সর্বশেষ আপডেট : ২ মিনিট ৩৭ সেকেন্ড আগে
মঙ্গলবার, ২৫ জুলাই, ২০১৭, খ্রীষ্টাব্দ | ১০ শ্রাবণ ১৪২৪ বঙ্গাব্দ |

DAILYSYLHET

মডেল বানানোর প্রলোভন দেখিয়ে কিশোরীকে গণধর্ষণ

daily sylhet gonodhorshonডেইলি সিলেট ডেস্ক::
মডেল বানানোর প্রলোভন দেখিয়ে ষষ্ঠ শ্রেণির এক ছাত্রীকে আটক রেখে গণধর্ষণ করেছে দুর্বৃত্তরা। শেষ পর্যন্ত ওই কিশোরীর পিতার কাছে মুক্তিপণ দাবি করে তারা। দুই দিন পর রাজধানীর রামপুরা থেকে ওই কিশোরীকে উদ্ধার করেছে র‌্যাব। সেইসঙ্গে এক ধর্ষকসহ তিনজনকে গ্রেপ্তার করা হয়েছে।

গ্রেপ্তারকৃতরা হচ্ছে- শাহরিয়ার হাসান রিয়ন, ফাতেমা আক্তার শিমলা ও জুলিয়া বেগম। এ ঘটনায় বৃহস্পতিবার রাতে ছয় জনকে আসামি করে দক্ষিণখান থানায় মামলা করেছেন ওই কিশোরীর পিতা। নির্যাতিতা কিশোরীকে ঢাকা মেডিকেল কলেজ হাসপাতালের ওয়ান স্টপ ক্রাইসিস সেন্টারে ভর্তি করা হয়েছে।

র‌্যাব-১ এর সহকারী পুলিশ সুপার এলাহী জানান, দক্ষিণখানের বাসা থেকে ওই কিশোরীকে মডেল বানানোর প্রলোভন দেখিয়ে নিয়ে যায় প্রতিবেশী শিমলা নামক তরুণী। রামপুরার জামতলা এলাকার একটি বাসায় নিয়ে তাকে আটকে রাখা হয়। সেখানে এক রাত তাকে ধর্ষণ করে শাহরিয়ার রিয়ন। পরে ওই বাসা থেকে পার্শ্ববর্তী জুলিয়া নামের এক নারীর বাসায় নিয়ে আটকে রাখা হয় তাকে। সেখানে নাসির, জুয়েল ও ইমন নামে তিন যুবক ওই কিশোরীকে ধর্ষণ করে। একপর্যায়ে ওই কিশোরীর পিতার মোবাইলফোনে কল দিয়ে চাঁদা দাবি করে তারা। প্রথমে ১ লাখ ও পরে ৫০ হাজার টাকা দাবি করে। বিষয়টি র‌্যাব-১ এর কর্মকর্তাদের জানান কিশোরীর পিতা। পরে বুধবার রাতে র‌্যাব ওই বাড়িতে অভিযান চালিয়ে কিশোরীকে উদ্ধার করে। এ সময় শাহরিয়ার, শিমলা ও জুলিয়াকে গ্রেপ্তার করে র‌্যাব। বৃহস্পতিবার রাতে নির্যাতিতা কিশোরীকে ঢাকা মেডিকেল কলেজ হাসপাতালের ওসিসিতে ভর্তি করা হয়।

জানা গেছে, কিশোরীর পিতা একজন গাড়ি চালক ও মা একজন সেবিকা। মা ও বাবা দীর্ঘ সময় বাসায় না থাকার সুযোগে প্রতিবেশী শিমলা ওই কিশোরীর সঙ্গে সখ্য গড়ে তোলে। শিমলা তাকে মডেল বানানোর স্বপ্ন দেখায়। মডেলিংয়ের কথা বলেই মা-বাবার অজান্তে বাসা থেকে সোমবার রামপুরা নিয়ে যায় তাকে। এ ঘটনায় দক্ষিণখান থানায় শিশুর পিতা বাদী হয়ে মামলা করেছেন। মামলার তদন্তকারী কর্মকর্তা দক্ষিণখান থানার পরিদর্শক শেখ রোকনুজ্জামান জানান, শাহরিয়ার ও শিমলা নিজেদের স্বামী স্ত্রী হিসেবে পরিচয় দেয়। আসামিরা বিভিন্ন অপকর্মে জড়িত বলে ধারণা করছে পুলিশ। এজন্য তাদের জিজ্ঞাসাবাদ করা হবে। এ ছাড়াও অন্য আসামিদের গ্রেপ্তার করতে পুলিশ তৎপর বলে জানান তিনি। এ মামলার আসামি বাগেরহাটের মোড়লগঞ্জের তেলিগাতির সিদ্দিকুর রহমানের পুত্র শাহরিয়ার হাসান রিয়ন, তার স্ত্রী ফাতেমা আক্তার শিমলা ও মাদারীপুরের কালকিনির চড়দৌলতপুরের জুলিয়া আক্তারকে জিজ্ঞাসাবাদ করার জন্য গতকাল একদিনের রিমান্ডে নিয়েছে পুলিশ। এই মামলার অন্য আসামিরা হচ্ছে- নাসির, জুয়েল ও ইমন।

নোটিশ : ডেইলি সিলেটে প্রকাশিত/প্রচারিত সংবাদ, আলোকচিত্র, ভিডিওচিত্র, অডিও বিনা অনুমতিতে ব্যবহার করা বেআইনি -সম্পাদক

© সর্বস্বত্ব স্বত্বাধিকার সংরক্ষিত

২০১১-২০১৬

সম্পাদকমন্ডলীর সভাপতি : মকিস মনসুর আহমদ, সম্পাদক : লিয়াকত শাহ ফরিদী
প্রকাশক : কে এ রহিম, নির্বাহী সম্পাদক: মারুফ হাসান
কার্যালয়: ব্লু ওয়াটার শপিং সিটি, ৯ম তলা, জিন্দাবাজার, সিলেট-৩১০০
ফোন : ০৮২১-৭২৬ ৫২৭, ০১৭১৭ ৬৮ ১২ ১৪ (নিউজ), ০১৭১২ ৮৮ ৬৫ ০৩ (সম্পাদক)
ই-মেইল: dailysylhet@gmail.com

Developed by: