সর্বশেষ আপডেট : ২৩ মিনিট ১১ সেকেন্ড আগে
বৃহস্পতিবার, ২০ সেপ্টেম্বর ২০১৮ খ্রীষ্টাব্দ | ৫ আশ্বিন ১৪২৫ বঙ্গাব্দ |

DAILYSYLHET

সুনামগঞ্জে নিরাপদ সড়ক নিশ্চিতকরনে সভা করলেন শেখ ইউসুফ হারুন

আল-হেলাল,সুনামগঞ্জ:: জনপ্রশাসন মন্ত্রনালয়ের অতিরিক্ত সচিব (এ.পি.ডি) শেখ ইউসুফ হারুন বলেছেন, সাত দিনের যে ছাত্র আন্দোলন ঢাকায় শুরু হয়েছিল সেই আন্দোলন গ্রামেগঞ্জে এমনকি প্রত্যেকটি জেলা উপজেলায় ছড়িয়ে পড়েছিল। তাদের দাবি ছিল নিরাপদ সড়ক চাই। এই সাত দিনের আন্দোলনে ছাত্ররা সুশৃঙ্খলভাবে মাঠে নেমেছিল। এবং তারা ঢাকা শহরের গাড়ি গুলো আটকে তাদের লাইসেন্স নেই, ফিটনেস নেই, তারা গাড়ি চালাচ্ছে আটকে এবং তাদের ধরে দেখিয়ে দিয়েছে যে ছাত্ররা চাইলে কি পারেনা। কিন্তু এই আন্দোলনটি প্রথম থেকে খুব ভাল চলেছিল এবং খুব জনপ্রিয়তা লাভ করেছিল। কিন্তু পরর্বতীতে আমরা দেখলাম বাংলাদেশের ছাত্ররা যে আন্দোলন করেছিল সেটি ছিল অরাজনৈতিক একটি আন্দোলন এবং এই আন্দোলনকে রাজনৈতিক আন্দোলনে সম্পৃক্ত করার জন্য দুই একটি দল সুযোগ গ্রহণ করার চেষ্টা করেছিল। এবং সুযোগ গ্রহণ করে ফেলেছিল। তারা অন্যান্য জেলা থেকে স্কুলে পোশাক পড়িয়ে ঢাকা শহরের নামিয়ে দিল, তখন দেখা গেল সরকারি প্রতিষ্টান থেকে শুরু করে আওয়ামীলীগের কার্যালয় পর্যন্ত আক্রমণ করল। এরা কিন্তু সাধারণ শিক্ষার্থী নয়। আপনাদের বুঝতে হবে এই কাজটি করেছিল কারা, এই কাজটি করেছে একটি নির্দিষ্ট শ্রেণীর লোক তাদেরকে ভাড়া করে নিয়ে আসা হয়েছিল।

অথচ ছাত্র-ছাত্রীরা যে আন্দোলন শুরু করেছিল সেটি ছিল অরাজনৈতিক একটি আন্দোলন, এবং তারা আমরা যারা সরকারি চাকুরী করি আমাদেরকে বুঝিয়েছে সড়ক ব্যবস্থাপনায় কি রকম নৈরাজ্য রয়েছে। আপনারা যারা ঢাকা শহরে গিয়েছিলেন তারা অব্যশই দেখেছেন ঢাকা শহরের একি লাইন দিয়ে একই সময়ে প্রচুর পরিমাণে বাস চলাচল করে। এই বাস গুলো নিয়ন্ত্রন করার জন্য সরকার উদ্যোগ নিয়েছে। এবং আমরা সকলে যদি সম্মলিতভাবে কাজ করি তাহলে অব্যশই একদিন এই সড়ক দূর্ঘটনা বাংলাদেশে কমে আসবে। তিনি আরো বলেন, সড়ক নিরাপদ রাখার জন্য আমাদের সকলকে একসাথে ভূমিকা রাখতে হবে। একতাবদ্ধভাবে কাজ করলে নিরাপদ সড়ক নিশ্চিত করা সম্ভব। অননুমোদিত ও ক্রুটিপূর্ণ যানবাহন, লাইসেন্সেবিহীন ও অনভিজ্ঞ ড্রাইভার যেমন দূর্ঘটনার জন্য দায়ী, তেমনিভাবে দায়ী পথচারী এবং যাত্রীগণের অসচেতনতা। সকলে মিলেই আনতে হবে আমাদের পরির্বতন। আসুন আগে আমরা নিজেকে বদলাই এবং অন্যকে বদলাতে সহায়তা করি। নিরাপদ সড়ক নিশ্চিতকরনে ছাত্র-শিক্ষক-অভিভাবকদের সাথে মত বিনিময় সভায় প্রধান অতিথির বক্তব্যে তিনি এসব কথা বলেন।

রবিবার দুপুরে জেলা প্রশাসনের আয়োজনে শহরের শহীদ আবুল হোসেন মিনলায়তনে জেলা প্রশাসক মোহাম্মদ আব্দুল আহাদের সভাপতিত্বে ও নিবার্হী ম্যাজিষ্ট্রেট মো.নাহিদ হাসান খানের পরিচালনায় আলোচনা সভায় বিশেষ অতিথির বক্তব্য রাখেন, প্রাথমিক গণশিক্ষা মন্ত্রনালয়ের অতিরিক্ত সচিব ড.তরুন কান্তি সিকদার, সিভিল সার্জন আশুতোষ দাশ, ২৮ ব্যাটালিয়নের অধিনায়ক আবুল এহসান, বি.আর.টি সহকারী পরিচালক ডালিম উদ্দিন, সরকারী জুবিলী উচ্চ বিদ্যালয়ের প্রধান শিক্ষক ফয়জুর রহমান, সরকারী জুবিলী উচ্চ বিদ্যালয়ের শিক্ষার্থী দুর্বার সাদি। এছাড়াও আলোচনা সভায় স্বাগত বক্তব্য রাখেন, অতিরিক্ত জেলা প্রশাসক (সার্বিক) মোঃ নরুজ্জামান। আলোচনা সভার আগে সকল ছাত্র- শিক্ষক-অভিভাবকদের উদ্দেশ্যে নিরাপদ সড়ক চাই একটি গান পরিবেশন করা হয়। এবং তাদের হাতে নিরাপদ সড়ক নিশ্চিতে লিফলেট বিতরণ করেন অতিথিরা।


এ বিভাগের অন্যান্য খবর

নোটিশ : ডেইলি সিলেটে প্রকাশিত/প্রচারিত সংবাদ, আলোকচিত্র, ভিডিওচিত্র, অডিও বিনা অনুমতিতে ব্যবহার করা বেআইনি -সম্পাদক

© সর্বস্বত্ব স্বত্বাধিকার সংরক্ষিত

২০১১-২০১৭

সম্পাদকমন্ডলীর সভাপতি: মকিস মনসুর আহমদ
সম্পাদক ও প্রকাশক: কে এ রহিম সাবলু, নির্বাহী সম্পাদক: মারুফ হাসান
অফিস: ৯/আই, ব্লু ওয়াটার শপিং সিটি, ৯ম তলা, জিন্দাবাজার, সিলেট।
ফোন: ০৮২১-৭২৬৫২৭, মোবাইল: ০১৭১৭৬৮১২১৪ (নিউজ) ০১৭১২৮৮৬৫০৩ (সম্পাদক)
ই-মেইল: dailysylhet@gmail.com

Developed by: