সর্বশেষ আপডেট : ১০ মিনিট ২২ সেকেন্ড আগে
শনিবার, ৩ ডিসেম্বর, ২০১৬, খ্রীষ্টাব্দ | ১৯ অগ্রহায়ণ ১৪২৩ বঙ্গাব্দ |

DAILYSYLHET

লাঘাটা নদীতে পানি নিস্কাশনে প্রতিবন্ধকতা : কমলগঞ্জে নিম্নাঞ্চলে বোরো ধান তলিয়ে যাওয়ায় চাষীরা ক্ষতিগ্রস্থ

Kamal-Flood-2মো. মোস্তাফিজুর রহমান::
টানা কয়েকদিনের বর্ষনে উজান থেকে নেমে আসা পাহাড়ি ঢলে মৌলভীবাজারের কমলগঞ্জ উপজেলার নিম্নাঞ্চলে ১ হাজার একক বোরো ফসল তলিয়ে যাওয়ায় কৃষকরা ব্যাপক ক্ষতির সম্মুখিন হয়েছে। ঝোপজঙ্গলে ভরপুর থাকায় লাঘাটা নদী দিয়ে পানি নিস্কাশন না হওয়ায় জলাবদ্ধতা সৃষ্টি হয়ে এই ক্ষতির শিকার হয়েছেন। ফলে ঋণগ্রস্ত কৃষকরা চরম হতাশায় পড়েছেন।
জানা যায়, বর্ষনের ফলে উজান থেকে নেমে আসা পাহাড়ি ঢলে কমলগঞ্জ উপজেলায় অকাল বন্যার সৃষ্টি হয়। বন্যার পানি নিম্নাঞ্চলের কেওলার হাওরে লাঘাটা নদী দিয়ে মনু নদীতে পানি নিস্কাশন হয়। তবে লাঘাটা নদীর পতনঊষার ও রাজনগর উপজেলার কামারচাক ইউনিয়নে ঝোপজঙ্গল ও গাছ-বাঁশ থাকায় নদী ভরাট হওয়ায় রীতিমতো পানি নিস্কাশন না হওয়ায় জলাবদ্ধতার সৃষ্টি হয়েছে।

জলাবদ্ধতায় পতনঊষার ইউনিয়নের ধূপাটিলা, শ্রীসূর্য্য, পতনউষার, জগন্নাথপুর, মুন্সীবাজার ইউনিয়নের রূপষপুর, বনবিষ্ণপুর, শমশেরনগর ইউনিয়নের কেছুলোটি ও সতিঝিরগ্রামের একাংশের বোরো ফসল সম্পূর্ণ ক্ষতিগ্রস্থ হয়েছে। নাম প্রকাশে অনচ্ছিুক কৃষি বিভাগের স্থানীয় মাঠ কর্মকর্তারা জানান, এসব গ্রামের প্রায় অর্ধ-সহ¯্রাধিক কৃষকের ১ হাজার একর জমির বোরো ফসল বিনষ্ট হয়েছে। পতনঊষার ইউনিয়নের কৃষক সিদ্দেক আলী, আব্দুল বারী, তোয়াবুর রহমান ও ফরিদ আহমদ বলেন, নিম্নাঞ্চল থাকায় তারা প্রত্যেকেই বোরো ধানের উপর নির্ভরশীল। কেওলার হাওরসহ আশপাশ এলাকায় প্রত্যেকেই ৫ থেকে ২০ কিয়ার পর্যন্ত জমি বোরো চাষাবাদ করেছেন। কেউ কেউ ঋণগ্রস্ত হয়েও বোরো আবাদ করেছেন। ফসল উৎপাদনের পর বিক্রি করে ঋণ পরিশোধ করার কথা।

এখন জলাবদ্ধতায় বোরো ফসল সম্পূর্ণ ক্ষতিগ্রস্থ হওয়ায় তারা চরম হতাশাগ্রস্থ হয়ে পড়েছেন। কৃষক ছিদ্দেক মিয়া বলেন, তারা প্রায় ৩০ জন কৃষক একটি বাড়ি একটি খামার থেকে মাথাপিছু দশ, পণেরো হাজার টাকা ঋণ নিয়েছেন বোরো উৎপাদন করে এগুলো পরিশোধ করার কথা। এছাড়াও দোকানবাকী ও মহাজনের ঋণে অনেকেই ঋণগ্রস্থ। কিন্তু এখন তাদের মাথায় হাত। কৃষি বিভাগের পতনঊষার ইউনিয়ন উপসহকারী কৃষিকর্মকর্তা গোপাল দেব বলেন, কেওলার হাওর এলাকার সম্পূর্ণ ফসল বিনষ্ট হয়েছে।
কমলগঞ্জ উপজেলা কৃষি কর্মকর্তা মোঃ শামসুদ্দীন আহমদ বলেন, ক্ষতিগ্রস্থদের তালিকা প্রদান করা হয়েছে। কৃষি পুণ:বার্সন আসলে তাদের প্রয়োজনীয় সহায়তা প্রদান করা হবে।

এ বিভাগের অন্যান্য খবর

নোটিশ : ডেইলি সিলেটে প্রকাশিত/প্রচারিত সংবাদ, আলোকচিত্র, ভিডিওচিত্র, অডিও বিনা অনুমতিতে ব্যবহার করা বেআইনি -সম্পাদক

© সর্বস্বত্ব স্বত্বাধিকার সংরক্ষিত

২০১১-২০১৬

সম্পাদকমন্ডলীর সভাপতি : মকিস মনসুর আহমদ, প্রধান সম্পাদক : লিয়াকত শাহ ফরিদী
সম্পাদক ও প্রকাশক : কে এ রহিম, নির্বাহী সম্পাদক: মারুফ হাসান
কার্যালয়: ব্লু ওয়াটার শপিং সিটি, ৯ম তলা, জিন্দাবাজার, সিলেট-৩১০০
ফোন : ০৮২১-৭২৬ ৫২৭ (নিউজ), ০১৭১২ ৮৮ ৬৫ ০৩ (সম্পাদক)
ই-মেইল: dailysylhet@gmail.com

Developed by: