সর্বশেষ আপডেট : ১৩ মিনিট ১৯ সেকেন্ড আগে
বুধবার, ১৮ সেপ্টেম্বর ২০১৯ খ্রীষ্টাব্দ | ৩ আশ্বিন ১৪২৬ বঙ্গাব্দ |

DAILYSYLHET

কমলগঞ্জে ‘নবধারা’ শমশেরনগর-এর ঈদ আনন্দ উপহার

পিন্টু দেবনাথ, কমলগঞ্জ:: মৌলভীবাজারের কমলগঞ্জে শমশেরনগরে ব্যতিক্রমী সামাজিক সংগঠন “নবধারা” উদ্যোগে রোববার (২ জুন) দুপুর ২টায় চাতলাপুরস্থ জমজম কমিউনিটি সেন্টারে এলাকার ১০৬ জন হত দরিদ্র মানুষের মাঝে “ঈদ আনন্দ উপহার” বিতরণ করা হয়। প্রত্যেককে ১টি শাড়ী, ১টি লুঙ্গি, ১ প্যাকেট সেমাই, ১ কেজি ময়দা, ১ কেজি চিনি, ১ লিটার সয়াবিন তেল ও ১ প্যাকেট দুধ বিতরণ করা হয়। উপকারভোগী মানুষগুলোর মাঝে অত্যন্ত আনন্দ লক্ষ্য করা যায়। এলাকার অতিদরিদ্র মানুষদের সাথে ঈদের আনন্দ ভাগাভাগি করে নিতে পারায় সংস্থার সদস্যরা আনন্দিত।

সংস্থার সদস্য শওকত আলী জুয়েলের সভাপতিত্বে বিতরণকালে উপস্থিত ছিলেন শামছুল হক মিন্টু, কামরুল হাসান মারুফ, আব্দুস সামাদ সামাইদ, সমরেন্দ্র সেন শর্মা, মোস্তাফিজুর রহমান পারুল, এস এম এ মোহিন, আবু সাদাত মো: সায়েম, তরিকুজ্জামান সুমন, মুকরামিন চৌধুরী মুকুল, গোলাম রাব্বি, গোপাল বর্মা মনি, শফিউল আলম উজ্জল, আবুল বারি মনন, ফরিদুর রহমান সেলিম, মুস্তাফিজুর রহমান রাজন, আব্দুল কাদির সাজু, মোয়াজ্জেম হোসেন সানু, মাহমুদুর রহমান আলতা, হাসান আহমদ ফরিদ, পিংকি বর্মা, স্বপন কুমার। অতিথি হিসাবে উপস্থিত ছিলেন কমলগঞ্জ রিপোর্টার্স ইউনিটির সভাপতি ও কমলকুঁড়ি পত্রিকার সম্পাদক পিন্টু দেবনাথ, সাংবাদিক জয়নাল আবেদীন, আব্দুল করিম, আজমল হোসেন জুয়েল, মোস্তাফিজুর রহমান প্রমুখ।

ব্যতিক্রমী এই আয়োজনে সংস্থার সদস্যদের অর্থায়নে সাধ্যমত হত দরদ্রি মানুষের পাশে ঈদ আনন্দ উপহার প্রধান করেছেন। আগামীতে এ ধারা অব্যাহত রাখার প্রত্যাশা ব্যক্ত করেন।
উল্লেখ্য, “নবধারা” শমশেরনগর একটি ব্যতিক্রমী সামাজিক সংগঠন। এই সংগঠনের কোন সভাপতি বা সাধারণ সম্পাদক নেই। শুধু মাত্র ২১ সদস্য বিশিষ্ট কমিটি নিয়ে তাদের পথ চলা।



এ বিভাগের অন্যান্য খবর



নোটিশ : ডেইলি সিলেটে প্রকাশিত/প্রচারিত সংবাদ, আলোকচিত্র, ভিডিওচিত্র, অডিও বিনা অনুমতিতে ব্যবহার করা বেআইনি -সম্পাদক

© সর্বস্বত্ব স্বত্বাধিকার সংরক্ষিত

২০১১-২০১৭

সম্পাদকমন্ডলীর সভাপতি: মকিস মনসুর আহমদ
সম্পাদক ও প্রকাশক: খন্দকার আব্দুর রহিম, নির্বাহী সম্পাদক: মারুফ হাসান
অফিস: ৯/আই, ব্লু ওয়াটার শপিং সিটি, ৯ম তলা, জিন্দাবাজার, সিলেট।
ফোন: ০৮২১-৭২৬৫২৭, মোবাইল: ০১৭১৭৬৮১২১৪
ই-মেইল: [email protected]

Developed by: