সর্বশেষ আপডেট : ৫ মিনিট ৫৪ সেকেন্ড আগে
মঙ্গলবার, ১৮ সেপ্টেম্বর ২০১৮ খ্রীষ্টাব্দ | ৩ আশ্বিন ১৪২৫ বঙ্গাব্দ |

DAILYSYLHET

বিএনপি আন্দোলনের নামে সহিংসতা করলে সমুচিত জবাব

নিউজ ডেস্ক:: আওয়ামী লীগের সাধারণ সম্পাদক ও সেতুমন্ত্রী ওবায়দুল কাদের বলেছেন, বিএনপি আন্দোলনের নামে কোনো প্রকার সহিংসতা করলে জনগণকে সঙ্গে নিয়ে সমুচিত জবাব দেয়া হবে। আর শান্তিপূর্ণ আন্দোলন করলে তা রাজনৈতিকভাবে মোকাবেলা করা হবে।

বুধবার (২৯ আগস্ট) বিকেলে রাজধানীর রমনায় ইঞ্জিনিয়ার ইনস্টিটিউশন মিলনায়তনে ঢাকা মহানগর উত্তর ও দক্ষিণ শাখা আওয়ামী লীগ আয়োজিত শোক দিবসের আলোচনা সভায় তিনি এসব কথা বলেন।

ওবায়দুল কাদের বলেন, ‘নির্বাচন সংবিধান অনুযায়ী হবে। সংবিধানের বাইরে গিয়ে নির্বাচনের কোনো সুযোগ নেই। আমরা আশা করছি, আগামী নির্বাচন একটি অবাধ, স্বচ্ছ ও গ্রহণযোগ্য নির্বাচন হবে।’

ইলেকট্রনিক ভোটিং মেশিন (ইভিএম) সম্পর্কে আওয়ামী লীগ সাধারণ সম্পাদক বলেন, ‘গত তিন সিটি নির্বাচনে কয়েকটি কেন্দ্রে ইভিএম ব্যবহার করে এর অপরিহার্যতা বোঝানো হয়েছে। ইভিএম প্রযুক্তির লেটেস্ট উদ্ভাবন। পার্শ্ববর্তী দেশ ভারতেও বেশ কয়েকটি নির্বাচন ইভিএমের মাধ্যমে হয়েছে। পৃথিবীর উন্নত দেশে ইভিএম ব্যবহৃত হচ্ছে। এখানেও হবে।’

২১ আগস্ট গ্রেনেড হামলার বিষয়ে তিনি বলেন, ‘২১ আগস্ট গ্রেনেড হামলার মধ্য দিয়ে কত পরিবার নিঃস্ব করে দিয়েছেন বেগম জিয়া ও তারেক রহমান। আর আজ বিএনপির নেতারা গ্রেনেড হামলার বিচার চান! বিচার চাইলে জজ মিয়া নাটক সাজাতেন না। বিচার চাইলে তদন্ত করতেন। বিচার চাইলে হত্যার সব আলামত নষ্ট করে দিতেন না। আমরা কী ভুলে গেছি?

সেতুমন্ত্রী বলেন, ‘রাজনীতিতে এ রকম নিষ্ঠুর রসিকতা বিএনপির পক্ষেই সম্ভব। বাংলাদেশে এই দলটি যতদিন থাকবে ততদিন এই দেশে অশান্তি লেগে থাকবেই।’

মহানগর আওয়ামী লীগের পূর্ণাঙ্গ কমিটি প্রদানে যেসব অন্তরায় রয়েছে তা সমাধানের জন্য পুনরায় আল্টিমেটাম দেন ওবায়দুল কাদের। তিনি বলেন, ‘নেত্রী আমাকে বলেছেন আগামী ১০ সেপ্টেম্বরের মধ্যে থানা ও ওয়ার্ড পর্যায়ের ক্ষুদ্র সমস্যার সমাধান করতে হবে। আর ২৫ সেপ্টেম্বরের মধ্যে উত্তর ও দক্ষিণ আওয়ামী লীগের পূর্ণাঙ্গ কমিটি দিতে হবে।’

বিশেষ অতিথির বক্তব্যে দলের সভাপতিমণ্ডলীর সদস্য কর্নেল (অব.) ফারুক খান বলেন, ‘বিএনপি-জামায়াত কিংবা ড. কামালরা যে ষড়যন্ত্র করছে তা দক্ষতার সঙ্গে মোকাবেলা করতে হবে।’

আওয়ামী লীগের যুগ্ম সাধারণ সম্পাদক মাহবুব উল আলম হানিফ বলেন, ‘যে সমস্ত দেশে ১৫ আগস্টের খুনিরা আছে, ষড়যন্ত্রকারীরা আছে তাদের এনে বিচার না করা পর্যন্ত ষড়যন্ত্র বন্ধ হবে না।’

তিনি বলেন, ‘কামাল সাহেবরা বলছেন দেশে না কি ক্রান্তিকাল বিরাজ করছে। আমি বলি কিসের ক্রান্তিকাল? ক্রান্তিকাল তাদের যারা এদেশে রাজনীতির নীল নকশা বাস্তবায়ন করতে চায়।’

ঢাকা মহানগর দক্ষিণ আওয়ামী লীগের সভাপতি আবুল হাসনাতের সভাপতিত্বে অনুষ্ঠানে আরও উপস্থিত ছিলেন আওয়ামী লীগের সাংগঠনিক সম্পাদক এ কে এম এনামুল হক শামীম, মহিবুল হাসান চৌধুরী নওফেল, দফতর সম্পাদক আবদুস সোবহান গোলাপ, আইনবিষয়ক সম্পাদক শ ম রেজাউল করিম, মহানগর উত্তর আওয়ামী লীগের সাধারণ সম্পাদক সাদেক খান, দক্ষিণের সাধারণ সম্পাদক শাহে আলম মুরাদ।


এ বিভাগের অন্যান্য খবর

নোটিশ : ডেইলি সিলেটে প্রকাশিত/প্রচারিত সংবাদ, আলোকচিত্র, ভিডিওচিত্র, অডিও বিনা অনুমতিতে ব্যবহার করা বেআইনি -সম্পাদক

© সর্বস্বত্ব স্বত্বাধিকার সংরক্ষিত

২০১১-২০১৭

সম্পাদকমন্ডলীর সভাপতি: মকিস মনসুর আহমদ
সম্পাদক ও প্রকাশক: কে এ রহিম সাবলু, নির্বাহী সম্পাদক: মারুফ হাসান
অফিস: ৯/আই, ব্লু ওয়াটার শপিং সিটি, ৯ম তলা, জিন্দাবাজার, সিলেট।
ফোন: ০৮২১-৭২৬৫২৭, মোবাইল: ০১৭১৭৬৮১২১৪ (নিউজ) ০১৭১২৮৮৬৫০৩ (সম্পাদক)
ই-মেইল: dailysylhet@gmail.com

Developed by: