সর্বশেষ আপডেট : ১ ঘন্টা আগে
মঙ্গলবার, ২১ জানুয়ারী ২০২০ খ্রীষ্টাব্দ | ৮ মাঘ ১৪২৬ বঙ্গাব্দ |

DAILYSYLHET

২০ টাকা পেয়েই ছোটবোনের জন্য ভাত কিনতে দৌড়াল আকাশী

নিউজ ডেস্ক:: ঢাকা বিশ্ববিদ্যালয় থেকে শাহবাগগামী রাস্তায় মেট্রোরেলের কাজ চলার কারণে দু’পাশেই চলাচলের রাস্তা ছোট হয়ে এসেছে। একসঙ্গে বেশি যানবাহন চলতে শুরু করলেই যানজট শুরু হয়ে যায়। আজ (মঙ্গলবার) এ এলাকার সাপ্তাহিক ছুটির কারণেই কি-না রাস্তা অনেকটাই ফাঁকা। দুপুর ১২টা। টিএসসি থেকে টুং টাং শব্দে বেল বাজিয়ে রিকশা, দ্রুত বেগে মোটরসাইকেল শাহবাগের দিকে ছুটে চলেছে। জাতীয় কবি কাজী নজরুল ইসলামের সমাধিস্থলের গেটের বাইরে বসে থাকা আনুমানিক ৯/১০ বছর ও বছর চারেক বয়সী দুটি শিশুর দিকে সবার দৃষ্টি ও সঙ্গে সঙ্গে আহারে বলে আফসোস করতে দেখা গেল।

নয়-দশ বছর বয়সী মেয়েটি বুকে আগলে রেখে ঘুম পাড়াচ্ছে তার চার বছর বয়সী বোনটিকে। হাঁটুর ওপর মাথা রেখে একটি হাত ছোট বোনের মাথার নীচে বিছিয়ে দিয়েছে। আরেক হাতে তার ভিক্ষার থালা। পাশেই একটি ছেঁড়া কাপড়ের ব্যাগ। বড় বোনটির মাথা টাক, সারা শরীরে খোসপাচড়ার দাগ। ছোট বোনটিকে ঘুম পাড়াতে গিয়ে কখন যে বড়বোনটি ঘুমিয়ে পড়েছে তা নিজেও জানে না।

এ প্রতিবেদকের সঙ্গে আলাপাকালে বড় মেয়েটি জানালো তার নাম আকাশী। বাসা কামরাঙ্গীর চরে। বাবা অসুস্থ ও বেকার। মা বাসাবাড়িতে ঝিয়ের কাজ করেন। সংসার চালাতে মাকে সহায়তা করতে প্রতিদিনই ছোটবোনটিকে নিয়ে পায়ে হেঁটে শাহবাগ আসে। ঝড়-বৃষ্টিতে বোনকে নিয়ে ঢাকা বিশ্ববিদ্যালয় ক্যাম্পাসের ফুটপাতে ভিক্ষার থালা নিয়ে বসে থাকে। পথচারীরা দয়া করে টাকা দেন। তবে আজ দুপুর পর্যন্ত কেউ একটি টাকাও সাহায্য দেননি বলে জানায়। শিশুটি বলে, সকাল থেকে যা টাকা সাহায্য পায় তা দিয়ে দুপুরের খাবার কিনে খায়। বাকি সারাদিনে যা পাওয়া যায় তা বাড়িতে মাকে দেয়।

এ প্রতিবেদকের সঙ্গে আলাপকালে জনৈক ব্যক্তি ২০ টাকা দিলে খুশিতে দু’চোখ চকচক করে ওঠে শিশুটির। পরিচিত এক ব্যক্তির কাছে বোনকে দিয়েই সে দৌড় দেয়। লোকটি জানায়, সকালে না খেয়ে বাসা থেকে এসেছে। তাই টাকা পেয়ে ছোটবোনসহ তার জন্য ফুটপাতের দোকান থেকে আলুভর্তা, ডাল ও ভাত কিনে আনতে গেছে।

এ বিভাগের অন্যান্য খবর

নোটিশ : ডেইলি সিলেটে প্রকাশিত/প্রচারিত সংবাদ, আলোকচিত্র, ভিডিওচিত্র, অডিও বিনা অনুমতিতে ব্যবহার করা বেআইনি -সম্পাদক

© সর্বস্বত্ব স্বত্বাধিকার সংরক্ষিত

২০১১-২০১৭

সম্পাদকমন্ডলীর সভাপতি: মকিস মনসুর আহমদ
সম্পাদক ও প্রকাশক: খন্দকার আব্দুর রহিম, নির্বাহী সম্পাদক: মারুফ হাসান
অফিস: ৯/আই, ব্লু ওয়াটার শপিং সিটি, ৯ম তলা, জিন্দাবাজার, সিলেট।
ফোন: ০৮২১-৭২৬৫২৭, মোবাইল: ০১৭১৭৬৮১২১৪
ই-মেইল: [email protected]

Developed by: