সর্বশেষ আপডেট : ১ ঘন্টা আগে
শুক্রবার, ২৩ অক্টোবর ২০২০ খ্রীষ্টাব্দ | ৮ কার্তিক ১৪২৭ বঙ্গাব্দ |

DAILYSYLHET
Fapperman.com DoEscorts

হটস্পট কুমিল্লায় রেকর্ড, একদিনে ১০০ জন আক্রান্ত

কুমিল্লায় উদ্বেগজনক হারে বাড়ছে করোনাভাইরাসের সংক্রমণের সংখ্যা। বাড়ছে মৃত্যুও। রোববার (৩১ মে) বিকেল পর্যন্ত জেলা সদরসহ বিভিন্ন উপজেলায় রেকর্ড সংখ্যক ১০০ জনের করোনা পজিটিভ ফলাফল এসেছে। এ নিয়ে জেলায় করোনা শনাক্তের সংখ্যা বেড়ে দাঁড়িয়েছে ৯৭১ জনে।

নতুন শনাক্তের তালিকায় কুমিল্লা মেডিকেল কলেজ হাসপাতালের তিনজন চিকিৎসক, দুইজন নার্স ও জেলা প্রশাসক কার্যালয়ের পাঁচজন কর্মচারী রয়েছেন।

গত ২৪ ঘণ্টায় নগরীতে আখতার জাহান এবং লালমাই উপজেলায় মোসলেহ উদ্দিন নামের এক ব্যবসায়ীর মৃত্যু হয়েছে। এ নিয়ে মৃত্যুর সংখ্যা বেড়ে দাঁড়িয়েছে ২৮ জনে। বিকেলে এসব তথ্য নিশ্চিত করেছেন কুমিল্লার সিভিল সার্জন ডা. মো. নিয়াতুজ্জামান।

ডা. মো. নিয়াতুজ্জামান বলেন, গত ২৪ ঘণ্টায় জেলায় নতুন করে ১০০ জনের করোনা শনাক্ত হয়েছে। এর মধ্যে সিটি করপোরেশন এলাকায় ৩৬ জন, দেবিদ্বারে ১৮, লাকসামে ১৬, নাঙ্গলকোটে নয়, চৌদ্দগ্রামে ছয়, মনোহরগঞ্জে চার, বরুড়ায় চার, হোমনায় তিন, আদর্শ সদরে দুই, বুড়িচংয়ে এক এবং মেঘনা উপজেলায় একজন। লালমাই উপজেলায় করোনাভাইরাসে আক্রান্ত হয়ে শনিবার সন্ধ্যায় মোসলেম উদ্দিন নামে এক কাপড় ব্যবসায়ীর মৃত্যু হয়েছে। তার বাড়ি উপজেলার বাকই উত্তর ইউনিয়নের জয়শ্রী গ্রামে। তিনি স্থানীয় বিজরা বাজারের কাপড় ব্যবসায়ী ছিলেন।

পাশাপাশি কুমিল্লা নগরীতে করোনায় আক্রান্ত হয়ে আখতার জাহান নামে এক নারীর মৃত্যু হয়েছে। রোববার সকালে নগরীর মনোহরপুর এলাকায় নিজ বাসায় তিনি মারা যান। দুপুরে নগরীর টমছম সেতু কবরস্থানে তাকে দাফন করা হয়। তিনি নগরীর মনোহরপুর এলাকার দবির আহমেদের স্ত্রী। গত ২৭ মে ওই নারীর করোনা পজিটিভ আসে। এরপর থেকে তিনি বাসায় আইসোলেশনে ছিলেন। শনিবার সন্ধ্যায় তার অবস্থার অবনতি হলে নগরীর ফরটিস হাসপাতালের আইসোলেশন ওয়ার্ডে ভর্তি করা হয়। রোববার সকালে তিনি মারা যান। এ নিয়ে জেলায় করোনায় মৃত্যুর সংখ্যা বেড়ে ২৮ জনে দাঁড়াল।

কুমিল্লার সিভিল সার্জন আরও বলেন, বিভিন্ন উপজেলা থেকে এ পর্যন্ত নয় হাজার ২০৩ জনের নমুনা পাঠানোর পর রিপোর্ট এসেছে আট হাজার ২৯৫ জনের। এর মধ্যে করোনা শনাক্ত হয়েছে ৯৭১ জনের। মারা গেছেন ২৮ জন। এ পর্যন্ত আক্রান্তদের মধ্যে সুস্থ হয়েছেন ১৩৮ জন।

কুমিল্লা মেডিকেল কলেজ (কুমেক) হাসপাতালের পরিচালক ডা. মো. মুজিবুর রহমান বলেন, হাসপাতালে নতুন করে আরও তিন চিকিৎসক, দুই নার্স এবং ছয় রোগীর করোনা শনাক্ত হয়েছে। শনাক্ত হওয়া ছয়জন নমুনা দিয়ে বাড়ি চলে যায়।

তিনি আরও বলেন, করোনার সঙ্কটে জীবনের ঝুঁকি নিয়ে হাসপাতালের চিকিৎসক, নার্স ও সংশ্লিষ্টরা দায়িত্বপালন করছেন। এ পর্যন্ত হাসপাতালের ১০ চিকিৎসক, ১২ নার্স ও ছয় কর্মচারী করোনায় আক্রান্ত হয়েছেন।

নোটিশ : ডেইলি সিলেটে প্রকাশিত/প্রচারিত সংবাদ, আলোকচিত্র, ভিডিওচিত্র, অডিও বিনা অনুমতিতে ব্যবহার করা বেআইনি -সম্পাদক

© সর্বস্বত্ব স্বত্বাধিকার সংরক্ষিত

২০১১-২০১৭

সম্পাদকমন্ডলীর সভাপতি: মকিস মনসুর আহমদ
সম্পাদক ও প্রকাশক: খন্দকার আব্দুর রহিম, নির্বাহী সম্পাদক: মারুফ হাসান
অফিস: ৯/আই, ব্লু ওয়াটার শপিং সিটি, ৯ম তলা, জিন্দাবাজার, সিলেট।
ফোন: ০৮২১-৭২৬৫২৭, মোবাইল: ০১৭১৭৬৮১২১৪
ই-মেইল: [email protected]

Developed by: