সর্বশেষ আপডেট : ৩ মিনিট ৪৭ সেকেন্ড আগে
মঙ্গলবার, ১৭ সেপ্টেম্বর ২০১৯ খ্রীষ্টাব্দ | ২ আশ্বিন ১৪২৬ বঙ্গাব্দ |

DAILYSYLHET

‘সিলেট ঘিরে ভারতের সাত রাজ্যের সাথে বাণিজ্যের প্রচুর সম্ভাবনা রয়েছে’

ডেইলি সিলেট ডেস্ক :: সিলেট ঘিরে ভারতের উত্তর-পূর্বাঞ্চলের সাত রাজ্যের সাথে বাংলাদেশের বাণিজ্যের প্রচুর সম্ভাবনা রয়েছে বলে জানিয়েছেন সিলেটে নিযুক্ত দেশটির সহকারি হাই-কমিশনার এল. ‍কৃষ্ণামূর্তি।

রোববার সিলেট চেম্বার অব কমার্স এন্ড ইন্ডাস্ট্রির সভাপতি খন্দকার সিপার আহমদের সাথে সৌজন্য সাক্ষাতে তিনি এ কথা বলেন। নগরীর জেলরোডে চেম্বার ভবনে সাক্ষাতে মিলিত হন তারা।

তিনি বাংলাদেশ ও ভারতের চমৎকার বাণিজ্য সম্পর্কের কথা উল্লেখ করে আরও বলেন, সিলেটকে ব্যবহার করে ভারতের সেভেন সিস্টারের সাথে বাণিজ্য সম্পর্কে বিশেষ করে পর্যটন খাতে যৌথ বিনিয়োগ উভয় দেশের বিনিয়োগকারীরা লাভবান হবেন।

সিলেটে ভারতের সহকারি হাই-কমিশনের কার্যক্রম শুরু হওয়ার পর ভারত গমনেচ্ছু এখান থেকেই সিলেটের যাত্রীদের এখান থেকেই ভিসা প্রদান করা হচ্ছে বলেও জানান সহকারি হাই-কমিশনার এল. ‍কৃষ্ণামূর্তি।

সিলেট চেম্বারের সভাপতি খন্দকার সিপার আহমদ বলেন, ‘সিলেটে ভারতীয় সহকারী হাই কমিশন স্থাপিত হওয়ায় সিলেটের ব্যবসায়ীদের কষ্ট অনেকটা লাঘব হয়েছে।’

তিনি সৌজন্য সাক্ষাতে মিলিত হওয়ার জন্য সহকারী হাই কমিশনার এল. কৃষ্ণমূর্তিকে ধন্যবাদ জানিয়ে বলেন, ভারত বাংলাদেশের উন্নয়ন সহযোগী রাষ্ট্র। দুই দেশের মধ্যে প্রতি বছর বিপুল পরিমান আমদানী-রপ্তানী বাণিজ্য হয়ে থাকে। যা দুই দেশের অর্থনীতিকে সমৃদ্ধ করছে।

তিনি ভারত ও বাংলাদেশের মধ্যে বাণিজ্য সম্পর্ক বৃদ্ধিতে সহকারী হাই কমিশনের যেকোন কার্যক্রমে সিলেট চেম্বারের পক্ষ থেকে সার্বিক সহযোগিতার আশ্বাস প্রদান করেন।

এসময় সিলেট চেম্বারের সহ সভাপতি মোঃ এমদাদ হোসেন, পরিচালক মুশফিক জায়গীরদার ও ভারতীয় সহকারী হাই কমিশনের এটাচি মিঃ সঞ্জীব কুমার উপস্থিত ছিলেন।



এ বিভাগের অন্যান্য খবর



নোটিশ : ডেইলি সিলেটে প্রকাশিত/প্রচারিত সংবাদ, আলোকচিত্র, ভিডিওচিত্র, অডিও বিনা অনুমতিতে ব্যবহার করা বেআইনি -সম্পাদক

© সর্বস্বত্ব স্বত্বাধিকার সংরক্ষিত

২০১১-২০১৭

সম্পাদকমন্ডলীর সভাপতি: মকিস মনসুর আহমদ
সম্পাদক ও প্রকাশক: খন্দকার আব্দুর রহিম, নির্বাহী সম্পাদক: মারুফ হাসান
অফিস: ৯/আই, ব্লু ওয়াটার শপিং সিটি, ৯ম তলা, জিন্দাবাজার, সিলেট।
ফোন: ০৮২১-৭২৬৫২৭, মোবাইল: ০১৭১৭৬৮১২১৪
ই-মেইল: [email protected]

Developed by: