সর্বশেষ আপডেট : ৩২ মিনিট ১৩ সেকেন্ড আগে
শনিবার, ২০ জুলাই ২০১৯ খ্রীষ্টাব্দ | ৫ শ্রাবণ ১৪২৬ বঙ্গাব্দ |

DAILYSYLHET

মুসলিমবিরোধী সুর চড়াচ্ছেন বিজেপি নেতারা

আন্তর্জাতিক ডেস্ক:: ভারতের আসন্ন লোকসভা নির্বাচনের সময় যত ঘনিয়ে আসছে দেশটির ক্ষমতাসীন রাজনৈতিক দল ভারতীয় জনতা পার্টির (বিজেপি) নেতারা ততই নতুন নতুন বিতর্ক উসকে দিচ্ছেন। বিশেষ করে মুসলিমবিরোধী সুর এখন বিজেপির নেতাদের কণ্ঠে অহরহই শোনা যাচ্ছে।

দেশটির কর্ণাটক প্রদেশে বিজেপির জ্যেষ্ঠ নেতা কেএস ইশ্বরাপ্পা মুসলিমবিরোধী মন্তব্য করে সমালোচনার মুখে পড়েছেন। এর আগেও বিজেপির এই নেতার বিরুদ্ধে একই ধরনের মন্তব্য করতে দেখা যায়।

কর্ণাটকে লোকসভার ২৮টি আসন রয়েছে, দুই ধাপে ১৪টি আসনে করে নির্বাচন হবে সেখানে। আাগামী ১৮ এপ্রিল প্রথম এবং ২৩ এপ্রিল দ্বিতীয় দফায় ভোটগ্রহণ অনুষ্ঠিত হবে। আগামী ২৩ মে নির্বাচনের ফল ঘোষণা করা হবে।

রাজ্যের কোপ্পালে এক সমাবেশে অংশ নিয়ে জনগণের উদ্দেশে বিজেপির জ্যেষ্ঠ নেতা কেএস ইশ্বরাপ্পা বলেন, কংগ্রেস শুধুমাত্র ভোট ব্যাংক হিসেবে আপনাদের ব্যবহার করছে, আপনাকে টিকেট দেয় না। আমরা মুসলিমদের টিকেট দেব না কারণ তারা আমাদের বিশ্বাস করে না।

তিনি বলেন, আমাদের বিশ্বাস করুন, আমরা আপনাদের টিকেট এবং অন্যান্য সবকিছুই দেব। কোপ্পালে রাজ্যের বিভিন্ন সংখ্যালঘু ও নিচু বর্ণের কুরুবা সম্প্রদায়ের লোকজনের সমাবেশে বক্তৃতা করেন।

ভারতের পিছিয়ে পড়া নিচু বর্ণ কুরুবা সম্প্রদায়ের নেতা ইশ্বরাপ্পা এর আগেও বেশ কয়েকবার মুসলিমবিরোধী মন্তব্য করেছিলেন।

গত বছরের জানুয়ারিতে তিনি বলেছিলেন, যে মুসলিমরা কংগ্রেসের সঙ্গে আছেন, তারা খুনি। কিন্তু ভারতীয় জনতা পার্টির সঙ্গে যাদের সম্পর্ক আছে তারা ভালো মুসলিম।

কর্ণাটকের সাবেক এই মুখ্যমন্ত্রী বলেন, রাষ্ট্রীয় স্বয়ংসেবক (আরএসএস) ও বিজেপির ২২ কর্মীকে কংগ্রেসের সহায়তায় মুসলিমরা হত্যা করেছিল। ভালো মুসলিমরাই বিজেপি করেন। খুনি মুসলিমরা কংগ্রেস করেন।

সূত্র : দ্য হিন্দুস্তান টাইমস।



নোটিশ : ডেইলি সিলেটে প্রকাশিত/প্রচারিত সংবাদ, আলোকচিত্র, ভিডিওচিত্র, অডিও বিনা অনুমতিতে ব্যবহার করা বেআইনি -সম্পাদক

© সর্বস্বত্ব স্বত্বাধিকার সংরক্ষিত

২০১১-২০১৭

সম্পাদকমন্ডলীর সভাপতি: মকিস মনসুর আহমদ
সম্পাদক ও প্রকাশক: কে. এ. রাহিম. সাবলু, নির্বাহী সম্পাদক: মারুফ হাসান
অফিস: ৯/আই, ব্লু ওয়াটার শপিং সিটি, ৯ম তলা, জিন্দাবাজার, সিলেট।
ফোন: ০৮২১-৭২৬৫২৭, মোবাইল: ০১৭১৭৬৮১২১৪
ই-মেইল: [email protected]

Developed by: