সর্বশেষ আপডেট : ৩৭ মিনিট ১৯ সেকেন্ড আগে
সোমবার, ২১ জানুয়ারী ২০১৯ খ্রীষ্টাব্দ | ৮ মাঘ ১৪২৫ বঙ্গাব্দ |

DAILYSYLHET

বিরোধী দল হতে চায় না জাতীয় পার্টি

নিউজ ডেস্ক:: এইচ এম এরশাদের নেতৃত্বাধীন জাতীয় পার্টির নবনির্বাচিত সংসদ সদস্যগণ মহাজোটের হয়ে সরকারি দলে থাকতে চান। কোনো ভাবেই তারা গতবারের মত বিরোধী দলের ভূমিকা পালন করতে চান না। বৃহস্পতিবার দুপুরে সংসদে এক রুদ্ধদ্বার বৈঠকে জাপার প্রায় সব সাংসদই সরকারে থাকার পক্ষে অভিমত দেন। বৈঠকে সভাপতিত্ব করেন বিরোধী দলের নেতা ও জাতীয় পার্টির কো-চেয়ারম্যান রওশন এরশাদ।

বৈঠকে উপস্থিত জাপা সাংসদ সৈয়দ আবু হোসেন বাবলা জানান, আওয়ামী লীগ, জাতীয় পার্টিসহ আমরা সবাই এখন মহাজোটের এমপি। জনগণও আমাদের মহাজোটের প্রার্থী হিসেবে সবাইকে ভোট দিয়ে নির্বাচিত করেছে। তাই সবাই মহাজোটে থাকবো, সবাই মিলে দেশ ও জাতির জন্য কাজ করবো।

তিনি জানান, বিরোধী দলে নয়, মহাজোটে থাকার সিদ্ধান্ত হয়েছে বৈঠকে।তবে সবকিছুই মাননীয় প্রধানমন্ত্রীর এখতিয়ার।জানা গেছে, একাদশ সংসদে জাতীয় পার্টির ভূমিকা কী হবে- তা নির্ধারণে জাপার নব নির্বাচিত সাংসদগণ দলের জ্যেষ্ঠনেতা রওশন এরশাদের নেতৃত্বে সংসদে রুদ্ধদ্বার বৈঠকে মিলিত হন। দলের চেয়ারম্যান হুসেইন মুহম্মদ এরশাদ ছাড়া বাকী সব সাংসদ উপস্থিত ছিলেন।

বৈঠকে দলের কো চেয়ারম্যান জিএম কাদের এমপি, ব্যারিস্টার আনিসুল ইসলাম মাহমুদ এমপি, কাজী ফিরোজ রশীদ এমপি, দলের মহাসচিব মশিউর রহমান রাঙ্গা এমপি, ফখরুল ইমাম এমপি, সৈয়দ আবু হোসেন বাবলা এমপি, মুজিবুল হক চুন্নু এমপিসহ প্রায় ১৬জন সাংসদ বক্তব্য রাখেন। তাদের সবাই মহাজোটে থাকার বিষয়ে অভিন্ন সুরে কথা বলেন। মহাজোটের অংশ হিসেবে জাতীয় পার্টি মহাজোটেই থাকবে এমন অভিমত দেন।

নব নির্বাচিত সংসদ সদস্যদের কথা মনযোগ দিয়ে শুনেন রওশন এরশাদ। তাদের বক্তব্যের সঙ্গে একমত পোষণও করেন তিনি। সবার সম্মতিতে শেষ পর্যন্ত মহাজোটে থাকার বিষয়ে সিদ্ধান্ত হয় বৈঠকে। সিদ্ধান্তের বিষয়টি মহাজোটের শীর্ষনেতাদেরও জানিয়ে দেওয়া হবে। সরকারে নাকি বিরোধী দলে এ নিয়ে মহাজোটের শীর্ষনেতাদের সঙ্গে জাপার শীর্ষনেতাদের বৈঠকের কথা রয়েছে।সেখানে আলোচনার পর চূড়ান্ত হবে আসলে জাতীয় পার্টি একাদশ সংসদে সরকারে থাকছে নাকি বিরোধী দলে।

বৈঠক শেষে জাপার মহাসচিব মশিউর রহমান রাঙ্গা সাংবাদিকদের বলেন, আমরা মহাজোটগতভাবে নির্বাচন করেছি। তাই সব এমপিই সরকারের সাথে থাকতে চান।তাহলে কি সংসদে বিরোধী দল থাকবে না? এমন প্রশ্নের জবাবে তিনি বলেন, জনগণই তো বিরোধী দল চায়নি। উন্নয়নের স্বার্থে জনগণই মহাজোটকে ২৯২ আসনে ভোট দিয়ে নিরঙ্কুশভাবে বিজয়ী করেছে। তবে আমরা মহাজোটে থাকবো নাকি বিরোধী দল হবো-এ ব্যাপারে মহাজোটের মহানেত্রী শেখ হাসিনা চূড়ান্ত সিদ্ধান্ত নেবেন।

বৈঠকে বরিশাল-২ আসনের এমপি গোলাম কিবরিয়া টিপু (জাপার উম্মুক্ত প্রার্থী), ফেনী-৩ আসনের এমপি মাসুদ উদ্দিন চৌধুরী, বরিশাল-৬ আসনের এমপি রত্না আমিন হাওলাদার, নারায়ণগঞ্জ-৩ আসনের এমপি লিয়াকত হোসেন খোকা, নারায়ণগঞ্জ-৫ আসনের এমপি সেলিম ওসমান, বগুড়া-২ আসনের এমপি শরিফুল ইসলাম জিন্নাহ, নীলফামারী-৩ আসনের এমপি রানা মোহাম্মদ সোহেল, নীলফামারী-৪ আসনের এমপি আহসান আদেলুর রহমান, কুড়িগ্রাম-২ আসনের এমপি পনিরউদ্দিন আহমেদ, গাইবান্ধা-১ আসনের এমপি ব্যারিস্টার শামীম হায়দার পাটোয়ারী, পিরোজপুর-৩ আসনের এমপি রুস্তম আলী ফরাজী, সুনামগঞ্জ-৪ আসনের এমপি পীর ফজলুর রহমান, বগুড়া-৩ আসনের এমপি নুরুল ইসলাম তালুকদার প্রমুখ উপস্থিত ছিলেন।




এ বিভাগের অন্যান্য খবর




নোটিশ : ডেইলি সিলেটে প্রকাশিত/প্রচারিত সংবাদ, আলোকচিত্র, ভিডিওচিত্র, অডিও বিনা অনুমতিতে ব্যবহার করা বেআইনি -সম্পাদক

© সর্বস্বত্ব স্বত্বাধিকার সংরক্ষিত

২০১১-২০১৭

সম্পাদকমন্ডলীর সভাপতি: মকিস মনসুর আহমদ
সম্পাদক ও প্রকাশক: কে এ রহিম সাবলু, নির্বাহী সম্পাদক: মারুফ হাসান
অফিস: ৯/আই, ব্লু ওয়াটার শপিং সিটি, ৯ম তলা, জিন্দাবাজার, সিলেট।
ফোন: ০৮২১-৭২৬৫২৭, মোবাইল: ০১৭১৭৬৮১২১৪ (নিউজ) ০১৭১২৮৮৬৫০৩ (সম্পাদক)
ই-মেইল: dailysylhet@gmail.com

Developed by: