সর্বশেষ আপডেট : ৪৮ মিনিট ১৪ সেকেন্ড আগে
মঙ্গলবার, ১১ ডিসেম্বর ২০১৮ খ্রীষ্টাব্দ | ২৭ অগ্রহায়ণ ১৪২৫ বঙ্গাব্দ |

DAILYSYLHET

রান্নাঘরের গ্রিল কেটে শাবির ছাত্রী হলে চুরি,নিরাপত্তাহীনতায় ছাত্রীরা

ডেইলি সিলেট ডেস্ক:: শাহজালাল বিজ্ঞান ও প্রযুক্তি বিশ্ববিদ্যালয়ের ছাত্রী হলে আবারো চুরির ঘটনা ঘটেছে। বৃহস্পতিবার ভোরে বিশ্ববিদ্যালয়ের প্রথম ছাত্রী হলের ডি ব্লকের ১৩২ নম্বর রুম থেকে দুই শিক্ষার্থীর মোবাইল চুরির ঘটনা ঘটে। ঘটনার সত্যতা নিশ্চিত করে সহকারী প্রক্টর মো. জাহিদ হাসান বলেন,ঘটনার বিষয়ে আমরা অবগত। তদন্তের মাধ্যমে জড়িতদের বিরুদ্ধে ব্যবস্থা নেয়া হবে।

হল সূত্রে জানা যায়, আনুমানিক রাত ২টার দিকে হলের নিচতলার সিঁড়ির পাশের রান্নাঘরের গ্রিল কেটে কয়েকজন যুবক ভেতরে ঢুকে পড়ে।নিচ তলার ১৩২ নম্বর রুমের এক শিক্ষার্থী ভোর ৫টার দিকে বাথরুমে গেলে চোরেরা বাইরে থেকে তালা দিয়ে তাকে আটকে দেয়।এ সময় রুমের ভেতরে গিয়ে কয়েকজন ঢুকে পড়ে।তাদের উপস্থিতি টের পেয়ে রুমে থাকা অন্য শিক্ষার্থীরা চিৎকার শুরু করলে চোরের দল দুটি মোবাইল ফোন নিয়ে পালিয়ে যায়। এছাড়া ডি ব্লকের প্রতিটি তলায় আরো কয়েকটি রুমের গ্রিল কাটা ও সিটকানি খোলার চেষ্টা করেছিল বলে জানান একাধিক শিক্ষার্থী।

হলের আবাসিক শিক্ষার্থী খাদিজা আক্তার শান্তা বলেন,আমার পাশের দুই রুমেও চুরির চেষ্টা করা হয়েছে। সকালে ওই দুই রুমের জানালার গ্রিল একটু কাটা দেখা যায়। কতটা অনিরাপদ হলের মেয়েরা! এর আগে বেগম সিরাজুন্নেসা চৌধুরী হলেও চুরির ঘটনা ঘটেছে।ওই হলের আরেক শিক্ষার্থী তানজিনা আক্তার বলেন, আমরা গতকাল তিন যুবককে হলের আশপাশে ঘোরাফেরা করতে দেখি। তাদের গতিবিধি সন্দেহজনক মনে হওয়ায় হল প্রভোস্টকে জানালেও তিনি কোন পদক্ষেপ নেয়নি।

এর আগে চলতি বছরের ২০ জানুয়ারি বেগম সিরাজুন্নেসা চৌধুরী হলে একই কায়দায় গ্রিল কেটে চারটি ল্যাপটপ ও দুটি মোবাইল ফোন চুরির ঘটনা ঘটেছিল। গত ১২ সেপ্টেম্বর বিশ্ববিদ্যালয়ের এক কর্মচারীর মোটরসাইকলে চুরির ঘটনায় মো. কাউসার নামের এক যুবককে আটক করেছিল জালালাবাদ থানা পুলিশ। এদিকে ঘটনার পর হল প্রভোস্ট অধ্যাপক আমিনা পারভিন, ছাত্র উপদেশ ও নির্দেশনা পরিচালক অধাপক ড. রাশেদ তালুকদার এবং প্রক্টর সহযোগী অধ্যাপক জহীর উদ্দিন আহমেদ ঘটনাস্থল পরিদর্শন করেছেন বলে জানান শিক্ষার্থীরা। তবে বিষয়টি জানার জন্য হল প্রভোস্ট অধ্যাপক আমিনা পারভিন ও প্রক্টর জহীর উদ্দিন আহমেদের সাথে মোবাইল ফোনে যোগাযাগের চেষ্টা করা হলে কেউ ফোন রিসিভ করেননি।”




এ বিভাগের অন্যান্য খবর




নোটিশ : ডেইলি সিলেটে প্রকাশিত/প্রচারিত সংবাদ, আলোকচিত্র, ভিডিওচিত্র, অডিও বিনা অনুমতিতে ব্যবহার করা বেআইনি -সম্পাদক

© সর্বস্বত্ব স্বত্বাধিকার সংরক্ষিত

২০১১-২০১৭

সম্পাদকমন্ডলীর সভাপতি: মকিস মনসুর আহমদ
সম্পাদক ও প্রকাশক: কে এ রহিম সাবলু, নির্বাহী সম্পাদক: মারুফ হাসান
অফিস: ৯/আই, ব্লু ওয়াটার শপিং সিটি, ৯ম তলা, জিন্দাবাজার, সিলেট।
ফোন: ০৮২১-৭২৬৫২৭, মোবাইল: ০১৭১৭৬৮১২১৪ (নিউজ) ০১৭১২৮৮৬৫০৩ (সম্পাদক)
ই-মেইল: dailysylhet@gmail.com

Developed by: