সর্বশেষ আপডেট : ৬ মিনিট ১৫ সেকেন্ড আগে
বৃহস্পতিবার, ৮ ডিসেম্বর, ২০১৬, খ্রীষ্টাব্দ | ২৪ অগ্রহায়ণ ১৪২৩ বঙ্গাব্দ |

DAILYSYLHET

বর্তমান সরকার উদার গণতন্ত্রে বিশ্বাস করে — সিলেটে অর্থ ও পরিকল্পনা প্রতিমন্ত্রী

Mannan1430829235স্টাফ রিপোর্টার::
অর্থ ও পরিকল্পনা প্রতিমন্ত্রী এম এ মান্নান এমপি বলেছেন, বর্তমান সরকার একটি উদার গণতান্ত্রিক নিয়মে বিশ্বাস করে। তিনি বলেন, সরকার মিলেনিয়াম ডেভেলপম্যান্ট গোল (এমডিজি) সফল বাস্তবায়নের মাধ্যমে এসডিজি (সাসটেইনএবল ডেভেলপম্যান্ট গোল) নিয়ে কাজ করছে।

বৃহস্পতিবার দুপুরে সিলেট নগরীর স্থানীয় একটি হোটেলে ’সূচনা’ পুষ্টি কর্মসূচীর উদ্বোধনী অনুষ্ঠানে প্রধান অতিথির বক্তব্যে তিনি এসব কথা বলেন। সিলেট অঞ্চলের মা ও শিশুর পুষ্টির মান উন্নয়নের লক্ষ্যে এ প্রকল্প গ্রহণ করা হয়েছে। তিনি বলেন, সরকার ’সুচনা’ কর্মসূচির মত সময়োপযোগী উন্নয়ন কর্মসূচিসমূহকে আন্তরিক ভাবে স্বাগত জানায় ।

অর্থ ও পরিকল্পনা প্রতিমন্ত্রী আরো বলেন, দেশের প্রধান সম্পদ হচ্ছে আমাদের মানুষ। বিপুল এই জনগোষ্ঠীকে দক্ষ মানব সম্পদ হিসাবে গড়ে তোলা গেলে দেশ উন্নয়নের ক্ষেত্রে আরো অনেক দূর এগিয়ে যাবে।

প্রধান অতিথি এমএ মান্নান বলেন, মা ও শিশুর পুষ্টির মান উন্নয়নের মাধ্যমে জাতীয় উন্নয়নের সূচক সমূহকে আরো দৃঢ় করতে সরকারী ও বেসরকারী সংশ্লিষ্ট সকলকে সমন্বয়ের মাধ্যমে কাজ করতে হবে। তিনি বলেন, এ কার্যক্রম সফল বাস্তবায়নের জন্য সংশ্লিষ্ট জনগোষ্ঠীকে সম্পৃক্ত করে তাদের পুষ্টি সহ সার্বিক জীবনমানের উন্নয়ন ঘটাতে হবে। শিশুদেরকে ভবিষ্যত সম্পদ হিসাবে স্থায়ী রুপ দিতে সীমিত সম্পদের মধ্যেও আমাদেরকে কাজ করতে হবে।
তিনি বলেন, বর্তমান সরকার একটি উদার গণতান্ত্রিক নিয়মে বিশ্বাস করে। তিনি সরকার মিলেনিয়াম ডেভেলপম্যান্ট গোল(এমডিজি) সফল বাস্তবায়নের মাধ্যমে এসডিজি (সাসটেইনেবল ডেভেলপম্যান্ট গোল) নিয়ে কাজ করছে। তিনি বলেন, বর্তমান সরকার ’সুচনা’ কর্মসূচির মত সময়োপযোগী উন্নয়ন কর্মসূচিসমূহকে আন্তরিক ভাবে স্বাগত জানায়।

সেভ দা চিলড্রেন এর সিনিয়র অ্যাডভাইজার জামিল আহমেদ এর সঞ্চালনায় অনুষ্ঠানে বিশেষ অতিথির বক্তব্যে ডিএফআইডি, ব্রিটিশ হাই কমিশনের ফার্স্ট সেক্রেটারি গ্রাহাম গাস বলেন, বন্ধুপ্রতিম রাষ্ট্র হিসেবে যুক্তরাজ্য সরকার এ ধরণের জনগুরুত্বপূর্ণ কার্যক্রমে সহযোগিতা করতে চায় এবং তিনি ্অশা করেন ’সুচনা কর্মসূচি জাতীয় পর্যায়েও ভূমিকা রাখবে।

বিশেষ অতিথির বক্তব্যে সিলেটের অতিরিক্ত জেলা প্রশাসক শহীদ মো. ছাইফুল হক বলেন, স্থানীয় প্রশাসন ও সংশ্লিষ্ট বিভাগ সমূহের সাথে বেসরকারী উন্নয়ন সংস্থা সমূহের কার্যকর সমন্বয়ের মাধ্যমে উন্নয়ন কার্যক্রম গ্রহণ করতে হবে এবং স্থানীয় প্রশাষন এ বিষয়ে সর্বতো সহযোগীতা করবে।
বিশেষ অতিথি ইউরোপিয়ান ইউনিয়নের ফার্স্ট সেক্রেটারি গনজালো সেরানো ’সূচনা’ প্রকল্পের শুভ কামনা করে বলেন, সময়োপযোগী এ কর্মসূচি দারিদ্র বিমোচনেও ভুমিকা রাখবে ।

অনুষ্ঠানে আরো উপস্থিত ছিলেন, সিলেট বিভাগীয় পরিবার পরিকল্পনা অধিদপ্তরের পরিচালক মো. কুতুব উদ্দীন, সিভিল সার্জন ডা. মো. হাবিবুর রহমান, কৃষি বিশ্ববিদ্যালয় ডিন অধ্যাপক ড. মো. শাহাব উদ্দীন।

অনুষ্ঠানের শুরুতে স্বাগত বক্তব্য রাখেন, সূচনা কর্মসুচির টিম লিডার জয় শংকর লাল। স্বাগত বক্তব্যের পর কর্মসূচির বিস্তারিত উপস্থাপন করেন টেকনিক্যাল ডিরেক্টর (প্রোগ্রাম) কাজী এলিজা ইসলাম।

প্রসঙত, সূচনা কর্মসূচী সিলেট ও মৌলভীবাজারের দুই লক্ষ পঞ্চাশ হাজার অতি দরিদ্র পরিবারকে বিভিন্ন পুষ্টি ও আয় বর্ধন মূলক কর্মকান্ডে সহায়তার মাধ্যমে এ কার্যক্রম বাস্তবায়ন করবে। এ দুই জেলার ২০টি উপজেলায় এ কর্মসূচি বাস্তবায়িত হবে।

এ বিভাগের অন্যান্য খবর

নোটিশ : ডেইলি সিলেটে প্রকাশিত/প্রচারিত সংবাদ, আলোকচিত্র, ভিডিওচিত্র, অডিও বিনা অনুমতিতে ব্যবহার করা বেআইনি -সম্পাদক

© সর্বস্বত্ব স্বত্বাধিকার সংরক্ষিত

২০১১-২০১৬

সম্পাদকমন্ডলীর সভাপতি : মকিস মনসুর আহমদ, প্রধান সম্পাদক : লিয়াকত শাহ ফরিদী
সম্পাদক ও প্রকাশক : কে এ রহিম, নির্বাহী সম্পাদক: মারুফ হাসান
কার্যালয়: ব্লু ওয়াটার শপিং সিটি, ৯ম তলা, জিন্দাবাজার, সিলেট-৩১০০
ফোন : ০৮২১-৭২৬ ৫২৭ (নিউজ), ০১৭১২ ৮৮ ৬৫ ০৩ (সম্পাদক)
ই-মেইল: dailysylhet@gmail.com

Developed by: