সর্বশেষ আপডেট : ৯ ঘন্টা আগে
রবিবার, ১৭ জানুয়ারী ২০২১ খ্রীষ্টাব্দ | ৪ মাঘ ১৪২৭ বঙ্গাব্দ |

DAILYSYLHET
Fapperman.com DoEscorts

লন্ডনে বিজয়ফুল কর্মসূচি ২০২০ উদ্বোধন

সর্বস্তরে কর্মসূচি পালনের প্রত্যয়ে উদ্বোধন করা হয়েছে বিজয়ফুল কর্মসূচি ২০২০। ৩০ নভেম্বর বাংলাদেশ সময় রাত বারটা এক মিনিটে লন্ডনে কর্মসূচি উদ্বোধন ঘোষণা করেন বিশিষ্ট অর্থনীতিবিদ, লেখক ও শিক্ষক সেলিম জাহান।

উদ্বোধনকালে সেলিন জাহান বলেন, স্বাধীন বাংলাদেশের চার মূলনীতি এবং মুক্তিযুদ্ধের ইতিহাস নতুন প্রজন্মকে জানাতে বিজয়ফুল কর্মসূচি কার্যকর ভূমিকা পালন করবে। অনলাইনে কর্মসূচি উদ্বোধন অনুষ্ঠানে যোগ দেন বিভিন্ন দেশের বিজয়ফুল উজ্জীবিকগণ। এসময় বিজয়ফুল কর্মসূচির চেয়ার কবি শামীম আজাদ বলেন, এ কর্মসূচি এখন সর্বস্তরে পালিত হচ্ছে। এটি এখন জাতীয় কর্মসূচিতে রূপ লাভ করেছে। তিনি বিশেষ করে নতুন প্রজন্মকে এ কর্মসূচিতে যুক্ত করার বিষয়ে গুরুত্বরোপ করেন। বিজয়ফুল কর্মসূচি সমন্বয়ক কবি মিলটন রহমান ও যুগ্ম সমন্বয়ক কবি অপু ইসলামের পরিচালনায় অনলাইন অনুষ্ঠানে যোগ দেন মুক্তিযোদ্ধা লোকমান হোসেন, মুক্তিযোদ্ধা ফয়জুল রহমান, মুক্তিযোদ্ধা সাংবাদিক আবু মুসা হাসান, মুক্তিযোদ্ধা ইঞ্জিনিয়ার মেফতা ইসলাম, সাংবাদিক নিলু হাসান, মানচেস্টার কর্মসূচির উজ্জীবক জাওয়াদ ইকবাল চৌধুরী, নাজমা ইয়াসমীন, কার্ডিফ কর্মসূচির উজ্জীবক সাংবাদিক মকিস মনসুর, সুইডেন কর্মসূচির উজ্জীবক জুলফিকার জুরফিকার হায়দার, নাজমুল, নাজমুল খান, ইতালী কর্মসূচির উজ্জীবক নাজমুল হোসাইন, ঢাকার উজ্জীবক আবু সাইদ সুরুজ, শেখ রাজ্জাক, লন্ডন কর্মসূচির উজ্জীবক কবি ফারাহ নাজ, আরফুমান চৌধুরী, স্মৃতি আজাদ, কাউন্সিলার সৈয়দা সায়মা আহমেদ, সাদিক আহমদ চৌধুরী সাদিসহ আরো অনেকে।

অনুষ্ঠানের শুরুতে আরফুমান চৌধুরীর সঞ্চালনায় সমবেত কন্ঠে জাতীয় সঙ্গীত পরিবেশন করা হয়। আলোচনার এক পর্যায়ে মুক্তিযোদ্ধার চিঠি পাঠ করেন আবৃত্তিকার স্মৃতি আজাদ। এসময় উপস্থিত মুক্তিযোদ্ধারা বলেন, আমরা যুদ্ধ করে দেশ স্বাধীন করেছি। সেই স্বাধীনতা সংগ্রামের ইতিহাসকে অমর করে রাখতে বিজয়ফুল কর্মসূচি যে ভুমিকা পালন করছে তা তুলনাহীন। তারা বলেন, যে উদ্দেশ্য নিয়ে আমরা যুদ্ধে গিয়েছিলাম তা যেনো বাস্তবায়ন হয় নতুন প্রজন্মের হাতে। এছাড়া বিভন্ন স্থান থেকে যোগ দেয়া বিজয়ফুল উজ্জীবকগণ এবার কর্মসূচি কিভাবে পালন করা হবে সে বিষয়ে আলোকপাত করেন।

এছাড়া উদ্বোধনী অনুষ্ঠান থেকে সকল শহীদ মুক্তিযোদ্ধাদের প্রতি শ্রদ্ধা জ্ঞাপনসহ মরহুম মুক্তিযোদ্ধা সৈয়দ এম কয়সরসহ প্রয়াত সকল মুক্তিযোদ্ধাদের আত্মার শান্তি কামনা করা হয়। এছাড়া বিজয়ফুল কর্মসূচির নতুন প্রজন্মের উজ্জীবক তরুণ সঙ্গীত শিল্পী নিশ এর আশু রোগমুক্তি কামনা করা হয়।

উদ্বোধনী অনুষ্ঠান থেকে সকলকে নিজ নিজ অবস্থান থেকে এক থেকে ষোল ডিসেম্বর পর্যন্ত কর্মসূচি পালনের অনুরোধ জানানো হয়। কর্মসূচি পালনে কেন্দ্র থেকে সব ধরনের সহায়তা দেয়া হবে বলেও জানানো হয়।

এ বিভাগের অন্যান্য খবর

নোটিশ : ডেইলি সিলেটে প্রকাশিত/প্রচারিত সংবাদ, আলোকচিত্র, ভিডিওচিত্র, অডিও বিনা অনুমতিতে ব্যবহার করা বেআইনি -সম্পাদক

© সর্বস্বত্ব স্বত্বাধিকার সংরক্ষিত

২০১১-২০১৭

সম্পাদকমন্ডলীর সভাপতি: মকিস মনসুর আহমদ
সম্পাদক ও প্রকাশক: খন্দকার আব্দুর রহিম, নির্বাহী সম্পাদক: মারুফ হাসান
অফিস: ৯/আই, ব্লু ওয়াটার শপিং সিটি, ৯ম তলা, জিন্দাবাজার, সিলেট।
ফোন: ০৮২১-৭২৬৫২৭, মোবাইল: ০১৭১৭৬৮১২১৪
ই-মেইল: [email protected]

Developed by: