সর্বশেষ আপডেট : ১২ মিনিট ৩ সেকেন্ড আগে
মঙ্গলবার, ২২ মে, ২০১৮, খ্রীষ্টাব্দ | ৮ জ্যৈষ্ঠ ১৪২৫ বঙ্গাব্দ |

DAILYSYLHET

ফের মাহাথির যুগে মালয়েশিয়া

আন্তর্জাতিক ডেস্ক::
দীর্ঘ দেড় দশকেরও বেশি সময় পর ফের মাহাথির যুগে ফিরল মালয়েশিয়া। সব ধরনের জরিপকে মিথ্যা প্রমাণ করে বুধবার অনুষ্ঠিত প্রতিদ্বন্দ্বিতাপূর্ণ পার্লামেন্ট নির্বাচনে আধুনিক মালয়েশিয়ার রূপকার মাহাথির মোহাম্মদের নেতৃত্বাধীন জোট জয় পেয়েছে। দুর্নীতিই কাল হলো প্রধানমন্ত্রী নাজিব রাজাকের জন্য। গুরুর কাছে অবশেষে শিষ্যের হার হলো। গতকাল রাতে ৯২ বছর বয়সী মাহাথিরের সমর্থকদের রাস্তায় উল্লাস করতে দেখা গেছে। একটি সূত্র জানিয়েছে, সরকার গঠনের জন্য মাহাথিরকে আমন্ত্রণ জানিয়েছেন রাজা। মাহাথির মোহাম্মদ জানিয়েছেন, শিগগিরই শপথ নেবেন তারা।

বিরোধীদের জয়ের খবরে গতকাল পূর্ব নির্ধারিত সংবাদ সম্মেলনও বাতিল করেন নাজিব রাজাক। ওয়াল স্ট্রিট জার্নাল মালয়েশিয়ার নির্বাচন কমিশনের বরাত দিয়ে জানিয়েছে, পার্লামেন্টের ২২২ আসনের মধ্যে ২০৭টির ফল পাওয়া গেছে। এর মধ্যে ১১২টি আসনে জয় পেয়েছে মাহাথির মোহাম্মদের নেতৃত্বাধীন পাকাতান হারাপান। আর প্রধানমন্ত্রী নাজিব রাজাকের বারিসান ন্যাশনাল পেয়েছে ৭৫ আসন। কয়েকটি ছোট দল পেয়েছে ১৯ আসন। তবে এবিসি নিউজ জানায়, বারিসান ন্যাশনাল পেয়েছে ৭৬টি আসন। সরকার গঠন করতে ন্যূনতম ১১২ আসন দরকার। মাহাথির মোহাম্মদ প্রধানমন্ত্রী নাজিবকে নির্বাচনী ফলাফল মেনে নেওয়ার আহ্বান জানিয়েছেন।

এর আগে গতকাল সকাল ৮টা থেকে শুরু হওয়া ভোটগ্রহণ স্থানীয় সময় বিকাল ৫টায় শেষ হয়। নির্বাচনে তুমুল প্রতিদ্বন্দ্বিতা হয়। দেশটির পূর্বাঞ্চল সারাওয়াক প্রদেশে ক্ষমতাসীন দলের দুই মন্ত্রী ইতোমধ্যে হেরে গেছেন। মালয় অধ্যুষিত ওই অঞ্চলে চীনা ও ভারতীয় দুটি দলের প্রধান তাদের নিজ আসনে পরাজিত হয়েছেন। এই অঞ্চল ক্ষমতাসীন ন্যাশনাল ফ্রন্টের ভোট ব্যাংক হিসেবে পরিচিত। কেন্দ্রীয় পার্লামেন্টের ২২২ আসনে এবং ১৩ রাজ্যের ১২টিতে ৫০৫ আসনে প্রার্থীরা প্রতিদ্বন্দ্বিতা করেছেন। মালয়েশিয়া ভোটার রয়েছে প্রায় দেড় কোটি। এর মধ্যে পুলিশ ও সশস্ত্র বাহিনীর তিন লাখ ভোটার ৫ মে আগাম ভোট দিয়েছেন। মাহাথির মোহাম্মদ সরকারের বিরুদ্ধে নির্বাচনী ফলাফল ঘোষণার হস্তক্ষেপের অভিযোগ এনেছেন। এদিকে পুত্রজায়ায় সৈন্য ও সামরিক সরঞ্জাম মোতায়েনের খবর পাওয়া গেলেও সেনাবাহিনীর পক্ষ থেকে তা অস্বীকার করা হয়েছে।

মালয়েশিয়ায় এবারের সাধারণ নির্বাচন দেশটির ইতিহাসের ১৪তম। স্বাধীনতার পর রাজনৈতিক জোট বারিসান ন্যাশনাল (বিএন)। ৬০ বছরেরও বেশি সময় ধরে এই জোট মালয়েশিয়া শাসন করছে। মাহাথির মোহাম্মদও এই জোটের অংশ ছিলেন। ক্ষমতায়ও এসেছিলেন এবং ২২ বছর ধরে মালয়েশিয়া শাসন করেছেন। দক্ষিণ এশিয়ার অন্যতম সফল রাষ্ট্রনায়ক মনে করা হয় তাকে। ক্ষমতা ছাড়ার ১৫ বছর পর ফের পার্লামেন্টে প্রতিনিধিত্ব করবেন মালয়েশিয়ার এই সাবেক প্রধানমন্ত্রী। নাজিব রাজাককে রাজনীতিতে মাহাথিরই প্রতিষ্ঠিত করেছিলেন এবং ক্ষমতায় বসিয়েছিলেন। মালয়েশিয়ার বিরোধীদলীয় জোট পাকাতান হারাপান চলতি বছরের জানুয়ারি মাসে মাহাথিরকে প্রধানমন্ত্রী পদে প্রার্থী হিসেবে ঘোষণা করে। নাজিবের পতনের জন্যই একসময়ের বিরোধী আনোয়ার ইব্রাহিমের সঙ্গে হাত মিলিয়েছেন বলে জানিয়েছেন মাহাথির। তিনি আরো জানিয়েছিলেন, নির্বাচিত হলেও বেশিদিন ক্ষমতায় থাকবেন না তিনি। পুরনো শত্রু আনোয়ার ইব্রাহিমকে ক্ষমতায় এনে বিদায় নেবেন। কিন্তু তার সেই বক্তব্য নিয়ে সংশয় আছে বলেই অনেকে মনে করেন।

 




এ বিভাগের অন্যান্য খবর

নোটিশ : ডেইলি সিলেটে প্রকাশিত/প্রচারিত সংবাদ, আলোকচিত্র, ভিডিওচিত্র, অডিও বিনা অনুমতিতে ব্যবহার করা বেআইনি -সম্পাদক

© সর্বস্বত্ব স্বত্বাধিকার সংরক্ষিত

২০১১-২০১৬

সম্পাদকমন্ডলীর সভাপতি : মকিস মনসুর আহমদ, সম্পাদক : লিয়াকত শাহ ফরিদী
প্রকাশক : কে এ রহিম, নির্বাহী সম্পাদক: মারুফ হাসান
কার্যালয়: ব্লু ওয়াটার শপিং সিটি, ৯ম তলা, জিন্দাবাজার, সিলেট-৩১০০
ফোন : ০৮২১-৭২৬ ৫২৭, ০১৭১৭ ৬৮ ১২ ১৪ (নিউজ), ০১৭১২ ৮৮ ৬৫ ০৩ (সম্পাদক)
ই-মেইল: dailysylhet@gmail.com

Developed by: