সর্বশেষ আপডেট : ২ ঘন্টা আগে
বুধবার, ২৭ অক্টোবর ২০২১ খ্রীষ্টাব্দ | ১২ কার্তিক ১৪২৮ বঙ্গাব্দ |

DAILYSYLHET
Fapperman.com DoEscorts

হলুদ জ্বর : ১০০ কোটি মানুষকে টিকা দেবে জাতিসংঘ

আন্তর্জাতিক ডেস্ক:: আফ্রিকায় হলুদ জ্বরের প্রকোপ কমাতে একশো কোটি মানুষকে টিকা দেবে জাতিসংঘ এবং তাদের অংশীদাররা। সম্প্রতি সংস্থাটির তরফ থেকে তাদের এই পরিকল্পনার কথা জানানো হয়েছে।

পশ্চিম আফ্রিকা থেকে হলুদ জ্বরের প্রকোপ দূর করতে বড় ধরনের ক্যাম্পেইন প্রচারণা করা হচ্ছে। এ ধরনের প্রচারণা এই রোগের বিরুদ্ধে একটি মডেল হিসেবে কাজ করবে।

মঙ্গলবার জাতিসংঘের এক বিবৃতিতে জানানো হয়েছে, ২০২৬ সালের মধ্যে আফ্রিকার প্রায় একশো কোটি মানুষকে হলুদ জ্বরের টিকা দেয়া হবে। এই টিকা দেয়ার লক্ষ্য হচ্ছে মশার কামড় থেকে ছড়িয়ে পড়া হলুদ জ্বর থেকে মানুষকে রক্ষা করা।

নাইজেরিয়ার রাজধানী আবুজা থেকে ওয়ার্ল্ড হেলথ অরগ্যানাইজেশনের (ডব্লিউএইচও) প্রধান তেদরোস আধানোম ঘেব্রেয়েসুস বলেন, একটি মাত্র ইনজেকশনে আমরা একজন ব্যক্তিকে আজীবনের জন্য এই ভয়ঙ্কর রোগ থেকে রক্ষা করতে পারব। ২০২৬ সালের মধ্যে আফ্রিকার দেশগুলো হলুদ জ্বরমুক্ত করার ঘোষণা দিয়েছে জাতিসংঘ।

যাদেরকে হলুদ জ্বরের টিকা দেয়া হবে তাদের মধ্যে অর্ধেকই শিশু। ২০১৬ সালে হলুদ জ্বরের প্রকোপে ঘনবসতিপূর্ণ এলাকা অ্যাংগোলা এবং ডেমোক্রেটিক রিপাবলিক অব কঙ্গোতে প্রায় চারশো মানুষের মৃত্যু হয়েছে। হলুদ জ্বরের প্রকোপে এক সঙ্গে এতো মানুষের মৃত্যুর পরই বিশাল পরিসরে এই রোগের বিরুদ্ধে টিকা দেয়ার পরিকল্পনা গ্রহণ করা হয়। জনসংখ্যা বৃদ্ধির কারণে হলুদ জ্বরের প্রকোপ দিন দিন বৃদ্ধি পাচ্ছে।

বিশ্ব স্বাস্থ্য সংস্থার হিসাব অনুযায়ী, প্রতি বছর প্রায় ২ লাখ মানুষ হলুদ জ্বরে আক্রান্ত হচ্ছে। এই জ্বরের প্রকোপে প্রায় ৩০ হাজার মানুষের মৃত্যু হয়েছে। এর মধ্যে ৯০ ভাগই আফ্রিকায়।

সংবাদটি ভালো লাগলে শেয়ার করুন
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  

এ বিভাগের অন্যান্য খবর

নোটিশ : ডেইলি সিলেটে প্রকাশিত/প্রচারিত সংবাদ, আলোকচিত্র, ভিডিওচিত্র, অডিও বিনা অনুমতিতে ব্যবহার করা বেআইনি -সম্পাদক

© সর্বস্বত্ব স্বত্বাধিকার সংরক্ষিত

২০১১-২০১৭

সম্পাদকমন্ডলীর সভাপতি: মকিস মনসুর আহমদ
সম্পাদক ও প্রকাশক: খন্দকার আব্দুর রহিম, নির্বাহী সম্পাদক: মারুফ হাসান
অফিস: ৯/আই, ব্লু ওয়াটার শপিং সিটি, ৯ম তলা, জিন্দাবাজার, সিলেট।
ফোন: ০৮২১-৭২৬৫২৭, মোবাইল: ০১৭১৭৬৮১২১৪
ই-মেইল: [email protected]

Developed by: