সর্বশেষ আপডেট : ৬ ঘন্টা আগে
মঙ্গলবার, ২৬ মার্চ ২০১৯ খ্রীষ্টাব্দ | ১২ চৈত্র ১৪২৫ বঙ্গাব্দ |

DAILYSYLHET

ইটভাটা বন্ধে শীঘ্রই নতুন আইন প্রণয়ন করছে বর্তমান সরকার : সিলেটে বনমন্ত্রী

নিজস্ব প্রতিবেদক ::
পরিবেশ ও বনমন্ত্রী শাহাব উদ্দিন বলেছেন, পরিবেশকে দূষণের হাত থেকে রক্ষা করতে ক্ষতিকর ইটভাটা বন্ধে শীঘ্রই নতুন আইন প্রণয়ন করছে বর্তমান সরকার। আগামীকাল রোববার সংসদে আইনটি তোলা হতে পারে। রোববারই ইট-ভাটা সংক্রান্ত নতুন আইনটি সংসদে পাস হবে বলে মন্ত্রী আশাবাদ ব্যক্ত করেন। তিনি আজ শনিবার সকালে সিলেটের টিলাগড়স্থ বন্যপ্রানী সংরক্ষণ কেন্দ্র পরিদর্শন শেষে সিলেট বন বিভাগ ও পরিবেশ অধিদপ্তরের যৌথ উদ্যোগে আয়োজিত মতবিনিময় সভায় প্রধান অতিথির বক্তব্যে এসব কথা বলেন।

মন্ত্রী হুশিয়ারি দিয়ে বলেন, পরিবেশ বিধ্বংসী বালু ও পাথর কাটার মেশিন ‘বোমা মেশিন’ বন্ধে কঠোর হতে হবে। এ বিষয়ে তিনি সিলেট বন বিভাগ ও পরিবেশ অধিদপ্তর কর্মকর্তাবৃন্দকে কঠোর হবার নির্দেশ দিয়েছেন। তিনি বলেন, পরিবেশ সংরক্ষণে অবৈধ বোমা মেশিন দিয়ে পাথর উত্তোলন, পাহাড় কর্তন ও বালু উত্তোলন বন্ধে সরকার যতো কঠোর হওয়া প্রয়োজন ততোটুকু কঠোর হবে।

তবে তিনি আশাবাদ ব্যাক্ত করে বলেন, বাংলাদেশের ঢাকাসহ অন্যান্য অঞ্চল থেকে সিলেট অনেকাংশে বায়ুদূষণ মুক্ত এবং সিলেটের পরিবেশও অন্যান্য এলাকার চেয়ে তুলনামূলকভাবে ভালো।

তিনি সিলেটবাসীসহ দেশবাসীকে বন রক্ষায় গাছ লাগানোর অনুরোধ জানানিয়ে বলেন, প্রাকৃতিক সৌন্দর্যে ভরপুর সিলেটকে পর্যটন ক্ষেত্রে এগিয়ে নিতে বন ও পরিবেশ খাতে জনবল নিয়োগ, পদোন্নতি প্রদান এবং ডিপ্লোমা স্কেল করা হবে। সকলের উদ্দেশ্যে তিনি বলেন, সিলেট তথা সারা বাংলাদেশকে এগিয়ে নিতে ব্যপক পরিমাণ গাছ লাগাতে হবে। বনকে রক্ষা করতে হবে। বনায়নের মাধ্যমেই সুস্থ থাকবে আমাদের পরিবেশ।

সিলেটের ইকোপার্কে প্রাণীর সংখ্যা নগন্য উল্লেখ করে মন্ত্রী এখানে বাঘ-হাতি-ভালুকসহ আরো প্রচুর পরিমাণ হরিণ ও অন্যান্য প্রজাতির পাখি নিয়ে আসতে কর্মকর্তাদের আহবান জানান। এতে দর্শনার্থীদের সংখ্যা বৃদ্ধি পাবে এবং তারা সন্ত্বষ্ট হবেন বলে উল্লেখ করেন মন্ত্রী। এ বিষয়ে মন্ত্রী সহযোগিতার আশ্বাস প্রদান করেন। ইকোপার্কের রাস্থার প্রশস্থকরণসহ অন্যান্য সমস্যার সমাধানেও সহযোগিতা করবেন বলে জানিয়েছেন মন্ত্রী।

সিলেট বন বিভাগের কর্মকর্তা মনিরুল ইসলাম এবং পরিবেশ অধিদপ্তরের ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা আলতাফ হোসেনের যৌথ পরিচালনায় বিশেষ অথিতি হিসেবে উপস্থিত ছিলেন সিসিকের ২০ নং ওয়ার্ডের কাউন্সিলর আজাদুর রহমান আজাদ। এছাড়া উপস্থিত ছিলেন সিলেট বিভাগের বিভিন্ন রেঞ্জ এবং বিটের কর্মকর্তা ও কর্মচারীবৃন্দ।




এ বিভাগের অন্যান্য খবর




নোটিশ : ডেইলি সিলেটে প্রকাশিত/প্রচারিত সংবাদ, আলোকচিত্র, ভিডিওচিত্র, অডিও বিনা অনুমতিতে ব্যবহার করা বেআইনি -সম্পাদক

© সর্বস্বত্ব স্বত্বাধিকার সংরক্ষিত

২০১১-২০১৭

সম্পাদকমন্ডলীর সভাপতি: মকিস মনসুর আহমদ
সম্পাদক ও প্রকাশক: কে এ রহিম সাবলু, নির্বাহী সম্পাদক: মারুফ হাসান
অফিস: ৯/আই, ব্লু ওয়াটার শপিং সিটি, ৯ম তলা, জিন্দাবাজার, সিলেট।
ফোন: ০৮২১-৭২৬৫২৭, মোবাইল: ০১৭১৭৬৮১২১৪ (নিউজ) ০১৭১২৮৮৬৫০৩ (সম্পাদক)
ই-মেইল: dailysylhet@gmail.com

Developed by: