সর্বশেষ আপডেট : ৮ ঘন্টা আগে
বুধবার, ২৬ সেপ্টেম্বর ২০১৮ খ্রীষ্টাব্দ | ১১ আশ্বিন ১৪২৫ বঙ্গাব্দ |

DAILYSYLHET

পাকিস্তানে অমুসলিমরাই আবেদন করতে পারবে মুচি-মেথরের কাজে!

আন্তর্জাতিক ডেস্ক:: সংখ্যালঘুরা শুধু সাফাই কর্মী হিসেবে কাজ পাবেন৷ পাকিস্তান সেনাবাহিনীর বিভিন্ন পদের জন্য প্রকাশিত বিজ্ঞাপনে এমনই নির্দেশিকা জারি করা হয়েছে৷ সেই বিজ্ঞাপনে বলা হয়েছে, হিন্দুসহ পাকিস্তানের সব সংখ্যালঘু সাফাইকর্মী, মুচি, কাঠের মিস্ত্রীর মতো পদের জন্য আবেদন করতে পারবেন৷

পাকিস্তানি সেনার সেই বিজ্ঞাপনে দেশটি জুড়ে তোলপাড় চলছে৷ বিশেষত সোশ্যাল মিডিয়া উত্তাল এই বিজ্ঞাপন নিয়ে৷ নেটিজেনরা কড়া ভাষায় সেই বিজ্ঞাপনের সমালোচনা করেছেন৷ এই বিতর্ক শুরু হয়, যখন মানবাধিকার সংগঠনের কর্মকর্তা কপিল দেব তার টুইটে পাকিস্তানি সংবাদপত্র ডন-এ প্রকাশিত একটি বিজ্ঞাপনের ছবি পোস্ট করেন৷

গত ২৬ আগস্ট ডন পত্রিকায় একটি বিজ্ঞাপন প্রকাশিত হয়৷ বিজ্ঞাপনটি দেয় পাকিস্তানি প্যারা-মিলিটারি ফোর্স৷ সেখানে দেখা যায়, কমব্যাট এবং নন-কমব্যাট-এই দুই বিভাগেই নিয়োগ করা হবে৷ বিজ্ঞাপনে বলা হয়, মোট দশ ক্যাটাগরিতে নিয়োগ করা হবে৷ পদগুলির হল সাব ইন্সপেক্টর, হাবিলদার, নায়েক, ধর্মীয় শিক্ষক প্রভৃতি।

এছাড়াও রয়েছে ১০ নম্বর ক্যাটাগরি, যেখানে নন-কমব্যাটান্ট বা অ-সেনাকর্মী নিয়োগ হবে৷ এতে রয়েছে দরজি, নাপিত, কাঠের মিস্ত্রী, রঙের মিস্ত্রী, মুচি, সাফাইকর্মীর মতো পদ৷ পাশে উল্লেখ করা হয়েছে এই পদগুলির জন্য অমুসলিমরাই আবেদন করতে পারবে৷ বিজ্ঞাপনের এই অংশের প্রতি দৃষ্টি আকর্ষণ করে সমাজকর্মী কপিল দেব ট্যুইট করেন, পাকিস্তানে সাফাই কর্মীর চাকরির জন্য যোগ্যতার মাপকাঠি হচ্ছে আপনাকে ‘শুধু অমুসলিম’ হতে হবে।

এরপরেই সমালোচনায় মুখর হয়েছেন নেটিজেনরা৷ তাদের দাবি, এই কী ইমরান খানের স্বপ্নের নতুন পাকিস্তান? যেখানে সংখ্যালঘুদের কোনও মর্যাদা দেওয়া হয় না! তারা আরও বলেছেন পাকিস্তানের মুসলিমদের ভাবমূর্তি নষ্ট করা হচ্ছে৷ পাক সেনার সেই বিজ্ঞাপনে সম্পর্ক খারাপ হবে সবার৷ কোনও মৈত্রী বা ঐক্যের কথা এরপর থেকে আর পাকিস্তানের সরকার বলার জায়গায় থাকল না৷

এক নেটিজেন ট্যুইট করেছেন এই ঘটনা কাম্য নয়৷ পাকিস্তানে একটি জাতি। একটি জনতা। সবাই সমান। ধর্ম, গোত্র, সম্প্রদায় কোনো বিষয় নয়। পাকিস্তান জিন্দাবাদ। আরেক নেটিজেনের বক্তব্য অত্যন্ত ঘৃণ্য কাজ করেছে এই বিজ্ঞাপন৷ এটা প্রধানমন্ত্রী ইমরান খানের করা প্রতিশ্রুতিরও বিরোধী। তবে এই বিষয়ে পাকিস্তান রেঞ্জার্স কর্তৃপক্ষের কোনও বক্তব্য জানা যায়নি।




নোটিশ : ডেইলি সিলেটে প্রকাশিত/প্রচারিত সংবাদ, আলোকচিত্র, ভিডিওচিত্র, অডিও বিনা অনুমতিতে ব্যবহার করা বেআইনি -সম্পাদক

© সর্বস্বত্ব স্বত্বাধিকার সংরক্ষিত

২০১১-২০১৭

সম্পাদকমন্ডলীর সভাপতি: মকিস মনসুর আহমদ
সম্পাদক ও প্রকাশক: কে এ রহিম সাবলু, নির্বাহী সম্পাদক: মারুফ হাসান
অফিস: ৯/আই, ব্লু ওয়াটার শপিং সিটি, ৯ম তলা, জিন্দাবাজার, সিলেট।
ফোন: ০৮২১-৭২৬৫২৭, মোবাইল: ০১৭১৭৬৮১২১৪ (নিউজ) ০১৭১২৮৮৬৫০৩ (সম্পাদক)
ই-মেইল: dailysylhet@gmail.com

Developed by: