সর্বশেষ আপডেট : ৩ মিনিট ৭ সেকেন্ড আগে
বুধবার, ২১ অগাস্ট ২০১৯ খ্রীষ্টাব্দ | ৬ ভাদ্র ১৪২৬ বঙ্গাব্দ |

DAILYSYLHET

জামিন পেলেন পুজদেমন

আন্তর্জাতিক ডেস্ক::
স্পেনের কাতালোনিয়া অঙ্গরাজ্যের ক্ষমতাচ্যুত প্রেসিডেন্ট ও স্বাধীনতাকামী নেতা কার্লোস পুজেমনকে বিদ্রোহের অভিযোগে স্পেন সরকারের হাতে তুলে দেয়ার আবেদন প্রত্যাখ্যান করেছে জার্মানির একটি আদালত। পাশাপাশি তাকে জামিনেরও নির্দেশ দেয়া হয়েছে। খবর বিবিসির।

বৃহস্পতিবার জার্মানির চেলসউইগ-হোলস্টেইন আদালত এক রায়ে বলেছে, পুজেমনকে স্পেনে ফেরত পাঠানোর আবেদন প্রত্যাখ্যান করা হয়েছে। তবে তাকে স্পেনে দুর্নীতির মামলার মুখোমুখি হতে পারে। ওই অভিযোগের বিষয়ে বিস্তারিত তথ্য জানতে চেয়ে ৭৫ হাজার ইউরো জমা দেয়ার শর্তে তাকে জামিনে মুক্তির আদেশ দেয়া হয়।

গত এক সপ্তাহের বেশি সময় ধরে পুজেমনকে স্পেনে ফেরত পাঠানোর অনুরোধের বিষয়ে কি করা যায়- তাই চিন্তাভাবনা করেছে জার্মানির এই আদালত।

গত সপ্তাহে জার্মানির সর্ব উত্তরের স্লিসভিগ হলস্টাইন রাজ্যে ফিনল্যান্ড থেকে সড়কপথে বেলজিয়াম যাওয়ার সময় আটক হন পুজেমন।

ডেনমার্ক থেকে সীমান্ত পার হওয়ার পরপরই স্পেনের গোয়েন্দাদের তথ্যের ভিত্তিতে গত ২৫ মার্চ তাকে আটক করে জার্মান পুলিশ। ইউরোপীয় আদালতে স্পেন সরকারের দায়ের করা মামলার কারণে কাতালোনিয়া রাজ্যের স্বাধীনতাকামী এই নেতার বিরুদ্ধে গ্রেপ্তারি পরোয়ানা জারি ছিল। আটকের পর থেকেই স্লিসভিগ হলস্টাইন রাজ্যের ছোট শহর নয়ে মুনস্টারের একটি কারাগারে আটক রয়েছেন পুজদেমন।

কাতালোনিয়া রাজ্যের স্বাধীনতার প্রশ্নে গত বছর ১ অক্টোবর গণভোট অনুষ্ঠিত হয়েছিল। স্পেনের সংবিধানের ১৫৫ অনুচ্ছেদ ও সাংবিধানিক আদালতের নিষেধাজ্ঞা লঙ্ঘন করেই কাতালোনিয়ার আঞ্চলিক সরকার কাতালোনিয়ার স্বাধীনতার প্রশ্নে নির্বাচনে রাজ্যটির ৪২ শতাংশ ভোটারের কাছ থেকে ৯০ শতাংশ ভোট পান।

আইন ও সংবিধানের চোখে বেআইনি সেই নির্বাচনে অংশগ্রহণ থেকে ওই সময় বিরত ছিল ৫৮ শতাংশ মানুষ। কাতালোনিয়ার আঞ্চলিক সরকারের প্রধান কার্লোস পুজেমন অনেক আগে থেকেই কাতালোনিয়ার স্বাধীনতার প্রবক্তা হিসেবে পরিচিত। গণভোটের কাতালোনিয়ার স্বাধীনতার পক্ষে রায় এলে স্পেন কর্তৃপক্ষ পুজেমনের বিরুদ্ধে বিদ্রোহ, রাষ্ট্রদ্রোহ এবং অর্থ আত্মসাতের অভিযোগ তোলে। একই সঙ্গে দেশটির সুপ্রিম কোর্ট ওই গণভোটকে অবৈধ বলে ঘোষণা করেন।

স্পেন সরকার কার্লোস পুজেমনের বিরুদ্ধে গ্রেপ্তারি পরোয়ানা জারি করলে তিনি গত বছর বেলজিয়ামে স্বেচ্ছা নির্বাসনে চলে যান। পরবর্তী সময়ে স্পেন সরকার এই নেতাকে গ্রেপ্তার করতে ইউরোপীয় আদালতের দ্বারস্থ হয়। স্পেন সরকারের সংবিধান লঙ্ঘনের দায়ে কাতালোনিয়ার রাজ্যের স্বাধীনতাকামী এই নেতা কার্লোস পুজেমনের স্পেনের আদালত ১৫ বছর জেল হতে পারে।

 



এ বিভাগের অন্যান্য খবর



নোটিশ : ডেইলি সিলেটে প্রকাশিত/প্রচারিত সংবাদ, আলোকচিত্র, ভিডিওচিত্র, অডিও বিনা অনুমতিতে ব্যবহার করা বেআইনি -সম্পাদক

© সর্বস্বত্ব স্বত্বাধিকার সংরক্ষিত

২০১১-২০১৭

সম্পাদকমন্ডলীর সভাপতি: মকিস মনসুর আহমদ
সম্পাদক ও প্রকাশক: খন্দকার আব্দুর রহিম, নির্বাহী সম্পাদক: মারুফ হাসান
অফিস: ৯/আই, ব্লু ওয়াটার শপিং সিটি, ৯ম তলা, জিন্দাবাজার, সিলেট।
ফোন: ০৮২১-৭২৬৫২৭, মোবাইল: ০১৭১৭৬৮১২১৪
ই-মেইল: [email protected]

Developed by: