fbpx

সর্বশেষ আপডেট : ৮ ঘন্টা আগে
শনিবার, ৬ জুন ২০২০ খ্রীষ্টাব্দ | ২৩ জ্যৈষ্ঠ ১৪২৭ বঙ্গাব্দ |

DAILYSYLHET
Fapperman.com DoEscorts

বোরকা পরেই ক্রিকেট খেলে যাচ্ছেন লাবনী!

স্পোর্টস ডেস্ক:: অদম্য ইচ্ছাশক্তির বাস্তব প্রতিফলনের এক অনন্য উদাহরণ লাবনী আক্তার। ইসলামী অনুশাসন মেনেই ক্রিকেট খেলে যাচ্ছেন তিনি। লাবনী এখন একজন পেশাদার ক্রিকেটার। ঢাকা প্রিমিয়ার লিগে খেলছেন খেলাঘরের হয়ে।

ছেলেদের প্রিমিয়ার শেষ। যেখানে টানা দ্বিতীয়বার চ্যাম্পিয়ন হয়েছে ঢাকা আবাহনী লিমিটেড। সদ্য হয়ে গেল মেয়েদের প্রিমিয়ার ক্রিকেটের দলবদল। বরাবরের মতো এবারও এটি নিরুত্তাপ ছিল। ছিল না মিডিয়া অ্যাটেনশন। তবে প্রাণহীন দলবদলে এক জোড়া কালো চোখে প্রাণের সঞ্চার করেছিল। সজাগ করেছিল ক্যামেরার লেন্স।

বলাবাহুল্য, বোরকা পরে দলবদলে এসেছিলেন লাবনী। সেখানেই উঠে আসা, স্বপ্ন আর সম্ভাবনার কথা জানালেন তিনি।

বগুড়ার মেয়ে লাবনী। শৈশব থেকেই রয়েছে ক্রিকেটপ্রীতি। বাবা-চাচার সঙ্গে ক্রিকেট ম্যাচ দেখতে দেখতে মনের কোণে ক্রিকেটার হওয়ার সুপ্ত বাসনা জাগে। তবে বড় বাধা, রক্ষণশীল পরিবার। জানতে পারলে চোখ গরম করেন বাপ-ভাই। কিন্তু থোড়াই কেয়ার। মেয়ের স্বপ্নসারথী হলেন মা। আর পেছনে তাকাতে হয়নি তাকে।

লাবনী বলেন, আমার মা আমাকে প্রাইভেটের নাম করে স্টেডিয়ামে নিয়ে যেতেন। সন্ধ্যা হলেই নিয়ে আসতেন। আমি মনে করি, ইচ্ছাশক্তি থাকলে যেকোনো কিছু করা সম্ভব। এই ইচ্ছাশক্তি দেখেই আমাকে আমার মা সমর্থন করেন।

মাঠে পেশাদার ক্রিকেটার। তবে বাইরে ধর্মপ্রাণ এক মুসলিম নারী। কঠোরভাবে মেনে চলেন ইসলামিক অনুশাসন। লাবনীর অনুপ্রেরণা দক্ষিণ আফ্রিকার মুসলিম ওপেনার হাশিম আমলা। ইতিমধ্যে ন্যাশনাল ক্যাম্পে নিজের জাত চিনিয়েছেন তিনি। এখন জাতীয় দলে ডাক পাওয়ার অপেক্ষায় আছেন। হতে চান বিশ্বসেরা অফস্পিনার। আরও ১০ বছর ক্রিকেট নিয়েই থাকতে চান খেলাঘরের এই বোলার।

লাবনী বলেন, একজন ক্রিকেটার হওয়ার মানে এই নয় যে, আমাকে সবসময় প্যান্ট-শার্ট বা শর্ট পোশাক পরতে হবে। আমি এই পোশাক পরে খেলেই সবার কাছে পরিচিত হতে চাই।

নোটিশ : ডেইলি সিলেটে প্রকাশিত/প্রচারিত সংবাদ, আলোকচিত্র, ভিডিওচিত্র, অডিও বিনা অনুমতিতে ব্যবহার করা বেআইনি -সম্পাদক

© সর্বস্বত্ব স্বত্বাধিকার সংরক্ষিত

২০১১-২০১৭

সম্পাদকমন্ডলীর সভাপতি: মকিস মনসুর আহমদ
সম্পাদক ও প্রকাশক: খন্দকার আব্দুর রহিম, নির্বাহী সম্পাদক: মারুফ হাসান
অফিস: ৯/আই, ব্লু ওয়াটার শপিং সিটি, ৯ম তলা, জিন্দাবাজার, সিলেট।
ফোন: ০৮২১-৭২৬৫২৭, মোবাইল: ০১৭১৭৬৮১২১৪
ই-মেইল: [email protected]

Developed by: