সর্বশেষ আপডেট : ১৪ মিনিট ২৮ সেকেন্ড আগে
মঙ্গলবার, ১৯ ফেব্রুয়ারী ২০১৯ খ্রীষ্টাব্দ | ৭ ফাল্গুন ১৪২৫ বঙ্গাব্দ |

DAILYSYLHET

ডিজিটাল শব্দটা আগে মানুষ জানতো না : মতিয়া

নিউজ ডেস্ক:: বর্তমান সরকার ক্ষমতায় আসার আগে ডিজিটাল শব্দটাই দেশের মানুষ জানতো না বলে মন্তব্য করেছেন কৃষিমন্ত্রী মতিয়া চৌধুরী।

তিনি বলেন, শেখ হাসিনার উন্নয়ন দর্শনের কারণে ৪১ সাল নাগাদ উন্নত দেশ গড়ার দিকে আমরা এগিয়ে যাচ্ছি।

রাজধানীর শেরেবাংলা নগরে আয়োজিত জাতীয় উন্নয়ন মেলার সমাপনী ও পুরস্কার বিতরণ অনুষ্ঠানের তিনি এ কথা বলেন।

মতিয়া চৌধুরী বলেন, ডিজিটালের কথা মানুষ জেনেছে এ সরকারেরর কারণে। শেখ হাসিনার উন্নয়ন দর্শনের কারণে। এর আগে মানুষ জানতো না। গ্রামের অনেকে শুনেওনি। অথচ ১০ বছরের ব্যবধানে এখন ইউনিয়ন পরিষদে ডিজিটাল সেবা পাওয়া যাচ্ছে।

তিনি বলেন, বঙ্গবন্ধুর স্বপ্ন ছিল ক্ষুধামুক্ত উন্নত দেশ গড়ার। যেটা তিনি করে যেতে পারেননি। সেটা করছেন তার কন্যা শেখ হাসিনা।

মেলার উদ্দেশ্য সম্পর্কে তিনি বলেন, জনগণকে অভিহিত করা কী কী উন্নয়ন হয়েছে। এ উন্নয়নকে কীভাবে এগিয়ে নেয়া যায়। জনগণকে সম্পৃক্ত করা যায়। এ মেলা বৈষম্য কমিয়ে উন্নত দেশ গড়ায় সোনার বাংলা গড়তে স্বপ্ন দেখাচ্ছে।

তিনি বলেন, স্থায়ী দারিদ্র্য মুক্তির দর্শন নিয়ে এসেছে এ সরকার। নারীর ক্ষমতায়ন, শিক্ষা ও সংস্কৃতি, অনলাইন সেবা কার্যক্রম দুর্বার গতিতে এগিয়ে চলছে।

মেলায় মাঝমাঠে স্থাপিত হয়েছে মূল মঞ্চ। বিকালে সমাপনী অনুষ্ঠানে আরও উপস্থিত ছিলেন মন্ত্রিপরিষদ সচিব শফিউল আলম, প্রধানমন্ত্রী কার্যালয়ের মুখ্য সচিব নজিবুর রহমান, সাবেক মুখ্য সচিব ও এসডিজিবিষয়ক প্রধান সমন্বয়ক আবুল কালাম আজাদ।

ঢাকা বিভাগীয় কমিশনার কে এম আলী আজমের সভাপতিত্বে সমাপনী অধিবেশনে মেলার সফলতা ও সরকারের উন্নয়নের ফিরিস্তি তুলো ধরা হয়।

মুখ্য সচিব নজিবুর রহমান বলেন, মেলা থেকে বোঝা যায়-উন্নয়ন নিয়ে মানুষের কত আগ্রহ। সবাই এসে উন্নয়ন দেখছে। আরও স্বপ্ন দেখছে। মেলায় তরুণদের অংশগ্রহণ বাড়ানোর চেষ্টা ছিল। সেটা সফল হয়েছে বলে জানান তিনি।

সাবেক মুখ্য সচিব আবুল কালাম আজাদ বলেন, সরকারের উন্নয়নের চিত্র এখানে তুলে ধরা হচ্ছে। সাধারণ মানুষকে সম্পৃক্ত করার চেষ্টা চলছে।

তিনি বলেন, দুটি স্টলে ব্যাপক ভিড় দেখলাম। একটি পাসপোর্ট, অন্যটি বিআরটিএ। তার মানে এখানে যেভাবে সেবা দেয়া হচ্ছে অফিসগুলোতে সে সেবা দেয়া হয় না। দিলে এত ভিড় হত না। তিনি বলেন, মেলায় যেভাবে সেবা দিচ্ছি বাস্তবে অফিসগুলোতে সেবা দিতে পারলে দেশ এগিয়ে যাবে।

সভা শেষে অংশগ্রহণকারী বিভিন্ন স্টল কর্তৃপক্ষকে পুরস্কৃত করা হয়। এ ছাড়া সবচেয়ে ভালো স্টল স্থাপনকারীদের সম্মাননা ও সনদ দেয়া হয়।




নোটিশ : ডেইলি সিলেটে প্রকাশিত/প্রচারিত সংবাদ, আলোকচিত্র, ভিডিওচিত্র, অডিও বিনা অনুমতিতে ব্যবহার করা বেআইনি -সম্পাদক

© সর্বস্বত্ব স্বত্বাধিকার সংরক্ষিত

২০১১-২০১৭

সম্পাদকমন্ডলীর সভাপতি: মকিস মনসুর আহমদ
সম্পাদক ও প্রকাশক: কে এ রহিম সাবলু, নির্বাহী সম্পাদক: মারুফ হাসান
অফিস: ৯/আই, ব্লু ওয়াটার শপিং সিটি, ৯ম তলা, জিন্দাবাজার, সিলেট।
ফোন: ০৮২১-৭২৬৫২৭, মোবাইল: ০১৭১৭৬৮১২১৪ (নিউজ) ০১৭১২৮৮৬৫০৩ (সম্পাদক)
ই-মেইল: dailysylhet@gmail.com

Developed by: