সর্বশেষ আপডেট : ১ ঘন্টা আগে
বুধবার, ১৪ নভেম্বর ২০১৮ খ্রীষ্টাব্দ | ৩০ কার্তিক ১৪২৫ বঙ্গাব্দ |

DAILYSYLHET

২ বছর ধরে লিভ টুগেদার, নায়ক-নায়িকা ধরা

নিউজ ডেস্ক:: কিশোরগঞ্জের ভৈরব উপজেলায় স্বামী-স্ত্রী পরিচয়ে দীর্ঘ দুই বছর ধরে লিভ টুগেদার ও অসামাজিক কার্যকলাপের অভিযোগে নায়ক-নায়িকাকে গ্রেফতার করেছে পুলিশ।

গ্রেফতারকৃত নায়কের নাম নাহিদ চৌধুরী (৩০)। তিনি নরসিংদীর রায়পুরা উপজেলার বাঁশগাড়ি গ্রামের সাখাওয়াত হোসেনের ছেলে। নায়িকার নাম রুমানা (২৭)। তিনি ময়মনসিংহ জেলার ফুলপুর উপজেলার বাহাদুরপুর গ্রামের রমজান মিয়ার মেয়ে। তারা দুইজন নাটক ও সিনেমায় কাজ করেন।

পুলিশ জানায়, তারা দুইজন দীর্ঘ দুই বছর ধরে স্বামী-স্ত্রী পরিচয়ে ভৈরবে বাসা ভাড়া নিয়ে লিভ টুগেদার করছেন। পাশাপাশি দুইজন নাটক ও সিনেমায় কাজ করছেন। মঙ্গলবার রাতে গোপন সংবাদের ভিত্তিতে শহরের নিউ টাউনের একটি বাসায় অভিযান চালিয়ে তাদের গ্রেফতার করা হয়।

গ্রেফতারের পর তারা পুলিশের কাছে স্বীকার করেছেন বিয়ে না করে দুই বছর ধরে লিভ টুগেদার করছেন তারা। পরিচয় গোপন করে বাড়ির মালিককে স্বামী-স্ত্রী পরিচয় দিয়েছেন। গ্রেফতারের পর তারা বিয়ে করবেন বলে পুলিশকে জানান।

এরপর তাদের বাড়িতে খবর দেয়া হয়। খবর পেয়ে নায়ক নাহিদের বাবা-মা ভৈরব থানায় আসেন। কিন্তু ছেলের বিয়েতে আপত্তি জানান নাহিদের বাবা-মা। কারণ নাহিদের বাবা-মা জানতে পেরেছেন, নায়িকা রুমানার আগে বিয়ে হয়েছিল। আগের স্বামীকে তালাক দিয়ে পরিবার থেকে বিচ্ছিন্ন হয়ে নাটক-সিনেমা এবং মডেল হিসেবে কাজ করছেন রুমানা। তাই তারা এই বিয়েতে আপত্তি তোলেন।

এদিকে, নায়িকা রুমানার পরিবারকে খবর দিলেও কেউ থানায় আসেনি। দিনভর দুই পরিবারের সঙ্গে আলোচনা করে কোনো সিদ্ধান্ত না হওয়ায় তাদের কিশোরগঞ্জ আদালতে চালান দেয়া হয়।

স্থানীয় সূত্র জানায়, নায়ক-নায়িকা গ্রেফতারের বিষয়টি এলাকায় ছড়িয়ে পড়লে থানায় ভিড় জমান এলাকাবাসী। আদালতে নেয়ার আগ পর্যন্ত তাদের দেখতে থানার আশপাশে অবস্থান করেছিল অনেক মানুষ।

ভৈরব থানা পুলিশের ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা (ওসি) মো. মোখলেছুর রহমান বলেন, তারা দুইজনই অভিনয় শিল্পী। নাটক ও সিনেমায় কাজ করেন। বিয়ে না করে দুই বছর ধরে লিভ টুগেদার করছেন এই নায়ক-নায়িকা। খবর পেয়ে অভিযান চালিয়ে তাদের দুইজনকে গ্রেফতার করে পুলিশ। দুপুরে তাদের আদালতে চালান দেয়া হয়।

ওসি আরও বলেন, গ্রেফতারের পর তারা জানিয়েছেন দুইজনের সম্মতিতে দীর্ঘদিন অবৈধভাবে বসবাস করেছেন। কাজেই তাদের বিষয়টি আমরা মীমাংসা করতে পারব না বলে আদালতে পাঠিয়ে দিয়েছি।




নোটিশ : ডেইলি সিলেটে প্রকাশিত/প্রচারিত সংবাদ, আলোকচিত্র, ভিডিওচিত্র, অডিও বিনা অনুমতিতে ব্যবহার করা বেআইনি -সম্পাদক

© সর্বস্বত্ব স্বত্বাধিকার সংরক্ষিত

২০১১-২০১৭

সম্পাদকমন্ডলীর সভাপতি: মকিস মনসুর আহমদ
সম্পাদক ও প্রকাশক: কে এ রহিম সাবলু, নির্বাহী সম্পাদক: মারুফ হাসান
অফিস: ৯/আই, ব্লু ওয়াটার শপিং সিটি, ৯ম তলা, জিন্দাবাজার, সিলেট।
ফোন: ০৮২১-৭২৬৫২৭, মোবাইল: ০১৭১৭৬৮১২১৪ (নিউজ) ০১৭১২৮৮৬৫০৩ (সম্পাদক)
ই-মেইল: dailysylhet@gmail.com

Developed by: