সর্বশেষ আপডেট : ৩ ঘন্টা আগে
শনিবার, ৫ ডিসেম্বর ২০২০ খ্রীষ্টাব্দ | ২১ অগ্রহায়ণ ১৪২৭ বঙ্গাব্দ |

DAILYSYLHET
Fapperman.com DoEscorts

ভারত সীমান্ত পিলারের কাছ থেকে দুই ভাইয়ের লাশ উদ্ধার

ফেনীর পরশুরাম সীমান্তের শূন্য রেখা থেকে দুই সহোদরের লাশ উদ্ধার করেছে বিজিবি, বজ্রপাতে যাদের মৃত্যু হয়েছে বলে আইনশৃঙ্খলা বাহিনীর ধারণা।

রোববার দুপুরে বিজিবি-বিএসএফ পতাকা বৈঠক শেষে এই দুই বাংলাদেশির লাশ উদ্ধার করে পুলিশের কাছে হস্তান্তর করেছে বিজিবি।

এরা হলেন পরশুরাম পৌরসভার ভারতীয় সীমান্ত সংলগ্ন উত্তর গুথুমা গ্রামের খারিজকোনার কালাধন সরকারের ছেলে নুরুল করিম (২৮) ও মো. স্বপন (২৪)। তারা দিনমজুর ছিলেন।

বিজিবি-৪ ফেনী ব্যাটালিয়ন অধিনায়ক লেফটেন্যান্ট কর্নেল মো. কামরুজ্জামান বলেন, পরশুরামের গুথমা বিওপির আওতাধীন সীমান্ত পিলার ২১৬৭/১১ এস সংলগ্ন শুন্য রেখা বরাবর হিল্লা টিলায় দুই সহোদর খালে জাল দিয়ে মাছ ধরছিলেন। তাদের শরীরে বজ্রপাতে পুড়ে যাওয়ার চিহ্ন রয়েছে

পরশুরাম পৌরসভার কাউন্সিলর রাসুল আহাম্মদ মজুমদার স্বপন জানান, ভোরে সীমান্তের ১৫-২০ ফুট ভেতরে মরদেহগুলো পড়ে থাকতে দেখে পুলিশকে খবর দেওয়া হয়। পরে পুলিশকে বিষয়টি জানালেও ভারতীয় সীমান্তরক্ষী বাহিনী বিএসএফ লাশগুলো তাদের ক্যাম্প এলাকায় নিয়ে যায়।

নিহত সহোদরদের বাবা কালাধন সরকার জানান, ফজরের নামাজের কিছু আগে তারা মাছ ধরতে বেরিয়েছিলেন। পরে আর ফিরে আসেননি।

ছাগলনাইয়া-পরশুরাম সার্কেলের সহকারী পুলিশ সুপার নিশান চাকমা জানান, বিষয়টি জানাজানি হলে স্থানীয় সীমান্ত চৌকির বিজিবি পতাকা বৈঠকের প্রস্তাব করে। দুই পক্ষের পতাকা বৈঠকের পর বিএসএফ লাশ দুটি বিজিবির কাছে হস্তান্তর করে। বিজিবি পরে মরদেহগুলো পুলিশকে হস্তান্তর করে।

পরশুরাম মডেল থানার ওসি শওকত হোসেন বলেন, “প্রাথমিকভাবে ধারণা করছি বজ্রপাতে দুই সহোদর নিহত হয়েছে। তবে ময়নাতদন্তের পর মৃত্যুর প্রকৃত কারণ জানা যাবে।”

লাশগুলো ময়নাতদন্তের জন্য ফেনী জেনারেল হাসপাতালের মর্গে পাঠানো হয়েছে। সূত্র : বিডিনিউজ

নোটিশ : ডেইলি সিলেটে প্রকাশিত/প্রচারিত সংবাদ, আলোকচিত্র, ভিডিওচিত্র, অডিও বিনা অনুমতিতে ব্যবহার করা বেআইনি -সম্পাদক

© সর্বস্বত্ব স্বত্বাধিকার সংরক্ষিত

২০১১-২০১৭

সম্পাদকমন্ডলীর সভাপতি: মকিস মনসুর আহমদ
সম্পাদক ও প্রকাশক: খন্দকার আব্দুর রহিম, নির্বাহী সম্পাদক: মারুফ হাসান
অফিস: ৯/আই, ব্লু ওয়াটার শপিং সিটি, ৯ম তলা, জিন্দাবাজার, সিলেট।
ফোন: ০৮২১-৭২৬৫২৭, মোবাইল: ০১৭১৭৬৮১২১৪
ই-মেইল: [email protected]

Developed by: