সর্বশেষ আপডেট : ২ মিনিট ৪৩ সেকেন্ড আগে
মঙ্গলবার, ২৬ মার্চ ২০১৯ খ্রীষ্টাব্দ | ১২ চৈত্র ১৪২৫ বঙ্গাব্দ |

DAILYSYLHET

বধূবেশে বেঁচে থাকার স্বপ্ন দেখাচ্ছেন ক্যান্সারজয়ী এই তরুণী –

ডেইলি সিলেট ডেস্ক:: ক্যান্সার মানেই যেন নিশ্চিত মৃত্যু। কিন্তু সবার ধারণা ভুল প্রমাণ করে ক্যান্সারকে জয় করেছেন তিনি। দিব্যি সুস্থও হয়ে উঠেছেন। আর দশটা মেয়ের মতো বিয়েতেও কনের সাজে ফটোশ্যুট করেছেন।

মাথায় চুল নেই বললেই চলে। তবুও বিয়ের সাজে অসাধারণ হয়ে উঠেছেন নাভি ইন্দ্রান পিল্লাই। তার বিয়ের এসব ছবি ইনস্টাগ্রামে ঝড় তুলেছে। তিনি নিজের এই সাহসী এবং অনুপ্রেরণামূলক ফটোশ্যুটের নাম দিয়েছেন ‘বোল্ড ইন্ডিয়ান ব্রাইড’।

তার এসব ছবিতে একই সঙ্গে তাকে লাজুক নববধূ হিসেবে যেমন দেখা গেছে তেমনি তিনি এটাও দেখিয়েছেন যে, কিভাবে একজন ক্যান্সারজয়ী এই রোগের সঙ্গে যুদ্ধ করতে করতে নিজের পরিবর্তনটা গ্রহণ করছে। ক্যান্সার হয়তো শরীরের স্বাভাবিক সৌন্দয্য নষ্ট করে দিতে পারে। কিন্তু সাহসের সঙ্গে সেই পরিবর্তনটাকেই স্বাভাবিকভাবে গ্রহণ করে জীবনকে আরও সুন্দর করে তোলা যায়।

ইন্সটাগ্রামে নাভি ইন্দ্রান পিল্লাই নামে বেশি পরিচিত হলেও তার আসল নাম বৈষ্ণবী পোভানেন্দ্রান। ইন্সটাগ্রামে তার ‘দ্য বোল্ড ইন্ডিয়ান ব্রাইড’ নামে বিয়ের ফটোশ্যুটে তোলা ছবিগুলো ইতোমধ্যেই ভাইরাল হয়ে গেছে। তিনি ভারতীয় বংশোদ্ভূত মালয়েশিয়ান নাগরিক।

বৈষ্ণবী পোভানেন্দ্রানের মতে, ক্যান্সার অনেক নারীর সৌন্দর্য্য কেড়ে নিচ্ছে। একজন নারীর জন্য তার জীবনের একটি গুরুত্বপূর্ণ দিন তার বিয়ের দিন। এই দিনটিকে ঘিরে প্রত্যেক নারীরই অনেক ধরনের ভাবনা-চিন্তা থাকে। সব নারীই চান এই বিশেষ দিনে তাকে সবচেয়ে সুন্দর দেখাক। কিন্তু ক্যান্সার অনেক সময় এই বিশেষ দিনের ভালো মুহূর্তগুলোও কেড়ে নেয়। ফলে অনেক নারীর মনেই এ নিয়ে দু:খ থেকে যায়।

বৈষ্ণবী পোভানেন্দ্রান এই ফটোশ্যুটের মাধ্যমে ক্যান্সারজয়ীদের এটা বোঝাতে চেয়েছেন যে, তারাও সাহসী এবং সুন্দর। ক্যান্সার তাদের সৌন্দর্য্য ম্লান করতে পারেনি। তিনি চেয়েছেন তার এসব ছবি দেখে ক্যান্সারজয়ী অন্য নারীরাও সাহসী হয়ে উঠুন। তারা যেমন তেমনটাই নিজেদের সৌন্দর্য্য হিসেবে গ্রহণ করুন। কারণ প্রত্যেকেরই আলাদা আলাদা সৌন্দর্য্য রয়েছে।

সামাজিক মাধ্যমে এক পোস্টে ব্রেস্ট ক্যান্সারজয়ী বৈষ্ণবী পোভানেন্দ্রান বলেন, ক্যান্সারের চিকিৎসা নিতে গিয়ে আমাদের জীবনে অনেক ধরনে সীমাবদ্ধতা চলে আসে, এটা আমাদের সৌন্দর্য্য হরণ করে এবং আমাদের আত্মবিশ্বাস কেড়ে নেয়। একজন নারী ছোটবেলা থেকেই তার বিয়ের দিন নিয়ে অনেক স্বপ্ন দেখেন। এই দিনটি কেমন হবে, বউ সাজলে তাকে কেমন দেখাবে এমন নানা ধরনের চিন্তা মাথায় আসে। কিন্তু ক্যান্সারে আক্রান্ত হলে আমাদের অনেকেরই এই সুন্দর স্বপ্নগুলো হারিয়ে যায়। তিনি বলেন, অনেক ক্ষেত্রেই দেখা গেছে ক্যান্সার থেকে বেঁচে গেলেও অনেকেই তাদের বিয়ের তারিখ পিছিয়ে দেন বা বিয়েই ভেঙে দেন।

পোভানেন্দ্রান জানিয়েছেন, এর আগেও একবার তিনি ক্যান্সারে আক্রান্ত হয়েছিলেন। তিনি ভেবেছিলেন ক্যান্সার থেকে বেঁচে গেছেন। কিন্তু সুস্থ হওয়ার পাঁচ বছর পর আবারও তার ক্যান্সার ফিরে আসে। তার লিভার এবং মেরুদণ্ডেও ক্যান্সারের ভাইরাস ছড়িয়ে পড়ে। তবে অনেকগুলো কেমোথেরাপি দেয়ার পর ২০১৮ সালের ডিসেম্বরে তিনি আবারও ক্যান্সারকে হারিয়ে সুস্থ হয়ে ওঠেন। তবে এই লড়াইটা মোটেও সহজ ছিল না। কিন্তু এটা তার সাহস আর আত্মবিশ্বাসকে দমিয়ে রাখতে পারেনি।

পোভানেন্দ্রান একজন মোটিভেশনাল স্পিকার এবং নৃত্য শিল্পীও। এক পোস্টে তিনি বলেন, আমি একজন ক্যান্সারজয়ী। আমিও নিজের ভালোবাসার মানুষকে বিয়ে করার দিনটি নিয়ে স্বপ্ন দেখেছি। আমিও স্বপ্ন দেখেছি বউ সাজে আমাকে কেমন লাগবে, বউ হিসেবে কেমন অনুভূতি হয়।

তিনি আরও বলেন, ক্যান্সারের চিকিৎসা করাতে গিয়ে, বিশেষ করে কেমোথেরাপির সময় আমার চুল পড়ে যাচ্ছিল। এমনকি চোখের পাপড়ি এবং ভ্রুও ঝড়ে যাচ্ছিল। এটা আমার জন্য সবচেয়ে কঠিন সময় ছিল। আমার মনে হচ্ছিল আমাকে ভালোবাসার মতো বা আমার দিকে তাকানোর মতো অথবা বউ সাজে দেখার মতো আমি আর যথেষ্ট সুন্দরী নই।

ক্যান্সার আমাদের কাছ থেকে যা কেড়ে নিয়েছে তা মেনে নেয়া যায় না। তবে আমাদের যা আছে আমাদের তাই গ্রহণ করা উচিত। আমরা যা সেটাকেই প্রশংসা করা উচিত এবং যা হবে সেটাইকেই স্বাগত জানাতে হবে।

তবে ক্যান্সারের সঙ্গে লড়াই শেষে লাল রংয়ের শাড়ি, হাতে-পায়ে মেহেদি, গায়ে বিয়ের গহনা, মাথায় সাদা ঘোমটায় অপরূপা হয়ে উঠেছিলেন পোভানেন্দ্রান। বিয়ের সাজে পোভানেন্দ্রানের ওপর থেকে যেন চোখ ফেরানো যাচ্ছিল না। তার বিয়ের এসব ছবি তুলেছেন ফটোগ্রাফার ছেলেস জেরার্ড।

ক্যান্সারজয়ীদের জন্য একটি বার্তা দিয়েছেন পোভানেন্দ্রান। তিনি বলেছেন, ক্যান্সার আমাদের জীবনে অনেক ধরনের প্রভাব ফেলছে। কিছু হয়তো ভালো আবার কিছু খারাপ। কিন্তু ক্যান্সারকে আমাদের জীবনের নিয়ন্ত্রণ নিতে দেয়া যাবে না। আমরা সেটা হতে দেব না।

অনলাইনে ভাইরাল হওয়া পোভানেন্দ্রানের ছবিগুলো অনেক নারীর জন্যই প্রেরণা হিসেবে কাজ করবে। তার এমন কাজের প্রশংসা করছেন সবাই। সামাজিক মাধ্যমে একজন মন্তব্য করেছেন, এমন সাহসী থাকুন এবং আপনার হাসি আর উচ্ছ্বাসের মাঝে ক্যান্সারকে প্রতি নিয়ত হেরে যেতে দেখুন। অন্য একজন মন্তব্য করেছেন, আপনি খুব সুন্দর। সবাইকে এমন অনুপ্রেরণা দেয়ার জন্য আপনাকে ধন্যবাদ। ঈশ্বর আপনার মঙ্গল করুন।




এ বিভাগের অন্যান্য খবর




নোটিশ : ডেইলি সিলেটে প্রকাশিত/প্রচারিত সংবাদ, আলোকচিত্র, ভিডিওচিত্র, অডিও বিনা অনুমতিতে ব্যবহার করা বেআইনি -সম্পাদক

© সর্বস্বত্ব স্বত্বাধিকার সংরক্ষিত

২০১১-২০১৭

সম্পাদকমন্ডলীর সভাপতি: মকিস মনসুর আহমদ
সম্পাদক ও প্রকাশক: কে এ রহিম সাবলু, নির্বাহী সম্পাদক: মারুফ হাসান
অফিস: ৯/আই, ব্লু ওয়াটার শপিং সিটি, ৯ম তলা, জিন্দাবাজার, সিলেট।
ফোন: ০৮২১-৭২৬৫২৭, মোবাইল: ০১৭১৭৬৮১২১৪ (নিউজ) ০১৭১২৮৮৬৫০৩ (সম্পাদক)
ই-মেইল: dailysylhet@gmail.com

Developed by: