সর্বশেষ আপডেট : ১ ঘন্টা আগে
শুক্রবার, ২ ডিসেম্বর, ২০১৬, খ্রীষ্টাব্দ | ১৮ অগ্রহায়ণ ১৪২৩ বঙ্গাব্দ |

DAILYSYLHET

সংকট তৈরির জন্যেই নির্বাচন থেকে বেগম জিয়ার পিছটান: তথ্যমন্ত্রী

ii-300x233 copyনিউজ ডেস্ক
জাসদ সভাপতি ও তথ্যমন্ত্রী হাসানুল হক ইনু বলেছেন, গণতন্ত্র ফেরত আনার জন্য নয়, সংকট তৈরির জন্যই বেগম খালেদা জিয়া নির্বাচন থেকে পূর্বপরিকল্পিতভাবে পিছটান দেন।
তিনি বলেন, আগুন সন্ত্রাসী বেগম খালেদা জিয়া সমর্থিত তিন প্রার্থীর পরাজয়ে গণতন্ত্র রক্ষা করলো।
আজ সকালে কুষ্টিয়া ভেড়ামারা উপজেলা মিলনায়তনে পাঠ্যাভ্যাস উন্নয়ন কর্মসূচি পর্যালোচনা ও কর্মশালা অনুষ্ঠানে যোগ দেয়ার আগে সাংবাদিকদের নানা প্রশ্নের জবাবে তিনি এ কথা বলেন।
সিটি করপোরেশন নির্বাচন নিয়ে জাতিসংঘের মহাসচিব বান কি মুনের উদ্বেগ প্রসঙ্গে তথ্যমন্ত্রী সাংবাদিকদের বলেন, বিদেশি বন্ধুদের উদ্বেগ আমরা শুনেছি, শুনবোও, কিন্তু তা নিয়ে মাথা ঘামাই না।
তিনি বলেন, ৫/১০টা কেন্দ্রের রিপোর্টের ভিত্তিতে তারা ১২ ঘণ্টার মধ্যে উদ্বেগ প্রকাশ না করে, ৩ হাজার কেন্দ্রের রিপোর্ট নিয়ে উদ্বেগ প্রকাশ করলে, তা যথার্থ হতো।
ইনু বলেন, বিদেশি বন্ধুদের যদি কিছু বলার থাকে, তাহলে তথ্য-উপাত্ত ও প্রমাণ দিয়ে কথা বলবেন?
বিদেশি বন্ধুদের দৃষ্টি আকর্ষণ করে তিনি বলেন, ফাঁকা বুলি আউড়াবেন না। বাংলাদেশ একটি স্বাধীন দেশ এখানে নির্বাচনে ত্রুটি-বিচ্যূতি হলে কিভাবে তা সংশোধন করতে হয়, তারও বিধান আছে।
তথ্যমন্ত্রী বলেন, তবে নির্বাচনের ভুলত্রুটি নিয়ে আলোচনার স্বাধীনতা প্রমাণ করায়- গণতন্ত্র জীবিত আছে, পরাজিত হয়নি।
তিনি নির্বাচনের ভুলত্রুটি নিয়ে সমালোচনার আড়ালে গণতন্ত্রের ঘরে খাল কেটে জঙ্গি কুমির না আনার জন্যও সকলের প্রতি আহবান জানান।
অনেক দল ও প্রার্থী কোন হিসাব-নিকাশ না করেই পুনর্নির্বাচন দাবি করছে উল্লেখ করে তথ্যমন্ত্রী ও জাসদ সভাপতি বলেন, ৩ হাজার কেন্দ্রের মধ্যে ক’টা কেন্দ্রে গণ্ডগোল হয়েছে সে হিসেব আগে হাজির করুন।
তিনি বলেন, সমগ্র গণমাধ্যম তো দেড়শ’ কেন্দ্রেরও তথ্য হাজির করতে পারেননি। সুতরাং মাত্র ১শ ৪০টি কেন্দ্রের বিবরণ দিয়ে বলছেন গণতন্ত্র পরাজিত হলো। এ লেখার মধ্য দিয়ে প্রমাণিত হলো গণতন্ত্র এখনও জীবিত আছে।
ইনু বলেন, খালেদা জিয়ার সমর্থিত প্রার্থীরা পূর্বপরিকল্পনা অনুযায়ী নির্বাচন থেকে সরে দাঁড়ান। গণতন্ত্রটাকে মজবুত করতে তারা নির্বাচনে অংশগ্রহণ করেননি, গণতন্ত্র এবং সাংবাধিনিক প্রক্রিয়াকে বিপদে ফেলতেই তারা নির্বাচন থেকে পিছটান দিয়েছেন।
তিনি বলেন, আগুন সন্ত্রাসী বেগম জিয়া সমর্থিত এই তিন প্রার্থীর পরাজয় গণতন্ত্রকে পরাজিত নয়, রক্ষা করলো।
ভেড়ামারা উপজেলা নির্বাহী অফিসার শান্তি মনি চাকমার সভাপতিত্বে ওই সভায় বিশেষ অতিথির বক্তব্য রাখেন উপজেলা চেয়ারম্যান এ্যাডঃ তৌহিদুল ইসলাম আলম, পৌর মেয়র শামিমূল ইসলাম ছানা, জেলা জাসদের সাধারণ সম্পাদক আব্দুল আলীম স্বপন প্রমুখ।
মন্ত্রী এরপর সকাল সাড়ে ১১টায় কুষ্টিয়া মিরপুর উপজেলা কমপ্লেক্স ভবনের ভিস্তি প্রস্তর উদ্বোধন করেন।
পরে উপজেলা অডিটোরিয়ামে এক আলোচনা সভার আয়োজন করা হয়। এতে উপজেলা নির্বাহী অফিসার আজাদ জাহানের সভাপতিত্বে বিশেষ অতিথির বক্তব্য রাখেন মিরপুর উপজেলা চেয়ারম্যান কামারুল আরেফিন, জেলা জাসদ সভাপতি গোলাম মহসিন প্রমুখ।

এ বিভাগের অন্যান্য খবর

নোটিশ : ডেইলি সিলেটে প্রকাশিত/প্রচারিত সংবাদ, আলোকচিত্র, ভিডিওচিত্র, অডিও বিনা অনুমতিতে ব্যবহার করা বেআইনি -সম্পাদক

© সর্বস্বত্ব স্বত্বাধিকার সংরক্ষিত

২০১১-২০১৬

সম্পাদকমন্ডলীর সভাপতি : মকিস মনসুর আহমদ, প্রধান সম্পাদক : লিয়াকত শাহ ফরিদী
সম্পাদক ও প্রকাশক : কে এ রহিম, নির্বাহী সম্পাদক: মারুফ হাসান
কার্যালয়: ব্লু ওয়াটার শপিং সিটি, ৯ম তলা, জিন্দাবাজার, সিলেট-৩১০০
ফোন : ০৮২১-৭২৬ ৫২৭ (নিউজ), ০১৭১২ ৮৮ ৬৫ ০৩ (সম্পাদক)
ই-মেইল: dailysylhet@gmail.com

Developed by: