সর্বশেষ আপডেট : ৬ মিনিট ২৫ সেকেন্ড আগে
সোমবার, ২৪ জুন ২০১৯ খ্রীষ্টাব্দ | ১০ আষাঢ় ১৪২৬ বঙ্গাব্দ |

DAILYSYLHET

#মি টু’ আন্দোলন: অবশেষে পদত্যাগ ভারতের পররাষ্ট্র প্রতিমন্ত্রীর

আন্তর্জাতিক ডেস্ক:: ভারতের পররাষ্ট্র প্রতিমন্ত্রী এম জে আকবর পদত্যাগ করেছেন। ‘#মি টু’ আন্দোলনে যৌন হয়রানির অভিযোগ ওঠায় পদত্যাগ করলেন তিনি।যদিও শুরু থেকেই তিনি এই অভিযোগ অস্বীকার করে আসছিলেন।অভিযোগ তোলায় একজনের বিরুদ্ধে মানহানির মামলাও করেছিলেন আকবর।

এনডিটিভির প্রতিবেদনে বলা হয়, ৬৭ বছর বয়সী এম জে আকবর আজ এক বিবৃতিতে বলেন,ন্যায়বিচারের স্বার্থে তিনি পদত্যাগ করছেন।তাঁর বিরুদ্ধে আনা অভিযোগ ব্যক্তিগতভাবে মোকাবিলা করে আদালতে মিথ্যা প্রমাণ করার জন্য পদত্যাগের সিদ্ধান্ত সঠিক বলে মনে করেন তিনি।

যদিও অভিযোগ ওঠার শুরুর দিকে পদত্যাগের দাবি উঠলে তা নাকচ করে দিয়েছিলেন এম জে আকবর।গত সোমবার তিনি নারী সাংবাদিক প্রিয়া রামানির বিরুদ্ধে মানহানির মামলাও করেন।মামলার এজাহারে প্রিয়া রামানির অভিযোগের বিষয়ে বলা হয়, প্রিয়া তাঁর সুনাম নষ্ট করার জন্য ভেবেচিন্তে ইচ্ছাকৃতভাবে মানহানিকর সম্পূর্ণ মিথ্যা এই অপপ্রচার চালিয়েছেন।এর আগের দিন রোববার তিনি ঘোষণা দিয়েছিলেন, মন্ত্রিত্ব ছেড়ে দেওয়ার প্রশ্নই ওঠে না।এই অভিযোগের ব্যাপারে আইনি লড়াই চালিয়ে যাবেন তিনি।

৮ অক্টোবর আকবরের বিরুদ্ধে প্রথম অভিযোগ করেন সাংবাদিক প্রিয়া রামানি।তিনি টুইট বার্তায় জানান,আকবর তাঁকে যৌন হয়রানি করেছেন বলে বছর খানেক আগে তিনি এক নিবন্ধে উল্লেখ করেছেন।ওই সময় হলিউড তারকা হার্ভি ওয়াইনস্টিনের বিরুদ্ধে যুক্তরাষ্ট্রজুড়ে ‘#মি টু’ আন্দোলন চলছিল।

প্রিয়া রামানির পর আকবরের বিরুদ্ধে আরও ১১ নারী যৌন হেনস্তার অভিযোগ করেন।তাঁরা হলেন, প্রেরণা সিং বিন্দ্রা, ঘজালা ওয়াহাব, সুটাপা পাল, আনজু ভারতি, সুপর্ণা শর্মা, সোমা রাহা, মালিনী ভুপ্তা, কণিকা গৌলত, কদমবারি এম ওয়েড, মাজলি দ্য পু ক্যাম্প ও রথ ডেভিড।



এ বিভাগের অন্যান্য খবর



নোটিশ : ডেইলি সিলেটে প্রকাশিত/প্রচারিত সংবাদ, আলোকচিত্র, ভিডিওচিত্র, অডিও বিনা অনুমতিতে ব্যবহার করা বেআইনি -সম্পাদক

© সর্বস্বত্ব স্বত্বাধিকার সংরক্ষিত

২০১১-২০১৭

সম্পাদকমন্ডলীর সভাপতি: মকিস মনসুর আহমদ
সম্পাদক ও প্রকাশক: কে. এ. রাহিম. সাবলু, নির্বাহী সম্পাদক: মারুফ হাসান
অফিস: ৯/আই, ব্লু ওয়াটার শপিং সিটি, ৯ম তলা, জিন্দাবাজার, সিলেট।
ফোন: ০৮২১-৭২৬৫২৭, মোবাইল: ০১৭১৭৬৮১২১৪
ই-মেইল: [email protected]

Developed by: