সর্বশেষ আপডেট : ১২ মিনিট ৫ সেকেন্ড আগে
শুক্রবার, ১৯ জুলাই ২০১৯ খ্রীষ্টাব্দ | ৪ শ্রাবণ ১৪২৬ বঙ্গাব্দ |

DAILYSYLHET

‘২৭ মার্চ যৌন নির্যাতন মামলার পর ব্যবস্থা নিলে বাঁচানো যেত নুসরাতকে’

নিউজ ডেস্ক:: ২৭ মার্চ যৌন নির্যাতন মামলার পর প্রয়োজনীয় ব্যবস্থা নিলে, নুসরাতকে বাঁচানো যেত। এমনটাই মনে করে জাতীয় মানবাধিকার কমিশন। এক্ষেত্রে স্থানীয় প্রশাসন ও পুলিশ ব্যর্থ হয়েছে বলে মনে করে কমিশনের তদন্ত দল।

আর সোনাগাজী উপজেলার সাধারণ মানুষ বলছেন, রাজনৈতিক আশ্রয় পাওয়ায় ভয়াবহ হয়ে উঠেছিলো নির্যাতনকারীরা।

এদিকে রাফিকে আগুনে পুড়িয়ে মারার ঘটনায় দায়িত্বে অবহেলা পাওয়া গেলে সোনাগাজী থানার সাবেক ওসির বিরুদ্ধে ব্যবস্থা নেয়া হবে বলে জানিয়েছেন পুলিশের মহাপরিদর্শক (আইজিপি) ড. জাবেদ পাটোয়ারী।

শুক্রবার রাজধানীর মিরপুরে শহীদ পুলিশ স্মৃতি স্কুল অ্যান্ড কলেজের বার্ষিক ক্রীড়া প্রতিযোগিতার পুরস্কার বিতরণী অনুষ্ঠানে তিনি এ কথা বলেন।

আইজিপি বলেন, ‘প্রাথমিকভাবে আমরা ইতিমধ্যে ওসিকে প্রত্যাহার করে নিয়েছি। এখন তদন্ত চলমান রয়েছে। যদি তার কার্যকলাপে প্রমাণ হয় যে, মামলাটি যথাযথভাবে সামাল দিতে তিনি ব্যর্থ হয়েছেন, তাহলে আইন অনুযায়ী তার (ওসি) বিরুদ্ধে ব্যবস্থা নেয়া হবে।’

এখন পুলিশ ব্যুরো অব ইনভেস্টিগেটিভ (পিবিআই) মামলাটি তদন্ত করছে জানিয়ে তিনি আরও বলেন, এ ঘটনার সাথে জড়িতদের বিরুদ্ধে ব্যবস্থা নেয়া হবে।

অধ্যক্ষের বিরুদ্ধে আনা শ্লীলতাহানির অভিযোগ প্রত্যাহার করতে রাজি না হওয়ায় গত ৬ এপ্রিল মাদরাসার ছাদে ডেকে নিয়ে নুসরাতের গায়ে কেরোসিন ঢেলে আগুন ধরিয়ে দেয় বোরকা পরিহিত দুর্বৃত্তরা।

শরীরের ৮০ শতাংশ পুড়ে যাওয়া সোনাগাজী ইসলামিয়া সিনিয়র ফাজিল মাদরাসাছাত্রী নুসরাত বুধবার রাতে ঢাকা মেডিকেল কলেজ হাসপাতালের বার্ন ইউনিটে মারা যান।দেশব্যাপী আলোচিত এ ঘটনায় এখন পর্যন্ত ১০ জনকে গ্রেপ্তার করা হয়েছে।



এ বিভাগের অন্যান্য খবর



নোটিশ : ডেইলি সিলেটে প্রকাশিত/প্রচারিত সংবাদ, আলোকচিত্র, ভিডিওচিত্র, অডিও বিনা অনুমতিতে ব্যবহার করা বেআইনি -সম্পাদক

© সর্বস্বত্ব স্বত্বাধিকার সংরক্ষিত

২০১১-২০১৭

সম্পাদকমন্ডলীর সভাপতি: মকিস মনসুর আহমদ
সম্পাদক ও প্রকাশক: কে. এ. রাহিম. সাবলু, নির্বাহী সম্পাদক: মারুফ হাসান
অফিস: ৯/আই, ব্লু ওয়াটার শপিং সিটি, ৯ম তলা, জিন্দাবাজার, সিলেট।
ফোন: ০৮২১-৭২৬৫২৭, মোবাইল: ০১৭১৭৬৮১২১৪
ই-মেইল: [email protected]

Developed by: