সর্বশেষ আপডেট : ২ ঘন্টা আগে
সোমবার, ২৭ সেপ্টেম্বর ২০২১ খ্রীষ্টাব্দ | ১২ আশ্বিন ১৪২৮ বঙ্গাব্দ |

DAILYSYLHET
Fapperman.com DoEscorts

ইতালিতে প্রাণহানি ১৪ হাজার ছাড়াল

প্রাণঘাতী করোনাভাইরাসে ইতালিতে দিনের পর দিন অবস্থা শুধু ভয়াবহই হচ্ছে। বাড়ছে আতঙ্কের মাত্রাও। জনগণকে সুরক্ষা দিতে ইতালি সরকার করোনা মোকাবিলায় সর্বোচ্চ চেষ্টা অব্যাহত রেখেছে। তা সত্ত্বেও করোনাভাইরাসে ইতালিতে মৃত্যুর মিছিল দীর্ঘ হচ্ছে।

শুক্রবার প্রাণ হারিয়েছে ৭৬৬ জন। বৃহস্পতিবার ৭৬০ জন। বুধবার প্রাণহানির সংখ্যা ছিল ৭২৭ জন। এ পর্যন্ত মোট মৃত্যুর সংখ্যা ১৪ হাজার ৬৮১ জন। একদিনে নতুন আক্রান্ত চার হাজার ৫৮৫ জন।

দেশটিতে গুরুতর অসুস্থ রোগীর সংখ্যা চার হাজার ৬৮ জন। গত ২৪ ঘণ্টায় সুস্থ হয়ে বাড়ি ফিরেছে এক হাজার ৪৮০ জন। চিকিৎসাধীন ৮৫ হাজার ৩৮৮ জন। এ নিয়ে দেশটিতে মোট আক্রান্ত রোগীর সংখ্যা এক লাখ ১৯ হাজার ৫২৭ জন বলে জানিয়েছেন নাগরিক সুরক্ষা সংস্থার প্রধান অ্যাঞ্জেলো বোরেল্লি।

তিনি বলেন, জনগণকে সুরক্ষা দিতে সরকার করোনা মোকাবিলায় সর্বোচ্চ চেষ্টা চালাচ্ছে। ফলে এ পর্যন্ত চিকিৎসা শেষে সুস্থ হয়ে বাড়ি ফিরেছে ১৯ হাজার ৭৫৮ জন।

ইতালির ২১ অঞ্চলের মধ্যে লোম্বারদিয়ায় করোনার সবচেয়ে বেশি আক্রান্ত (মিলান, বেরগামো, ব্রেসিয়া, ক্রেমনাসহ) ১১টি প্রদেশ। আজ এ অঞ্চলে মারা গেছে ৩৫১ জন। শুধু এ অঞ্চলেই মৃত্যুর সংখ্যা বেড়ে আট হাজার ৩১১ জনে দাঁড়িয়েছে। মোট আক্রান্তের সংখ্যা ৪৭ হাজার ৫২০ জন। আজ মোট আক্রান্তের সংখ্যা এক হাজার ৪৫৫ জন। আজ সুস্থ হয়ে বাড়ি ফিরেছে ৭৯১ জন।

লোম্বারদিয়ার প্রেসিডেন্ট আত্তিলিয়ো ফোনতানা জানান, বেরগামো ফেয়ারাকে নতুন হাসপাতাল হিসেবে গড়ে তোলা হয়েছে। কয়েকদিনের মধ্যে হাসপাতাল উদ্বোধন করা হবে। বাণিজ্যিক রাজধানী মিলানের বিখ্যাত ফিয়েরা মিলানো সিটি পরিণত হয়েছে ইতালির সবচাইতে বড় ইনটেনসিভ কেয়ার ইউনিটে। ২০০ আইসিইউ বেডসংবলিত অত্যাধুনিক এই হাসপাতালটি পলি ক্লিনিকের তত্ত্বাবধানে ২০০ বিশেষজ্ঞ চিকিৎসক, ৫০০ অভিজ্ঞ নার্স এবং ২০০ স্বাস্থ্যকর্মী চব্বিশ ঘণ্টা নিয়োজিত থাকবেন ভয়ঙ্কর জীবাণু কোভিড-১৯ আক্রান্ত মুমূর্ষু রোগীদের বাঁচাতে।

এদিকে প্রধানমন্ত্রী জোসেপ্পে কন্তের আহবানে সাড়া দিয়ে দেশের এই দুর্দিনে ৭ হাজার ২২০ জন অবসরপ্রাপ্ত ডাক্তার, নার্স ও অ্যাম্বুলেন্স কর্মী স্বাস্থ্যসেবা দিতে করোনা আক্রান্তদের পাশে এসে দাঁড়িয়েছেন। এছাড়াও করোনায় আক্রান্তদের সহযোগিতায় আলবেনিয়া, চীন, কিউবা এবং রাশিয়া থেকে আসা মেডিকেল টিম ইতালির বিভিন্ন অঞ্চলে করোনায় আক্রান্তদের সেবা দিয়ে যাচ্ছে।

করোনাভাইরাসে গত ২৪ ঘন্টায় ইউরোপের অন্যান্য দেশে প্রাণ হারানোর সংখ্যা: স্পেন ৫৮৭ জন, মোট ১০৯৩৫ জন, জার্মান ৯১ জন, মোট ১১৯৮ জন, ইংল্যান্ড ৬৮৪ জন, মোট ৩৬০৫ জন, সুইজারল্যান্ড ৩৭ জন, ৫৭৩ জন, বেলজিয়াম ১৩২ জান, মোট ১১৪৩ জন, হল্যান্ড ১৪৮ জন, মোট ১৪৮৭ জন, অস্ট্রিয়া ১০ জন, মোট ১৬৮ জন, পর্তুগাল ৩৭ জন, মোট, ২৪৬ জন, নরওয়ে ৬ ছয়জন, মোট ৫৬ জন, সুইডেন ২৫ জন, মোট ৩৩৩ জন, ডেনমার্ক ১৬ জন, মোট ১৩৯ জন, পোল্যান্ড ৮ জন, মোট ৬৫, রোমানিয়া ৭ জন, মোট ১২২, গ্রিস ৬ জন, মোট ৫৯, ফিনল্যান্ড একজন, মোট২০ জন, স্লোভেনিয়া ৩ জন, মোট ২০ জন।সূত্র: ঢাকাটাইমস

 

সংবাদটি ভালো লাগলে শেয়ার করুন
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  
নোটিশ : ডেইলি সিলেটে প্রকাশিত/প্রচারিত সংবাদ, আলোকচিত্র, ভিডিওচিত্র, অডিও বিনা অনুমতিতে ব্যবহার করা বেআইনি -সম্পাদক

© সর্বস্বত্ব স্বত্বাধিকার সংরক্ষিত

২০১১-২০১৭

সম্পাদকমন্ডলীর সভাপতি: মকিস মনসুর আহমদ
সম্পাদক ও প্রকাশক: খন্দকার আব্দুর রহিম, নির্বাহী সম্পাদক: মারুফ হাসান
অফিস: ৯/আই, ব্লু ওয়াটার শপিং সিটি, ৯ম তলা, জিন্দাবাজার, সিলেট।
ফোন: ০৮২১-৭২৬৫২৭, মোবাইল: ০১৭১৭৬৮১২১৪
ই-মেইল: [email protected]

Developed by: