সর্বশেষ আপডেট : ১ মিনিট ৩ সেকেন্ড আগে
বৃহস্পতিবার, ৮ ডিসেম্বর, ২০১৬, খ্রীষ্টাব্দ | ২৪ অগ্রহায়ণ ১৪২৩ বঙ্গাব্দ |

DAILYSYLHET

ফেল করা যাবেনা

9976437d-e363-4877-9ab0-e02cb13a6b14

অহী আলম রেজা::
জীবনের নতুন বাক। এ বাকে বার্তা দিয়ে যায় আগামীর স্বপ্ন। ভবিষ্যতের নতুন পথচলা। দীর্ঘ অধ্যবসায়ের পর ফলাফলের জন্য অপেক্ষা। দূরুদূরু বুক, টানটান উত্তেজণা। ফলাফল পেয়েই ছাত্র-ছাত্রীদের মধ্যে দেখা যায় আনন্দ-উল্লাস। স্কুলগুলোতে শুরু হয়ে যায় উৎসব। নাচ গান হৈ হুল্লোড়ের মাধ্যমে শিক্ষার্থীরা জানিয়ে দেয়- আগামীর স্বপ্ন ধরা দেবে হাতের মুঠোয়। ফলাফল যাই হোক- এ শিক্ষার্থীরাই আগামী দিনের অভিযাত্রী। দেশের ভবিষ্যৎ কর্ণধার।

আর শিক্ষক-অভিভাবকরা বলেছেন- সুযোগ-সুবিধা পেলে আমাদের ছেলে-মেয়েদের পক্ষে যে কোন ভালো অর্জন সম্ভব। তবে, তাদের পড়াশোনার সুযোগ করে দিতে হবে রাষ্ট্রকে। অকারণে হরতাল-অবরোধ দিয়ে ছেলে-মেয়েদের জীবন বিপন্ন করা যাবে না। যখনই পরীক্ষা তখনই রাজনৈতিক সহিংসতা কচি মনকে বিষিয়ে তুলে-এ অবস্থা রোধ করতে হবে। পরিবেশ দিলে-একটি ছাত্র-ছাত্রীও অকৃতকার্য হবে না।

তবে, শিক্ষামন্ত্রী নুরুল ইসলাম নাহিদ আরো ভালো ফল চেয়েছেন। ফলাফল প্রকাশের প্রাককালে তিনি বলেন- আমরা খুশি আছি কিন্তু আমরা অনেক বেশি খুশি হতে চাই। সবাই যেন ভাল করতে পারে সেই চেষ্টাই আমরা করে যাচ্ছি।

প্রধানমন্ত্রী বলেছেন কোনোভাবেই পরীক্ষায় ফেল করা যাবে না, ভালো ফলাফল করতে হবে। আর একটু মনোযোগ দিয়ে পড়লেই পরীক্ষায় ভালো করা সম্ভব।
আমরা চাই আমাদের দেশের ছেলে-মেয়ে সবাই সুশিক্ষায় শিক্ষিত হয়ে দেশকে আরও উন্নত দেশ হিসেবে গড়ে তুলবে।

বুধবার সারাদেশে একযোগে এসএসসি ও সমমানের পরীক্ষার ফলাফল প্রকাশিত হয়। ফল পেয়ে উচ্ছ্বসিত শিক্ষার্থী, অভিভাবক-শিক্ষকরা।

সারাদেশের মতো সিলেটেও এবার পাসের হার বেড়েছে। সিলেট বোর্ড থেকে এবার মোট ৮৪ হাজার ৪শ ৪৮ জন পরীক্ষার্থী অংশ নেয়। এর মধ্যে পাস করেছে ৭১ হাজার ৫শ ৮৬ জন। পাসের হার ৮৪ দশমিক ৭৭। যা গতবারের তুলনায় ২ দশমিক ৯৫ ভাগ বেশি। মোট শিক্ষার্থীর মধ্যে ছাত্র ৩৭ হাজার ৬৭২ জনের মধ্যে পাস করেছে ৩২ হাজার ৩১৮ জন। পাসের হার ৮৫ দশমিক ৭৯ ভাগ। ৪৬ হাজার ৭৭৬ জন ছাত্রীর মধ্যে পাস করেছে ৩৯ হাজার ২৬৮ জন। পাসের হার ৮৩ দশমিক ৯৫ ভাগ।

তবে, এবার এসএসসি পরীক্ষায় পাসের হার বাড়লেও কমেছে জিপিএ-৫ প্রাপ্তের সংখ্যা। ২০১৫ সালে পাসের হার ছিল ৮১ দশমিক ৮২ ভাগ। এবার জিপিএ-৫ পেয়েছে ২ হাজার ২৬৬ জন। গতবছর এই সংখ্যা ছিল ২ হাজার ৪ শ ৫২ জন।

এ ব্যাপারে পরীক্ষা নিয়ন্ত্রক সামছুল ইসলাম বলেন, এবারের ফলাফলে আমরা আনন্দিত। মানবিকে কিছুটা খারাপ ফলফল এসেছে। আগামীতে আরো ভালো ফলাফল হবে।

এ বিভাগের অন্যান্য খবর

নোটিশ : ডেইলি সিলেটে প্রকাশিত/প্রচারিত সংবাদ, আলোকচিত্র, ভিডিওচিত্র, অডিও বিনা অনুমতিতে ব্যবহার করা বেআইনি -সম্পাদক

© সর্বস্বত্ব স্বত্বাধিকার সংরক্ষিত

২০১১-২০১৬

সম্পাদকমন্ডলীর সভাপতি : মকিস মনসুর আহমদ, প্রধান সম্পাদক : লিয়াকত শাহ ফরিদী
সম্পাদক ও প্রকাশক : কে এ রহিম, নির্বাহী সম্পাদক: মারুফ হাসান
কার্যালয়: ব্লু ওয়াটার শপিং সিটি, ৯ম তলা, জিন্দাবাজার, সিলেট-৩১০০
ফোন : ০৮২১-৭২৬ ৫২৭ (নিউজ), ০১৭১২ ৮৮ ৬৫ ০৩ (সম্পাদক)
ই-মেইল: dailysylhet@gmail.com

Developed by: