সর্বশেষ আপডেট : ৯ মিনিট ২৪ সেকেন্ড আগে
শনিবার, ১৭ নভেম্বর ২০১৮ খ্রীষ্টাব্দ | ৩ অগ্রহায়ণ ১৪২৫ বঙ্গাব্দ |

DAILYSYLHET

‘জয় বাংলা’ স্লোগান দিয়ে আইনজীবীদের সভায় হামলা

নিউজ ডেস্ক:: যুবলীগ কর্মীদের হামলায় খুলনা জেলা আইনজীবী সমিতির সাধারণ সভা পণ্ড হয়ে গেছে বলে অভিযোগ উঠেছে। আইনজীবী সমিতির নবনির্মিত বঙ্গবন্ধু ভবন নির্মাণে দুর্নীতির তদন্ত প্রতিবেদন সাধারণ সভায় উত্থাপিত হলে ‘জয় বাংলা’ স্লোগান দিয়ে যুবলীগের কর্মীরা সিনিয়র আইনজীবীদের মারধর ও হট্টগোল করলে সভা পণ্ড হয়ে যায়। এ সময় দুইজন আইনজীবী বিধান চন্দ্র ঘোষ ও আব্দুস সোবহান মারধরের শিকার হন।

সোমবার দুপুর ২টার দিকে আইনজীবী সমিতির ১নং হলে সাধারণ সভা শুরুর কিছু সময় পরেই এ হামলার ঘটনা ঘটে।

আইনজীবীরা জানান, জেলা আইনজীবী সমিতি মিলনায়তনে দুপুর ২টায় সমিতির সভাপতি ও পিপি কাজী আবু শাহিনের সভাপতিত্বে সভা শুরু হয়। সাধারণ সম্পাদক মোল্লা মশিউর রহমান নান্নু স্বাগত বক্তব্য দেন। এরপর সভার সভাপতি কাজী আবু শাহিন বঙ্গবন্ধু ভবন নির্মাণে চার সদস্যের অডিট কমিটি গত ১১ জুন জমা দেয়া রিপোর্টের ওপর বিস্তারিত আলোচনা করেন। সভা শুরুর ২০ মিনিট পর একদল যুবলীগ কর্মী ‘জয় বাংলা’ স্লোগান দিয়ে সভাস্থলে প্রবেশ করে আইনজীবীদের মারধর ও হট্টগোল করে সভা পণ্ড করে দেয়।

২০১৭ সালের আইনজীবী সমিতির কার্যনির্বাহী পরিষদের সভাপতি ও খুলনা মহানগর যুবলীগের আহ্বায়ক অ্যাডভোকেট সরদার আনিসুর রহমান পপলু ও সাধারণ সম্পাদক সরকারি কৌঁসুলি অ্যাডভোকেট বিজন কৃষ্ণ মণ্ডলের পরিষদ বঙ্গবন্ধু ভবনের নির্মাণ কাজ শুরু করে। ভবন নির্মাণে ১ কোটি ৩ লাখ ৪৯ হাজার ৩৫০ টাকার অনিয়ম হয়েছে বলে তদন্ত কমিটির ৬৫ পৃষ্ঠার প্রতিবেদনে উল্লেখ করা হয়েছে। আইনজীবী সমিতির ছয়তলা এ ভবন নির্মাণের জন্য ২০১৬ সালের ২৩ নভেম্বর সরকার ৩ কোটি ১১ লাখ টাকা বরাদ্দ দেয়। চার সদস্যের তদন্ত কমিটি তদন্ত করে এ প্রতিবেদন জমা দেয়।

তদন্ত কমিটিতে আহ্বায়ক ছিলেন অ্যাডভোকেট এস এম মঞ্জুর উল আলম এবং তিনজন সদস্য ছিলেন অ্যাডভোকেট আব্দুল মালেক, অ্যাডভোকেট চিশতি সোহরাব হোসেন ও অ্যাডভোকেট এম এম মুজিবুর রহমান। চলতি বছরের ১৫ মার্চ থেকে কমিটি তদন্ত শুরু করে ১১জুন তদন্ত প্রতিবেদন দাখিল করেন।

এ ব্যাপারে খুলনা জেলা আাইনজীবী সমিতির সভাপতি অ্যাডভোকেট কাজী আবু শাহীন বলেন, সাধারণ সভায় ৮০ থেকে ৯০ শতাংশ আইনজীবী তদন্ত প্রতিবেদন অসম্পূর্ণ দাবি করে বাতিলের দাবি জানান। ফলে তা বাতিল করা হয়। তবে আর্থিক এ অনিয়মের বিষয়টি বাইরের লোক দিয়ে পুনরায় তদন্ত করা হবে।

যুবলীগের হামলায় সভা পণ্ড ও আইনজীবীদের মারধরের কোনো ঘটনা ঘটেনি বলে তিনি দাবি করেন।

এ ব্যাপারে তদন্ত কমিটির সদস্য ও জেলা আইনজীবী সমিতির সাবেক সভাপতি অ্যাডভোকেট এম এম মুজিবুর রহমান বলেন, সাধারণ সভা চলাকালে বহিরাগতদের হামলার ঘটনা ন্যাক্কারজনক ও নিন্দনীয়।

আর্থিক অনিয়মের অভিযোগের ব্যাপারে বিদায়ী কমিটির সভাপতি ও খুলনা মহানগর যুবলীগের আহ্বায়ক অ্যাডভোকেট সরদার আনিসুর রহমান পপলু বলেন, অর্থিক অনিয়মের তদন্ত রিপোর্ট অসম্পূর্ণ থাকায় সাধারণ সভায় তা বাতিল হয়ে যায়।

যুবলীগের কর্মীরা আইনজীবী সমিতিতে ঢুকে আইনজীবীদের মারধরের বিষয়ে পপলু বলেন, কোনো যুবলীগের ছেলে আইনজীবী সমিতিতে প্রবেশ করেনি। বৃষ্টির কারণে কিছু লোক সমিতিতে আশ্রয় নেয়।

এ ব্যাপারে খুলনা সদর থানা পুলিশের ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা (ওসি) মো. হুময়ুন কবির জানান, আইনজীবী সমিতি এলাকায় অতিরিক্ত পুলিশ মোতায়েন করা হয়েছে।




এ বিভাগের অন্যান্য খবর




নোটিশ : ডেইলি সিলেটে প্রকাশিত/প্রচারিত সংবাদ, আলোকচিত্র, ভিডিওচিত্র, অডিও বিনা অনুমতিতে ব্যবহার করা বেআইনি -সম্পাদক

© সর্বস্বত্ব স্বত্বাধিকার সংরক্ষিত

২০১১-২০১৭

সম্পাদকমন্ডলীর সভাপতি: মকিস মনসুর আহমদ
সম্পাদক ও প্রকাশক: কে এ রহিম সাবলু, নির্বাহী সম্পাদক: মারুফ হাসান
অফিস: ৯/আই, ব্লু ওয়াটার শপিং সিটি, ৯ম তলা, জিন্দাবাজার, সিলেট।
ফোন: ০৮২১-৭২৬৫২৭, মোবাইল: ০১৭১৭৬৮১২১৪ (নিউজ) ০১৭১২৮৮৬৫০৩ (সম্পাদক)
ই-মেইল: dailysylhet@gmail.com

Developed by: