সর্বশেষ আপডেট : ১ ঘন্টা আগে
রবিবার, ২১ এপ্রিল ২০১৯ খ্রীষ্টাব্দ | ৮ বৈশাখ ১৪২৬ বঙ্গাব্দ |

DAILYSYLHET

সিলেটে শামীমের বাসায় পুলিশ, ডা. শাহরিয়ার ও কয়েস লোদীসহ ২০-২৫ জন নেতাকর্মীকে আটক

ডেস্ক রিপোর্ট:: সিলেট জেলা বিএনপির সভাপতি আবুল কাহের শামীমের যতরপুরস্থ বাসা ঘিরে রেখেছে পুলিশ। মঙ্গলবার রাত ৮টার দিকে ওই বাসার বাইরে পুলিশ অবস্থান নিয়েছে বলে জানা গেছে। বাসার সামনে থেকে ৬ নেতাকর্মীকে এবং উপশহর থেকে ৬ ছাত্রদল নেতাকর্মীসহ নগরীর বিভিন্ন স্থান থেকে ২০-২৫ জন নেতাকর্মীকে আটক করা হয়েছে বলে দাবি করেছে বিএনপি।

আটককৃতদের মধ্যে বিএনপির কেন্দ্রীয় নির্বাহী সদস্য ডা. শাহরিয়ার হোসেন চৌধুরী ও মহানগর বিএনপির সভাপতি কাউন্সিলর রেজাউল হাসান কয়েস লোদী রয়েছেন। তবে আটকের বিষয়টি জানেন না বলে জানিয়েছেন মহানগর পুলিশের অতিরিক্ত উপ-কমিশনার জ্যোতির্ময় সরকার। তিনি বলেন, ‘বিষয়টি খোঁজ নিয়ে দেখতে হবে।’ তবে নগর পুলিশের কোতোয়ালী থানার ওসি মোহাম্মদ সেলিম মিয়া বলেন, ‘পুলিশের নিয়মিত অভিযান চলছে।’

সিলেট জেলা বিএনপির সাধারণ সম্পাদক আলী আহমদ বলেন, ‘আবুল কাহের শামীমের বাসায় বিএনপির স্থায়ী কমিটির সদস্য গয়েশ্বর চন্দ্র রায়সহ কেন্দ্রীয় নেতাদের সাথে আমরা আছি। পুলিশ বাসা ঘিরে রেখে আমাদেরকে অবরুদ্ধ করে রেখেছে।’

তিনি বলেন, ‘ডা. শাহরিয়ার ও কয়েস লোদীসহ ৬ জনকে কাহের শামীমের বাসার সামনে থেকে আটক করেছে পুলিশ। এছাড়া উপশহর রোজভিউ হোটেলের সামনে থেকে ছাত্রদলের ৬ নেতাকর্মীকে আটক করা হয়েছে।’

জেলা বিএনপির সভাপতি আবুল কাহের চৌধুরী শামীম বলেন, ‘শান্তিপূর্ণ সমাবেশের জন্য আমরা বৈঠক করছিলাম। কিন্তু পুলিশ এসে আমাদের নেতাকর্মীদের হয়রানি করছে, আমার বাসার সামনে থেকে এবং বিভিন্ন স্থান থেকে ২০-২৫ জন নেতাকর্মীকে আটক করেছে।’ তিনি বলেন, ‘সমাবেশের প্রচারে পুলিশ বাধা দিচ্ছে। আমাদের মাইক নিয়ে গেছে তারা। আমরা পুলিশের এই ভূমিকার তীব্র নিন্দা ও প্রতিবাদ জানাচ্ছি।’







নোটিশ : ডেইলি সিলেটে প্রকাশিত/প্রচারিত সংবাদ, আলোকচিত্র, ভিডিওচিত্র, অডিও বিনা অনুমতিতে ব্যবহার করা বেআইনি -সম্পাদক

© সর্বস্বত্ব স্বত্বাধিকার সংরক্ষিত

২০১১-২০১৭

সম্পাদকমন্ডলীর সভাপতি: মকিস মনসুর আহমদ
সম্পাদক ও প্রকাশক: কে এ রহিম সাবলু, নির্বাহী সম্পাদক: মারুফ হাসান
অফিস: ৯/আই, ব্লু ওয়াটার শপিং সিটি, ৯ম তলা, জিন্দাবাজার, সিলেট।
ফোন: ০৮২১-৭২৬৫২৭, মোবাইল: ০১৭১৭৬৮১২১৪ (নিউজ) ০১৭১২৮৮৬৫০৩ (সম্পাদক)
ই-মেইল: [email protected]

Developed by: