সর্বশেষ আপডেট : ৩ ঘন্টা আগে
বৃহস্পতিবার, ৮ ডিসেম্বর, ২০১৬, খ্রীষ্টাব্দ | ২৪ অগ্রহায়ণ ১৪২৩ বঙ্গাব্দ |

DAILYSYLHET

নেপালে হতাহত বাংলাদেশিদের জন্য হেল্পলাইনও খুলেছে দূতাবাস

nepal bdপ্রবাস ডেস্ক::
আজকের ঘটে যাওয়া স্মরণকালের তীব্র ভূমিকম্পে বাংলাদেশ ভারত ও নেপালে আঘাত হানে। তবে সবচেয়ে বেশি ক্ষতিগ্রস্ত হয় নেপাল। এখন পর্যন্ত নেপালে দেড়শতাধিক মানুষ নিহত হওয়ার খবর পাওয়া গেছে। বাংলাদেশিদের সহায়তা কয়েকটি হেল্পলাইনও খুলেছে নেপালে অবস্থিত বাংলাদেশ দূতাবাস। তবে এখন পর্যন্ত কোন বাংলাদেশির হতাহতের খবর পাওয়া যায়নি। তবে কারও ক্ষতিগ্রস্ত হওয়ার খবর পাওয়া গেলে অতিদ্রুত কাঠমান্ডুতে অবস্থিত বাংলাদেশ দূতাবাসকে জানাতে অনুরোধ করেছে দূতাবাস।

হেল্পলাইন নম্বরগুলো হলো- মাশফি বিনতে শামস (রাষ্ট্রদূত) +9779851039352, শামীমা চৌধুরী (প্রথম সচিব) +9779808765071, খান মোহাম্মদ মঈনুল হোসেন +9779808184014। শনিবার (২৫ এপ্রিল) দুপুরে ভূমিকম্পের পরপরই এ হেল্পলাইন খোলা হয় বলে রাষ্ট্রদূত মাশফি বিনতে শামস।

এর আগে শনিবার দুপুর ১২ টা ১৩ মিনিট থেকে দুপুর সোয়া একটা পর্যন্ত এক ঘণ্টার ব্যবধানে পাঁচ দফায় ভূমিকম্প অনুভূত হয়েছে বাংলাদেশ, ভারত ও নেপালে। সবক’টি ভূমিকম্পেরই উৎপত্তিস্থল ছিলো নেপাল।

ইউএসজিএ জানায়, প্রথম ভূমিকম্পটি অনুভূত হয় বাংলাদেশ সময় বেলা ১২টা ১৩ মিনিটে। এই ভূমিকম্পের কেন্দ্রস্থল ছিলো নেপালের পোখরায়। সেখানে রিখটার স্কেলে মাত্রা ছিলো ৭.৯। বাংলাদেশে তা অনুভূত হয় ৭.৫ মাত্রায়। একই মাত্রায় ভারতকে কাঁপিয়ে তোলে ওই প্রথম ভূমিকম্পটি। এক ঘণ্টার ব্যবধানে পাঁচ দফায় ভূমিকম্প অনুভূত হয়েছে ঢাকাসহ সারা দেশে। যা একযোগে কাঁপিয়েছে ভারত ও নেপালকেও। সবকটি ভূমিকম্পেরই উৎপত্তিস্থল ছিলো নেপাল। এ ভূমিকম্পে নেপালে জানমালের ব্যাপক ক্ষয়ক্ষতি হয়েছে বলে জানা গেছে।

এ বিভাগের অন্যান্য খবর

নোটিশ : ডেইলি সিলেটে প্রকাশিত/প্রচারিত সংবাদ, আলোকচিত্র, ভিডিওচিত্র, অডিও বিনা অনুমতিতে ব্যবহার করা বেআইনি -সম্পাদক

© সর্বস্বত্ব স্বত্বাধিকার সংরক্ষিত

২০১১-২০১৬

সম্পাদকমন্ডলীর সভাপতি : মকিস মনসুর আহমদ, প্রধান সম্পাদক : লিয়াকত শাহ ফরিদী
সম্পাদক ও প্রকাশক : কে এ রহিম, নির্বাহী সম্পাদক: মারুফ হাসান
কার্যালয়: ব্লু ওয়াটার শপিং সিটি, ৯ম তলা, জিন্দাবাজার, সিলেট-৩১০০
ফোন : ০৮২১-৭২৬ ৫২৭ (নিউজ), ০১৭১২ ৮৮ ৬৫ ০৩ (সম্পাদক)
ই-মেইল: dailysylhet@gmail.com

Developed by: