সর্বশেষ আপডেট : ৫২ মিনিট ৩৬ সেকেন্ড আগে
সোমবার, ৫ ডিসেম্বর, ২০১৬, খ্রীষ্টাব্দ | ২১ অগ্রহায়ণ ১৪২৩ বঙ্গাব্দ |

DAILYSYLHET

পৃথিবীসদৃশ তিন গ্রহের সন্ধান

full_256128503_1462286972তথ্যপ্রযুক্তি ডেস্ক: পৃথিবী থেকে ৪০ আলোকবর্ষ দূরে অত্যন্ত শীতল একটি বামন নক্ষত্রকে কেন্দ্র করে ঘুরতে থাকা পৃথিবীসদৃশ তিনটি গ্রহের সন্ধান পাওয়ার দাবি করেছেন গবেষকেরা। সম্প্রতি ‘নেচার’ সাময়িকীতে এই গবেষণা-বিষয়ক নিবন্ধ প্রকাশিত হয়েছে।

ম্যাসাচুসেটস ইনস্টিটিউট অব টেকনোলজিসের গবেষকেরা ট্রাপিস্ট নামের টেলিস্কোপ ব্যবহার করে ওই নক্ষত্র ও গ্রহগুলো পর্যবেক্ষণ করেন। গবেষকেরা বলেন, ছোট ছোট এই নক্ষত্র ও কিছু বাদামি বামন নক্ষত্র দীর্ঘদিন টিকে থাকে। আমাদের মিল্কি ওয়ে ছায়াপথে এ ধরনের অনেক নক্ষত্র দেখা যায়।

অত্যন্ত শীতল ওই নক্ষত্রের নাম ট্রাপিস্ট-১। এ ধরনের কোনো নক্ষত্রকে কেন্দ্র করে কোনো গ্রহ থাকার বিষয়টি গবেষকেদের বিস্মিত করেছে। তাঁরা বলছেন, একটি নক্ষত্র হতে গেলে যে বৈশিষ্ট্য থাকতে হয়, এর খুব সামান্যই আছে ওই নক্ষত্রের মধ্যে। নক্ষত্রটির তাপমাত্রা সূর্যের অর্ধেক আর ভরের দিক থেকেও সূর্যের ১০ ভাগের ১ ভাগ। এর রং লাল। এটি বৃহস্পতি গ্রহের প্রায় সমান। পৃথিবী থেকে খালি চোখে কিংবা সাধারণ টেলিস্কোপ ব্যবহার করে দেখা প্রায় অসম্ভব।

গবেষকেরা বলছেন, নক্ষত্রটিকে ঘিরে যে গ্রহগুলো আছে, তা যে পরিমাণ তেজস্ক্রিয়তা গ্রহণ করে, তা সূর্য থেকে পৃথিবী যে পরিমাণ তেজস্ক্রিয়তা গ্রহণ করে তার চার গুণ। অর্থাৎ, এসব গ্রহ ‘হ্যাবিটেবল জোন’ এর মধ্যে পড়ে। হ্যাবিটেবল জোন হচ্ছে, কোনো গ্রহ যে নক্ষত্রকে কেন্দ্র করে ঘুরতে থাকে, তা থেকে গ্রহের দূরত্ব, তাপমাত্রা, পানি থাকার সম্ভাবনা বা প্রাণের উদ্ভব ঘটার সম্ভাব্য অঞ্চল।

গবেষকেরা বলছেন, পৃথিবীসদৃশ তিনটি গ্রহের মধ্যে দুটি গ্রহ নক্ষত্রের কাছাকাছি থাকায় এগুলোতে পৃথিবীর মতোই দিন ও রাতের প্রক্রিয়া চলে।

তথ্যসূত্র: সিএনএন।

নোটিশ : ডেইলি সিলেটে প্রকাশিত/প্রচারিত সংবাদ, আলোকচিত্র, ভিডিওচিত্র, অডিও বিনা অনুমতিতে ব্যবহার করা বেআইনি -সম্পাদক

© সর্বস্বত্ব স্বত্বাধিকার সংরক্ষিত

২০১১-২০১৬

সম্পাদকমন্ডলীর সভাপতি : মকিস মনসুর আহমদ, প্রধান সম্পাদক : লিয়াকত শাহ ফরিদী
সম্পাদক ও প্রকাশক : কে এ রহিম, নির্বাহী সম্পাদক: মারুফ হাসান
কার্যালয়: ব্লু ওয়াটার শপিং সিটি, ৯ম তলা, জিন্দাবাজার, সিলেট-৩১০০
ফোন : ০৮২১-৭২৬ ৫২৭ (নিউজ), ০১৭১২ ৮৮ ৬৫ ০৩ (সম্পাদক)
ই-মেইল: dailysylhet@gmail.com

Developed by: