সর্বশেষ আপডেট : ১ মিনিট ২৮ সেকেন্ড আগে
বুধবার, ১২ ডিসেম্বর ২০১৮ খ্রীষ্টাব্দ | ২৮ অগ্রহায়ণ ১৪২৫ বঙ্গাব্দ |

DAILYSYLHET

বাবার ইচ্ছায় অন্তিম ক্রিয়াকর্ম সম্পন্ন করেন তার চার মেয়ে

আন্তর্জাতিক ডেস্ক:: বাবার অন্তিম ইচ্ছা ছিল মৃত্যুর পর মেয়েরাই তার সৎকার করবে। বাবার শেষ ইচ্ছা বলে কথা! তাই বাবার শব কাঁধে করে শশ্মানে নেয়া থেকে শুরু করে মুখাগ্নি পর্যন্ত যাবতীয় অন্তিম ক্রিয়াকর্ম সম্পন্ন করেন তার চার মেয়ে। কিন্তু এ ঘটনায় সমাজপতিদের রোষানলে পড়েছেন ওই চার কন্যা। তাদের করা হয়েছে একঘরে।এ ঘটনা ঘটেছে ভারতের রাজস্থান রাজ্যের বুন্দি জেলায়।

বুন্দি জেলার এক প্রত্যন্ত গ্রামের বাসিন্দা ছিলেন দুর্গাশঙ্কর রেগার (৫৮)। মারা যাওয়ার আগেই ইচ্ছা প্রকাশ করেছিলেন, তার অন্তিম ক্রিয়াকর্ম করবে চার মেয়ে। নিজের কোনো পুত্রসন্তান না থাকায় এমন ইচ্ছা প্রকাশ করেছিলেন ওই ব্যক্তি। মেয়েরাও তাতে কোনও সমস্যা দেখেননি। কিন্তু সেটা জানাজানি হতেই মোড়ল-মাতব্বররা হুমকি দিতে থাকে, এ কাজ করলে ফল ভাল হবে না।

গত শনিবার (২৮ জুলাই) মারা যান দুর্গাশঙ্কর। তখন বাঁশের মাচায় শোয়ানো বাবার মরদেহ চার বোন কাঁধে করে শ্মশানে বয়ে নিয়ে যান। সেখানে মুখাগ্নি থেকে শুরু করে যাবতীয় কাজকর্ম সারেন তারাই। এতে কোনো মহাভারত অশুদ্ধ হয়ে যায়নি।

কিন্তু এতেই ক্ষেপে উঠেছেন স্থানীয় মাতুব্বররা। তারা ওই চার বোনকে একঘরে ঘোষণা করেছেন। গোটা গ্রামের কেউ তাদের সঙ্গে সম্পর্ক রাখতে পারবে না। তাহলে একঘরে করা হবে তাদেরকেও। শুধু তাই নয়, গ্রামের কমিউনিটি বাথরুমে স্নান করাও নিষিদ্ধ ওই চার মেয়ের জন্য।

তবে সমাজপতিদের এসব পদক্ষেপে মোটেও ভীত নন চার কন্যা। বড় মেয়ে মিনা বলেন, ‘বাবার কাজ সেরে আসার পরই আমাদের ক্ষমা চাইতে বলেন মোড়লরা। কিন্তু আমরা ক্ষমা চাইনি। কারণ, আমরা কোনও অন্যায় করিনি। কোনও অপরাধ করিনি।’ এইরকম মনোভাব বাকি তিন বোনেরও। তাদের কাছে সমাজ নয়, বড় তাদের পিতার শেষ ইচ্ছা।

উল্লেখ্য, হিন্দু ধর্মে সাধারণতঃ মৃতের সৎকার ও অন্তোষ্টিক্রিয়ার যাবতীয় কর্ম সম্পাদনের দায়িত্ব পালন করে থাকেন মৃত ব্যক্তির ছেলেরা। ছেলে না থাকলে যে কোনো নিকটাত্মীয় পুরুষ তা করে থাকেন। মেয়েদের এক্ষেত্রে তেমন ভূমিকা থাকে না।

সূত্র: আনন্দবাজার




নোটিশ : ডেইলি সিলেটে প্রকাশিত/প্রচারিত সংবাদ, আলোকচিত্র, ভিডিওচিত্র, অডিও বিনা অনুমতিতে ব্যবহার করা বেআইনি -সম্পাদক

© সর্বস্বত্ব স্বত্বাধিকার সংরক্ষিত

২০১১-২০১৭

সম্পাদকমন্ডলীর সভাপতি: মকিস মনসুর আহমদ
সম্পাদক ও প্রকাশক: কে এ রহিম সাবলু, নির্বাহী সম্পাদক: মারুফ হাসান
অফিস: ৯/আই, ব্লু ওয়াটার শপিং সিটি, ৯ম তলা, জিন্দাবাজার, সিলেট।
ফোন: ০৮২১-৭২৬৫২৭, মোবাইল: ০১৭১৭৬৮১২১৪ (নিউজ) ০১৭১২৮৮৬৫০৩ (সম্পাদক)
ই-মেইল: dailysylhet@gmail.com

Developed by: