সর্বশেষ আপডেট : ৭ মিনিট ৮ সেকেন্ড আগে
বৃহস্পতিবার, ২৫ এপ্রিল ২০১৯ খ্রীষ্টাব্দ | ১২ বৈশাখ ১৪২৬ বঙ্গাব্দ |

DAILYSYLHET

৭ম শ্রেণীর ছাত্রীকে ধর্ষণ করলেন ৬০ বছরের বৃদ্ধ!

নিউজ ডেস্ক:: ৬০ বছরের বৃদ্ধের বিরুদ্ধে ৭ম শ্রেণীর এক ছাত্রীকে ধর্ষণের অভিযোগ উঠেছে। ওই স্কুল ছাত্রী ৭ মাসের অন্তঃসত্ত্বা বলে জানা গেছে। ওই বৃদ্ধ একজন অবসরপ্রাপ্ত সরকারি কর্মকর্তা।

জানা যায়, টাঙ্গাইল জেলার কালিহাতী উপজেলার গিলাবাড়ি গ্রামের বাসিন্দা এজিপির সাবেক অডিট অফিসার আনছের আলীর বাড়িতে উক্ত স্কুলছাত্রীনিয়মিত যাতায়াত করতো। দরিদ্র পরিবারের সন্তান হওয়ায় শুধুমাত্র দুইবেলা খাওয়ার বিনিময়ে ওই ছাত্রী পড়াশোনার ফাঁকে আনছের আলীর বাড়িতে কাজ করতো।

আনছের আলীর স্ত্রী বেশিরভাগ সময় ঢাকায় অবস্থান করার সুযোগে ওই ছাত্রীর উপর কুনজর পড়ে ৬০ বছরের আনছের আলীর। টাকা-পয়সা ও বিভিন্ন জিনিসের লোভ দেখিয়ে মেয়েটিকে নিয়মিত ধর্ষণ করে। কিছুদিন আগে মেয়েটির শারীরিক অবস্থার পরিবর্তন দেখতে পায় পরিবারের লোকজন। জিজ্ঞসাবাদে সে সব কিছু খোলে বলে। পরে ডাক্তারি পরীক্ষায় সে ৭মাসের অন্তঃসত্তা বলে ধরা পড়ে।

বিষয়টি আনছের আলী ও তার ছেলে সুমন জানার পর মেয়ের পরিবারকে কাউকে কিছু না বলার জন্য হুমকি দেয়। এরই মধ্যে বাচ্চা নষ্ট করার জন্য মেয়ের পরিবারকে চাপ দেওয়া হয় নানা ভাবে। এরই ধারাবাহিকতায় শনিবার বিকালে মেয়েকে টাঙ্গাইলের স্থানীয় একটি নার্সিং হোমে বাচ্চা নষ্ট করার জন্য ভর্তি করা হয়। কিন্তু ৭ মাসের অন্তঃসত্তা হওয়ায় সেখানকার গাইনী ডাক্তার তা নষ্ট করতে অস্বীকৃতি জানান।

এ বিষয়ে গাইনী ডাক্তার মালেকা শফি মঞ্জু বলেন, শনিবার পেটের ব্যাথা নিয়ে ক্লিনিকে আসে। পরীক্ষায় ৭ মাসের অন্তঃসত্তা ধরা পড়ে। মেয়েটির পরিবার বাচ্চাটি নষ্ট করতে চাইলেও আমি তা করিনি।

এদিকে নার্সিং হোমে চিকিৎসাধীন ধর্ষিতা ওই ছাত্রী জানায়, ‘আমাকে টাকা-পয়সা ও বিভিন্ন জিনিসপত্রের লোভ দেখিয়ে নিয়মিত এ কাজ করতো। বিষয়টি আমি যাতে কাউকে না বলি এ জন্য প্রায়ই আমাকে মারতো। আমি ছোট মানুষ কোন কিছু বুঝতে পারিনি। এখন আমার অনেক কষ্ট হচ্ছে।’

এ বিষয়ে কথা বলতে আনছের আলীর ফোনে একাধীকবার যোগাযোগ করা হলে মুঠোফোনটিও বন্ধ পাওয়া যায়।

এ ব্যাপারে কালিহাতী থানা ওসি মীর মোসারফ হোসেন বলেন, ঘটনা সম্পর্কে আমার জানা নেই । এখন পর্যন্ত কেউ কোন অভিযোগ দেয়নি। অভিযোগ ব্যবস্থা নেয়া হবে বলে ওসি জানান।




এ বিভাগের অন্যান্য খবর




নোটিশ : ডেইলি সিলেটে প্রকাশিত/প্রচারিত সংবাদ, আলোকচিত্র, ভিডিওচিত্র, অডিও বিনা অনুমতিতে ব্যবহার করা বেআইনি -সম্পাদক

© সর্বস্বত্ব স্বত্বাধিকার সংরক্ষিত

২০১১-২০১৭

সম্পাদকমন্ডলীর সভাপতি: মকিস মনসুর আহমদ
সম্পাদক ও প্রকাশক: কে এ রহিম সাবলু, নির্বাহী সম্পাদক: মারুফ হাসান
অফিস: ৯/আই, ব্লু ওয়াটার শপিং সিটি, ৯ম তলা, জিন্দাবাজার, সিলেট।
ফোন: ০৮২১-৭২৬৫২৭, মোবাইল: ০১৭১৭৬৮১২১৪ (নিউজ) ০১৭১২৮৮৬৫০৩ (সম্পাদক)
ই-মেইল: [email protected]

Developed by: