fbpx

সর্বশেষ আপডেট : ২ ঘন্টা আগে
রবিবার, ৩১ মে ২০২০ খ্রীষ্টাব্দ | ১৭ জ্যৈষ্ঠ ১৪২৭ বঙ্গাব্দ |

DAILYSYLHET
Fapperman.com DoEscorts

ইরানে করোনা কেড়ে নিল আরও ১১৩ জনের প্রাণ

চীন থেকে ছড়িয়ে পড়া প্রাণঘাতী করোনাভাইরাসে ইরানে একদিনে আরও ১১৩ জনের মৃত্যু হয়েছে। এ নিয়ে দেশটিতে মোট মৃতের সংখ্যা দাঁড়ালো ৭২৪ জনে। এছাড়া দেশটিতে করোনা আক্রান্তের মোট সংখ্যা দাঁড়িয়েছে ১৩ হাজার ৯৩৮ জনে।

মহামারি করোনাভাইরাসে চীন ও ইতালির পর সবচেয়ে খারাপ অবস্থায় রয়েছে মধ্যপ্রাচ্যের দেশ ইরান। দেশটিতে করোনাভাইরাস শুধু আমজনতাই নয়, ইরানের প্রভাবশালী নেতা ও রাজনীতিবিদরাও আক্রান্ত হয়েছেন।

দেশটির আধা সরকারি সংবাদ সংস্থা জানিয়েছে, ইরানের সর্বোচ্চ ধর্মীয় নেতা আয়াতুল্লাহ আলী খামেনির উপদেষ্টা ও সাবেক মন্ত্রী ড. আলী আকবর বেলায়েতী করোনাভাইরাসে আক্রান্ত হয়েছেন। বর্তমানে তাকে বাড়িতে কোয়ারেন্টাইন করে রাখা হয়েছে।

বিশ্বব্যাপী বেড়েই চলেছে করোনাভাইরাস আক্রান্ত ও মৃতের সংখ্যা। প্রাণঘাতী এ ভাইরাসে বিশ্বব্যাপী এখন পর্যন্ত ১ লাখ ৬৯ হাজার ২৩২ জন আক্রান্ত হয়েছে। এতে মৃত্যু হয়েছে ৬ হাজার ৪৯৪ জনের। বিশ্বব্যাপী ছড়িয়ে পড়ায় কয়েক দিন আগে প্রাণঘাতী করোনাভাইরাসকে বৈশ্বিক মহামারি ঘোষণা করেছে বিশ্ব স্বাস্থ্য সংস্থা।

এদিকে চীনের পর করোনাভাইরাসে সবচেয়ে বেশি আক্রান্ত ও মৃত্যুর ঘটনা ঘটেছে ইউরোপের দেশ ইতালিতে। দেশটিতে করোনায় একদিনে আরও ৩৬৮ জনের মৃত্যু হয়েছে। এ নিয়ে দেশটিতে মোট মৃতের সংখ্যা দাঁড়ালো ১ হাজার ৮০৯ জনে।

ইতালিতে নতুন করে করোনাভাইরাসে আক্রান্ত হয়েছে ৩ হাজার ৫৯০ জন। আর সবমিলিয়ে দেশটিতে করোনা আক্রান্ত রোগীর সংখ্যা বর্তমানে ২৪ হাজার ৭৪৭।

ইতালির পর ইউরোপে করোনাভাইরাসে দ্বিতীয় ক্ষতিগ্রস্ত দেশ স্পেন। দেশটিতে করোনাভাইরাসে গত ২৪ ঘণ্টায় নতুন করে আরও ১৫৫ জনের মৃত্যু হয়েছে। এ নিয়ে দেশটিতে মৃতের সংখ্যা বেড়ে দাঁড়িয়েছে ২৯১ জনে। রোববার (১৫ মার্চ) পর্যন্ত দেশটিতে করোনাভাইরাসে আক্রান্ত হয়েছে ৭ হাজার ৭৫৩ জন। এছাড়া করোনাভাইরাসে আক্রান্ত ৫১৭ জন রোগী চিকিৎসার মাধ্যমে সুস্থ হয়ে বাড়ি ফিরেছে বলে জানিয়েছে দেশটির স্বাস্থ্য মন্ত্রণালয়।

দেশটিতে করোনার প্রকোপ যেন বাড়তে না পারে সেজন্য ইতোমধ্যে লোকজনের চলাচলে বিধি-নিষেধ আরোপ করা হয়েছে। এদিকে দেশে জরুরি অবস্থা ঘোষণা করেছে স্পেন সরকার। এই জরুরি অবস্থা ১৫ দিন পর্যন্ত কার্যকর থাকবে। খাবারের দোকান, ওষুধ, কর্মক্ষেত্র, হাসপাতাল বা জরুরি কাজ ছাড়া বাইরে বের হওয়া যাবে না। সবাইকে বাড়িতেই অবস্থানের নির্দেশ দেয়া হয়েছে।

করোনাভাইরাসের বিস্তার ঠেকাতে খাবারের দোকান ও ফার্মেসি ছাড়া সব শপিং মল বন্ধ রাখার নির্দেশ দিয়েছে সৌদি সরকার। রোববার (১৫ মার্চ) দেশটির সরকার এ নির্দেশ দেয়। তবে রেস্তোরাঁ ও ক্যাফেতে খাবার পরিবেশন নিষিদ্ধ করলেও বাইরে খাবার সরবারহের অনুমতি দেয়া হয়েছে।

সৌদি আরবের বন্দরনগরী জেদ্দার অন্যতম শপিং সেন্টার খারেস সাওয়ারিখের বিভিন্ন মলের কর্তৃপক্ষের কাছে রোববার মাগরিবের পর থেকে নোটিশ দেয় স্থানীয় প্রশাসন।সূত্র : জাগো নিউজ

নোটিশ : ডেইলি সিলেটে প্রকাশিত/প্রচারিত সংবাদ, আলোকচিত্র, ভিডিওচিত্র, অডিও বিনা অনুমতিতে ব্যবহার করা বেআইনি -সম্পাদক

© সর্বস্বত্ব স্বত্বাধিকার সংরক্ষিত

২০১১-২০১৭

সম্পাদকমন্ডলীর সভাপতি: মকিস মনসুর আহমদ
সম্পাদক ও প্রকাশক: খন্দকার আব্দুর রহিম, নির্বাহী সম্পাদক: মারুফ হাসান
অফিস: ৯/আই, ব্লু ওয়াটার শপিং সিটি, ৯ম তলা, জিন্দাবাজার, সিলেট।
ফোন: ০৮২১-৭২৬৫২৭, মোবাইল: ০১৭১৭৬৮১২১৪
ই-মেইল: [email protected]

Developed by: