হেলথ মেট্রিক্স অ্যান্ড ইভালুয়েশনের (আইএইচএমই) ২০১৭ সালে প্রকাশিত গ্লোবাল বারডেন অব ডিজিজ স্টাডি শীর্ষক প্রতিবেদন অনুযায়ী, বাংলাদেশে ২০১৭ সালে ১৪ হাজার ২৯ জন মানুষ পানিতে ডুবে মা’রা যায়। এ প্রতিবেদন অনুযায়ী, পানিতে ডুবে মৃ’ত্যুর দিক থেকে কমনওয়েলথ দেশগুলোর মধ্যে বাংলাদেশের অবস্থান পঞ্চ’ম। বাংলাদেশে জাতীয়ভাবে পানিতে ডুবে মৃ’ত্যু নিয়ে কোনো তথ্যব্যবস্থা না থাকায় এর প্রকৃত চিত্র উঠে আসে না।

গত ১৪ মাসে পানিতে ডুবে সবচেয়ে বেশি মৃ’ত্যু হয়েছে ঢাকা বিভাগে, ১৯৩ জন। এছাড়া চট্টগ্রামে ১৭২ জন, রংপুরে ১৪১, রাজশাহীতে ১১০, ময়মনসিংহে ১০০, বরিশালে ৬৬ ও খুলনা বিভাগে ৬১ জন মা’রা যায়। এ সময়ে সবচেয়ে কম মৃ’ত্যু ছিল সিলেট বিভাগে, ৪২ জন।

পানিতে ডুবে মৃ’তদের ৮৩ শতাংশই শি’শু জানিয়ে বি’জ্ঞপ্তিতে বলা হয়, তাদের মধ্যে চার বছর বা কম বয়সী ৩১০ জন, ৫ থেকে ৯ বছর বয়সী ২৮৪ জন, ৯-১৪ বছরের ১১০ জন এবং ১৫-১৮ বছরের ৩১ জন। ১৫০ জনের বয়স ১৮ বছরের বেশি।

বিশ্ব স্বাস্থ্য সংস্থা ২০১৭ সালে প্রকাশিত ‘প্রিভেন্টিং ড্রাওনিং : অ্যান ইমপ্লিমেন্টেশন গাইড’-এ স্থানীয় পর্যায়ের মানুষজনকে সম্পৃক্ত করে দিবাযত্ন কেন্দ্র প্রতিষ্ঠার কথা বলেছে। এছাড়া পানিতে ডুবে শি’শুমৃ’ত্যু রোধে পারিবারিক পর্যায়ে সচেতনতা তৈরি ও জাতীয়ভাবে কর্মসূচি গ্রহণ করার ওপরও বিভিন্ন আন্তর্জাতিক ও স্থানীয় প্রতিষ্ঠান সুপারিশ করেছে বলেও বি’জ্ঞপ্তিতে জানিয়েছে সমষ্টি।

সংবাদটি ভালো লাগলে শেয়ার করুন
  • 2
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  
    2
    Shares
নোটিশ : ডেইলি সিলেটে প্রকাশিত/প্রচারিত সংবাদ, আলোকচিত্র, ভিডিওচিত্র, অডিও বিনা অনুমতিতে ব্যবহার করা বেআইনি -সম্পাদক

© সর্বস্বত্ব স্বত্বাধিকার সংরক্ষিত

২০১১-২০১৭

সম্পাদকমন্ডলীর সভাপতি: মকিস মনসুর আহমদ
সম্পাদক ও প্রকাশক: খন্দকার আব্দুর রহিম, নির্বাহী সম্পাদক: মারুফ হাসান
অফিস: ৯/আই, ব্লু ওয়াটার শপিং সিটি, ৯ম তলা, জিন্দাবাজার, সিলেট।
ফোন: ০৮২১-৭২৬৫২৭, মোবাইল: ০১৭১৭৬৮১২১৪
ই-মেইল: [email protected]

Developed by: